Saturday, April 8th, 2017
নিষিদ্ধের প্রক্রিয়ায় নব্য জেএমবি
April 8th, 2017 at 10:15 pm
নিষিদ্ধের প্রক্রিয়ায় নব্য জেএমবি

প্রীতম সাহা সুদীপ, ঢাকা: নিষিদ্ধ হচ্ছে জঙ্গি সংগঠন নব্য জেএমবি। সাংগঠনিক ভাবে দুর্বল করতে এমন পরিকল্পনা। এরই মধ্যে নিষিদ্ধের প্রক্রিয়া শুরু করেছে সরকার। পুলিশের কাউন্টার টেরোরিজম অ্যান্ড ট্র্যান্স ন্যাশনাল ক্রাইম ইউনিটের (সিটিটিসি) পক্ষ থেকে এ সংক্রান্ত একটি প্রতিবেদন পুলিশ সদর দফতরের মাধ্যমে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে পাঠানো হয়েছে।

পুলিশের ধারণা, নব্য জেএমবিকে সন্ত্রাসী সংগঠন হিসেবে নিষিদ্ধ করা হলে তারা সাংগঠনিকভাবে দুর্বল হয়ে পড়বে। তাদের সদস্য সংগ্রহ কার্যক্রম বাধাপ্রাপ্ত হবে এবং নিষিদ্ধ হওয়ার পরও কেউ এই সংগঠনে যোগদান বা সমর্থন করলে তাদের চিহ্নিত করে আইনের আওতায় আনা সহজ হবে।

নব্য জেএমবি নিষিদ্ধের বিষয়ে শনিবার দুপুরে রাজধানীর শেরেবাংলা নগর মহিলা ডিগ্রি কলেজে এক অনুষ্ঠান শেষে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল সাংবাদিকদের বলেন, ‘জঙ্গিবাদ নির্মূল করতে পর্যায়ক্রমে সব উগ্রবাদী সংগঠনকে নিষিদ্ধ করা হবে। নব্য জেএমবি বলেন আর যে জঙ্গি সংগঠনই বলেন, যেটাই সামনে আসবে আমরা একের পর এক তাদের নিষ্ক্রিয় করবো, নিষিদ্ধ করবো। তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেব।’

অন্যদিকে কাউন্টার টেরোরিজম ইউনিটের প্রধান মনিরুল ইসলাম ডিএমপি মিডিয়া সেন্টারে এক সংবাদ সম্মেলনে বলেন, ‘নব্য জেএমবিকে নিষিদ্ধের প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে। সিটিটিসি’র পক্ষ থেকে এ সংক্রান্ত প্রতিবেদন পুলিশ সদর দফতরের মাধ্যমে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে পাঠানো হয়েছে।’

মূলত দুটি কারণে নব্য জেএমবিকে নিষিদ্ধ ঘোষণার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে জানিয়ে তিনি বলেন, ‘জঙ্গি সংগঠনটি নিষিদ্ধ হলে রিক্রুটমেন্টের ক্ষেত্রে অসুবিধা তৈরি হবে। অন্যদিকে সাইকোলজির দিক থেকে লোকজন আর নিষিদ্ধ সংগঠনে যোগ দেবে না।’

মনিরুল ইসলাম বলেন, ‘একটি জঙ্গি দলকে যখন নিষিদ্ধ ঘোষণা করা হয়, তখন তাদের সদস্য সংগ্রহ করতে বেগ পেতে হয়। কারণ নিষিদ্ধ সংগঠনে কেউ কাজ করতে চায় না, এতে সাংগঠনিকভাবে তারা দুর্বল হয়ে পড়ে। নব্য-জেএমবি সম্পর্কে সুনির্দিষ্ট ও সুস্পষ্ট ধারণা রয়েছে। তবে তাদের সাংগাঠনিক কার্যক্রমের কোনো কাগজপত্র পাওয়া যায়নি।’

যেভাবে আত্মপ্রকাশ করে নব্য জেএমবি-

২০০৫ সালের ২৩ ফেব্রুয়ারি জঙ্গি সংগঠন জামায়াতুল মুজাহিদিন বাংলাদেশকে (জেএমবি) নিষিদ্ধ ঘোষণা করা হয়। এরপরই এটি সাংগঠনিকভাবে দুর্বল হয়ে পড়ে। তখন জেএমবির যেসব সদস্য ‘ধীরে চলো’ নীতি থেকে বেরিয়ে সশস্ত্র হামলার মাধ্যমে কথিত খেলাফত প্রতিষ্ঠা করতে চেয়েছিল তারাই ২০১৩ সালে ‘নব্য জেএমবি’ নামে আত্মপ্রকাশ করে।

প্রথম দিকে সংগঠনটি মধ্যপ্রাচ্যের ইরাক ও সিরিয়ায় জিহাদি পাঠানো শুরু করে। ২০১৪ সালের ২৯ জুন ইরাক-সিরিয়ায় আন্তর্জাতিক জঙ্গি সংগঠন ইসলামিক স্টেটের (আইএস) খেলাফত ঘোষণার পর নব্য জেএমবি ২০১৫ সালের সেপ্টেম্বর মাস থেকে বিদেশি নাগরিক, ভিন্ন মতাবলম্বী ও ভিন্ন ধর্মাবলম্বীদের টার্গেট ও হত্যা শুরু করে। গত বছরের ১ জুলাই রাজধানীর গুলশানের হলি আর্টিজান বেকারিতে হামলা চালিয়ে দেশি-বিদেশি ২০ নাগরিক ও দুই পুলিশ কর্মকর্তাকে হত্যার পর নতুন করে আলোচনায় আসে সংগঠনটি।

মূলত বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত কানাডার নাগরিক তামিম আহমেদ চৌধুরী দেশে ফেরার পরই নব্য জেএমবির কর্মকাণ্ড শুরু হয়। প্রায় একই সময়ে ভারতে পালিয়ে থাকা পুরনো জেএমবির কিছু সদস্যও মত-পার্থক্য ভুলে এ সংগঠনে যোগ দেয়।

গোয়েন্দা সূত্র জানায়, যে তিনটি ধারার জঙ্গিরা মিলে নব্য জেএমবির কার্যক্রম চালাচ্ছে তাদের একটি অংশ এসেছে সিরিয়াসহ মধ্যপ্রাচ্যের বিভিন্ন দেশ এবং আফগানিস্তান ও পাকিস্তান থেকে প্রশিক্ষণ নিয়ে। আরেকটি অংশ এসেছে পুরনো জেএমবি থেকে। তৃতীয় অংশটিতে আছে বাংলাদেশ ও ভারতের কিছু এলাকায় অবিচ্ছেদ্যভাবে কর্মকাণ্ড চালিয়ে কথিত খেলাফত প্রতিষ্ঠায় আগ্রহী জঙ্গিরা। তারা সম্প্রতি ‘দাওলাতুল ইসলাম’ নামও ব্যবহার করেছে। প্রথম ধারাটির প্রধান ছিলেন তামিম চৌধুরী, যিনি নারায়ণগঞ্জে জঙ্গি বিরোধী অভিযানে নিহত হয়েছেন।

নিষিদ্ধ হয়েছে যেসব জঙ্গি সংগঠন-

জঙ্গি কার্যক্রমের অভিযোগে এ পর্যন্ত বাংলাদেশে সাতটি সংগঠনকে নিষিদ্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। সর্বশেষ গত ৫ মার্চ একের পর এক ব্লগার, প্রকাশক ও ছাত্র-শিক্ষককে হত্যার স্বীকারকারী জঙ্গি সংগঠন আনসার আল ইসলামকে নিষিদ্ধ ঘোষণা করা হয়।

এর আগে শাহাদত-ই-আল হিকমা, হরকাতুল জিহাদ বাংলাদেশ, জামায়াতুল মুজাহিদীন বাংলাদেশ (জেএমবি) ও জাগ্রত মুসলিম জনতা বাংলাদেশ (জেএমজেবি), হিযবুত তাহরীর এবং আনসারুল্লাহ বাংলা টিমকে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় নিষিদ্ধ ঘোষণা করেছিল।

সম্পাদনা: সজিব ঘোষ


সর্বশেষ

আরও খবর

সৌদি আরবে দ্বীপ বিক্রি নিয়ে উত্তাল মিশর

সৌদি আরবে দ্বীপ বিক্রি নিয়ে উত্তাল মিশর


লাখো মানুষের অংশগ্রহণে শোলাকিয়ার ঈদের জামাত

লাখো মানুষের অংশগ্রহণে শোলাকিয়ার ঈদের জামাত


ব্রেক্সিটের পরও শূন্য শুল্কের সুবিধা পাচ্ছে বাংলাদেশ

ব্রেক্সিটের পরও শূন্য শুল্কের সুবিধা পাচ্ছে বাংলাদেশ


ঈদ মৈত্রী ও সম্প্রীতির বন্ধনে আবদ্ধ করে: প্রধানমন্ত্রী

ঈদ মৈত্রী ও সম্প্রীতির বন্ধনে আবদ্ধ করে: প্রধানমন্ত্রী


ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় : বঙ্গভবনে রাষ্ট্রপতি, গণভবনে প্রধানমন্ত্রী

ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় : বঙ্গভবনে রাষ্ট্রপতি, গণভবনে প্রধানমন্ত্রী


ঢাকায় ঈদ জামাত কোথায় কখন

ঢাকায় ঈদ জামাত কোথায় কখন


আইন মেনেই বাড়িটি ভাঙা হয়েছে: রাজউক

আইন মেনেই বাড়িটি ভাঙা হয়েছে: রাজউক


ঈদের দিন হতে পারে বৃষ্টি

ঈদের দিন হতে পারে বৃষ্টি


সৌদির সঙ্গে মিল রেখে দেশের বিভিন্ন এলাকায় ঈদ উদযাপন

সৌদির সঙ্গে মিল রেখে দেশের বিভিন্ন এলাকায় ঈদ উদযাপন


‘বিএনপির টপ টু বটম নেতাদের পদত্যাগ করা উচিত’

‘বিএনপির টপ টু বটম নেতাদের পদত্যাগ করা উচিত’