Tuesday, November 28th, 2017
‘রোহিঙ্গা’ শব্দটি ব্যবহার না করেই বক্তব্য দিলেন পোপ
November 28th, 2017 at 7:28 pm
‘রোহিঙ্গা’ শব্দটি ব্যবহার না করেই বক্তব্য দিলেন পোপ

ডেস্ক: প্রত্যেক নৃ-গোষ্ঠীর সঙ্গে শ্রদ্ধাপূর্ণ আচরণের দাবি জানিয়েছেন রোমান ক্যাথলিকদের ধর্মগুরু পোপ ফ্রান্সিস। রোহিঙ্গাদের প্রতি ইঙ্গিত করে মঙ্গলবার মিয়ানমারে এই বক্তব্য দিয়েছেন তিনি। তবে তিনি তার বক্তব্যে একবারের জন্যও ‘রোহিঙ্গা’ শব্দটি ব্যবহার করেননি।

বিবিসি জানায়, রোহিঙ্গা সম্প্রদায়দের ফিরিয়ে নিতে ‘রোহিঙ্গা’ শব্দটি ব্যবহার করার জন্য পোপকে মানবাধিকার সংস্থাগুলো মিয়ানমার সফরের আগে আহ্বান জানিয়েছিল।

মিয়ানমারের একমাত্র ক্যাথলিক কার্ডিনাল মিয়ানমার সফরকালে ‘রোহিঙ্গা’ শব্দটি ব্যবহার না করার জন্য পোপকে আগেই অনুরোধ জানিয়েছেন। এতে করে মিয়ানমারে ক্যাথলিকরা ঝামেলায় পড়তে পারে বলে জানিয়েছিলেন।

মিয়ানমারের ক্ষমতাসীন দলের নেত্রী অং সান সু চির সঙ্গেও আজ বৈঠক করেছেন পোপ।গতকাল সোমবার সন্ধ্যায় মিয়ানমারের সেনাপ্রধান সিনিয়র জেনারেল মিন আউং হ্লাইয়ের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন পোপ।

পোপ ফ্রান্সিস রবিবার রাতে ইতালির রাজধানী রোম থেকে মিয়ানমারের উদ্দেশ্যে রওনা হন। সোমবার দুপুরে চার দিনের সফরে ইয়াঙ্গুন বিমানবন্দরের পৌঁছান তিনি। বিমানবন্দরের মিয়ানমার কর্তৃপক্ষ তাকে স্বাগত জানান। মিয়ানমারে কোনো পোপের এটাই প্রথম সফর বলে আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমগুলো প্রতিবেদনে বলা হয়েছে।

রোহিঙ্গা শব্দটি ব্যবহার না করলেও পোপ তার বক্তব্যে বলেছেন, ‘মিয়ানমারের ভবিষ্যৎ অবশ্যই শান্তিপূর্ণ হওয়া উচিত। আর এই শান্তি আসবে সমাজের প্রত্যেক ব্যক্তি ও গোষ্ঠীকে মর্যাদা ও অধিকার প্রদান, আইনের প্রতি শ্রদ্ধার জানানোর মাধ্যমে। প্রতিটা ব্যক্তি ও গোষ্ঠীকে গণতন্ত্রের নির্দেশ অনুরসরণ করতে হবে- কেউ বাদ যাবে না। এতে করে সবারই মঙ্গল হবে।’

গত আগস্টের শেষভাবে মিয়ানমারের রাখাইনে সেনা অভিযানের মুখে প্রাণ বাঁচাতে দেশ ছেড়ে বাংলাদেশে আশ্রয় নিয়েছে সোয়া ছয় লাখ রোহিঙ্গা মুসলমান।

এই অভিযানে নির্বিচারে হত্যা, ধর্ষণ, লুটপাট, অগ্নিসংযোগ চলছে বলে অভিযোগ করে আসছে মানবাধিকার সংগঠনগুলো; জাতিসংঘ একে দেখছে রোহিঙ্গাদের জাতিগতভাবে নির্মূলের চেষ্টা হিসেবে।

প্রকাশ: ওয়াইএ


সর্বশেষ

আরও খবর

রোহিঙ্গা গণহত্যা তদন্তের কারণে রয়টার্সের সাংবাদিক আটক

রোহিঙ্গা গণহত্যা তদন্তের কারণে রয়টার্সের সাংবাদিক আটক


খালেদা জিয়ার সঙ্গে স্বজনদের সাক্ষাৎ দুপুরে

খালেদা জিয়ার সঙ্গে স্বজনদের সাক্ষাৎ দুপুরে


রোহিঙ্গাদের জীবন দুর্বিষহ করে রেখেছে মিয়ানমার কর্তৃপক্ষ

রোহিঙ্গাদের জীবন দুর্বিষহ করে রেখেছে মিয়ানমার কর্তৃপক্ষ


মার্কিন হামলায় সিরিয়ায় সরকারী বাহিনীর ১০০ জন নিহত

মার্কিন হামলায় সিরিয়ায় সরকারী বাহিনীর ১০০ জন নিহত


খালেদা জিয়ার ৫ বছরের জেল

খালেদা জিয়ার ৫ বছরের জেল


খালেদার গাড়িবহরের সামনে বিএনপি কর্মী ও পুলিশের সংঘর্ষ, টিয়ার শেল নিক্ষেপ

খালেদার গাড়িবহরের সামনে বিএনপি কর্মী ও পুলিশের সংঘর্ষ, টিয়ার শেল নিক্ষেপ


বরিশালে ‘শেখ হাসিনা সেনানিবাস’ উদ্বোধন

বরিশালে ‘শেখ হাসিনা সেনানিবাস’ উদ্বোধন


কড়া নিরাপত্তায় রাজপথ ফাঁকা, দুর্ভোগে রাজধানীবাসী

কড়া নিরাপত্তায় রাজপথ ফাঁকা, দুর্ভোগে রাজধানীবাসী


ব্রিটেনের প্রাচীন মানুষ কৃষ্ণাঙ্গ ছিল

ব্রিটেনের প্রাচীন মানুষ কৃষ্ণাঙ্গ ছিল


কারাগারে বিচারপতির সঙ্গে অসদাচরণ করা হচ্ছে

কারাগারে বিচারপতির সঙ্গে অসদাচরণ করা হচ্ছে