Thursday, April 13th, 2017
‘আজ মানুষও বেশি বিক্রিও বেশি’
April 13th, 2017 at 4:22 pm
‘আজ মানুষও বেশি বিক্রিও বেশি’

ঢাকা: রাত পোহালেই বাঙালির প্রাণের উৎসব পহেলা বৈশাখ। আরেকটি নতুন বছরকে বরণ করে নেবে জাতি। এই উৎসব ঘিরে রাজধানীর বিপণিবিতানগুলো সেজেছে বৈশাখী সাঁজে। আর মাত্র ১ দিন বাকি থাকায় একই সঙ্গে সব বয়সী মানুষ বাঙালি সাজে নিজেকে সাজাতে বিভিন্ন শপিং সেন্টার, ফ্যাশন হাউসগুলোতে ভিড় জমাচ্ছেন। ফলে নিউমার্কেট, আজিজ, গাউছিয়া, চাঁদনী চক, এলিফ্যান্ট রোডসহ রাজধানীর বিপণিবিতান গুলোতে কেনাকাটা জমজমাট।

এবারও লাল, সাদা, নীলসহ বাহারি রঙে নারী-পুরুষসহ সব বয়সী মানুষের পোশাকে দেশীয় ঐতিহ্য ফুটিয়ে তুলেছেন ডিজাইনাররা। নিজেদের পছন্দের শাড়ি, জামার সঙ্গে মানানসই মালা, দুল কিনতে অনেকে আবার ভিড় করছেন গয়নার দোকানে। এদিকে গত বছর থেকে বৈশাখ উপলক্ষে সরকারি কর্মকর্তা ও কর্মচারী, সশস্ত্র বাহিনী ও বিজিবি সদস্য, রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাংকের চাকরিজীবী এবং এমপিওভুক্ত শিক্ষকদের নববর্ষ ভাতা নামে বোনাস দিচ্ছে। যে কারণে বৈশাখের কেনাকাটায় নতুন মাত্রা যোগ হয়েছে।

আজিজ সুপার মার্কেটের এক বিক্রেতা নিউজনেক্সটবিডি ডটকমকে বলেন, ‘এবার বৈশাখে গত ২ বছরের তুলনায় ক্রেতার ভিড় বেশি মনে হচ্ছে। আর আজকে শেষ দিন হওয়ায় বেশি মানুষ আসছেন এবং কিনছেন। আগে মানুষ আসলেও তেমন বিক্রি ছিলনা, তবে আজকে মানুষ যেমন বেশি কেনাবেচাও তেমন বেশি।’

আরেক বিক্রেতা নিউজনেক্সটবিডি ডটকমকে বলেন, ‘প্রতিবারের মতো এবারও মেয়েদের পোশাকই বেশি বিক্রি হচ্ছে। ছেলেদের অল্প কিছু পাঞ্জাবি বিক্রি হয়েছে। আর মেয়েদের সাড়ি আর বিভিন্ন ধরনের গহনা বিক্রি হচ্ছে। এখানে কাতান, তাঁত, টাঙ্গাইল ও বুটিকস, সিল্ক, জামদানি, কোটাসহ নানা ধরনের শাড়ি পাওয়া যাচ্ছে। শাড়িগুলো মিলবে পাঁচশ’ থেকে ১০ হাজার টাকার মধ্যে। আর পাঞ্জাবি পাওয়া যাচ্ছে ১ হাজার ৫০০ থেকে ৩ হাজারের মধ্যে।’

গাউছিয়া সুপার মার্কেটের এক ক্রেতা নিউজনেক্সটবিডি ডটকমকে বলেন, ‘পহেলা বৈশাখ আমাদের প্রাণের উৎসব। এ উৎসবকে আমরা নানা আয়োজনের মাধ্যমে পালন করে থাকি। তাই সময়ের সাথে মিলিয়ে নতুন ধরনের পোশাক কিনি।’ এদিকে জামা কাপড়ের দাম নিয়ে তিনি বলেন, ‘জামা কাপড়ের দাম খুব বেশি না আবার কমও না। তবে গতবারের থেকে একটু বেশি। আর এবার সিঙ্গেল জামা পাওয়া যাচ্ছে আর তাই ওড়না আর পাজামা না কিনলেও হচ্ছে, তবে সাড়ির দাম আগের বারের থেকে অনেক বেশি।’

এদিকে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের চারুকলা ও ইডেন মহিলা কলেজের সামনের ফুটপাতসহ নানা জায়গায় দেখা যাচ্ছে বৈশাখ উপলক্ষে নানা রঙের নকশা করা চুড়ির পসরা। জানা যায় চুড়ির দাম সব সময়ই এক থাকলেও শুধু বৈশাখে প্রতি ডজনে ১০ থেকে ১৫ টাকা বেশি নেয়া হয়। কারণ পাইকারি মূল্যও বেড়ে যায়। কাচের প্লেইন চুড়ি বিক্রি হয় ডজন ৪০ থেকে ৫০ টাকা করে, আর নকশা করা চুড়ি বিক্রি ৬০ টাকায়।

প্রতিবেদন: এম কে রায়হান, সম্পাদনা: জাহিদ


সর্বশেষ

আরও খবর

সন্দেহভাজন প্যারিস হামলাকারীর ২০ বছর কারাদণ্ড     

সন্দেহভাজন প্যারিস হামলাকারীর ২০ বছর কারাদণ্ড     


বিক্ষোভের মুখে আর্মেনিয়ার প্রধানমন্ত্রীর পদত্যাগ

বিক্ষোভের মুখে আর্মেনিয়ার প্রধানমন্ত্রীর পদত্যাগ


তৃতীয় সন্তানের জন্ম দিলেন কেট মিডলটন

তৃতীয় সন্তানের জন্ম দিলেন কেট মিডলটন


বিশ্ব একাদশে সাকিব-তামিম

বিশ্ব একাদশে সাকিব-তামিম


১৯ ক্যাটাগরির কর্মী যাবে সংযুক্ত আরব আমিরাতে

১৯ ক্যাটাগরির কর্মী যাবে সংযুক্ত আরব আমিরাতে


পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রীকে তারেকের উকিল নোটিশ

পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রীকে তারেকের উকিল নোটিশ


দেশে ফিরেছেন প্রধানমন্ত্রী

দেশে ফিরেছেন প্রধানমন্ত্রী


গাজীপুরে বিলু হত্যায় ১৩ জনের মৃত্যুদণ্ডাদেশ

গাজীপুরে বিলু হত্যায় ১৩ জনের মৃত্যুদণ্ডাদেশ


কাল দেশে ফিরছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

কাল দেশে ফিরছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা


যুক্তরাষ্ট্রে রেস্টুরেন্টে নগ্ন হামলাকারীর গুলিতে নিহত ৩

যুক্তরাষ্ট্রে রেস্টুরেন্টে নগ্ন হামলাকারীর গুলিতে নিহত ৩