Monday, March 20th, 2017
পূর্ব দামেস্কে সিরিয়ার বিমান হামলা
March 20th, 2017 at 7:45 pm
পূর্ব দামেস্কে সিরিয়ার বিমান হামলা

দামেস্ক: সিরিয়ার সরকারী বাহিনীর যুদ্ধ বিমান থেকে সোমবার বিদ্রোহী দখলকৃত দামেস্কের আশেপাশের এলাকায় বোমাবর্ষণ করা হয়। এর আগেরদিন বিদ্রোহীরা আকস্মিকভাবে সিরিয় বাহিনীর উপর হামলা করে বসে। ফলে উভয়পক্ষই তুমুল সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে।

আল কায়েদার সঙ্গে সম্পর্ক ছিন্ন করা জাবহাত ফাতেহ আল-শাম(সাবেক নুসরা ফ্রন্ট) রাজধানী দামেস্কের পূর্বাঞ্চলে গত রোববার সকালের দিকে সিরিয়ার সরকারী বাহিনীকে লক্ষ্য করে অভিযান পরিচালনা করে।

যুক্তরাজ্যভিত্তিক সিরিয়ান অবজারভেটরি ফর হিউম্যান রাইটস জানান, সিরিয়ার প্রেসিডেন্ট বাশার আল আসাদের অনুগত বাহিনী হামলাকারী বিদ্রোহীদের সরকার নিয়ন্ত্রিত এলাকা থেকে দিনশেষে বিতাড়িত করতে সমর্থ হয়। পরবর্তীকালে তারা সোমবার সকালে বিদ্রোহীদের লক্ষ্য করে বিমান থেকে বোমাবর্ষণ করে।

সিরিয়ান অবজারভেটরি ফর হিউম্যান রাইটস এর প্রধান রামি আবদেল রহমান জানান, দামেস্কের জোবার জেলার বিদ্রোহী দখলকৃত এলাকায় আসাদ বাহিনী তীব্র বিমান হামলা শুরু করে।

তিনি জানান, সরকার এবং মিত্র বাহিনীর উদ্যোগে বিদ্রোহী এলাকা পুনর্দখল করার প্রাথমিক পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে। রোববারের হামলায় জড়িত জাবহাত ফাতেহ আল-শাম গ্রুপকে লক্ষ্য করে বিমান হামলাও করা হয়।

তবে পাশাপাশি তিনি উল্লেখ করেন, জোবারে সোমবার বিদ্রোহীদের উপর পরিচালিত বিমান হামলা সিরিয়ার সরকারী করেছে না কি তার মিত্র রাশিয়া করেছে সে বিষয়ে সুস্পষ্ট কোন ধারণা পাওয়া যায়নি।

আবদেল রহমান জানান, এই যুদ্ধে ২৬ জন সরকারী সেনা বা তাদের মিত্র বাহিনীর যোদ্ধা নিহত হন।এছাড়া ২১ জন বিদ্রোহী প্রাণ হারিয়েছেন। কিন্তু সোমবারের অভিযানে কতজন প্রাণ হারিয়েছেন সে বিষয়ে তাৎক্ষণিক তথ্য দিতে পারেননি তিনি।

এদিকে আল জাজিরার সংবাদদাতা মোহাম্মদ আল জাজেরি জানান, দামেস্কের কাছে আবাসিক এলাকা ঘৌটার পূর্বাঞ্চলে সরকারী বাহিনীর বোমা বর্ষণে অন্তত ১৫ জন বেসামরিক নাগরিক নিহত হন।

গত রোববারের হামলায় জাবহাত ফাতেহ আল-শাম ছাড়াও তাহরির আল–শাম গ্রুপও অংশ নেয়।

সিরিয়ার সরকারী টেলিভিশন সোমবার রুশ রাষ্ট্রদূতের উদ্ধৃতি দিয়ে জানায়, সংঘর্ষের সময় দামেস্কের রাশিয়ার দূতাবাসের একটি ভবনে বোমা আঘাত হানে।

এদিকে রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা বলছেন, সরকারী বাহিনীর উপর বিদ্রোহী একটি গ্রুপের আকস্মিক হামলা প্রমাণ করে যুদ্ধ এখনো চলছে এবং বিদ্রোহীরা ক্রমান্বয়ে শক্তিশালী হয়ে উঠছে। উল্লেখ্য, গত ডিসেম্বরে রাশিয়া এবং তুরস্কের মধ্যস্ততায় সিরিয়ার সরকার এবং বিদ্রোহী দলগুলো দেশজুড়ে যুদ্ধবিরতি পালনে রাজি হয়েছে। তা সত্ত্বেও দেশটিতে উভয় পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ অব্যাহত রয়েছে। সূত্র: আল জাজিরা

গ্রন্থনা ও সম্পাদনা: ফারহানা করিম

 


সর্বশেষ

আরও খবর

ম্যানহাটান হামলাকারী সম্ভবত বাংলাদেশি

ম্যানহাটান হামলাকারী সম্ভবত বাংলাদেশি


রোহিঙ্গা নারীদের নির্বিচারে ধর্ষণ করেছে মিয়ানমার সেনাবাহিনী

রোহিঙ্গা নারীদের নির্বিচারে ধর্ষণ করেছে মিয়ানমার সেনাবাহিনী


জেরুজালেমের ব্যাপারে ইইউর সমর্থন চান নেতানিয়াহু

জেরুজালেমের ব্যাপারে ইইউর সমর্থন চান নেতানিয়াহু


কংগ্রেসের নতুন সভাপতি রাহুল গান্ধী

কংগ্রেসের নতুন সভাপতি রাহুল গান্ধী


সৌদিতে দেখা মিলবে সিনেমা

সৌদিতে দেখা মিলবে সিনেমা


আইএসের বিরুদ্ধে বিজয় উদযাপনে ইরাক

আইএসের বিরুদ্ধে বিজয় উদযাপনে ইরাক


লেবাননে মার্কিন দূতাবাসের সামনে সংঘর্ষ

লেবাননে মার্কিন দূতাবাসের সামনে সংঘর্ষ


ট্রাম্পের ঘোষণা জঙ্গিদের জন্য অক্সিজেন: সৌদি আরব

ট্রাম্পের ঘোষণা জঙ্গিদের জন্য অক্সিজেন: সৌদি আরব


জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদে তোপের মুখে যুক্তরাষ্ট্র

জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদে তোপের মুখে যুক্তরাষ্ট্র


পশ্চিম তীরে ব্যাপক সংঘর্ষ

পশ্চিম তীরে ব্যাপক সংঘর্ষ