Thursday, May 17th, 2018
আরও দুই মামলায় খালেদার গ্রেপ্তারি পরোয়ানা কার্যকরের নির্দেশ
May 17th, 2018 at 4:24 pm
আরও দুই মামলায় খালেদার গ্রেপ্তারি পরোয়ানা কার্যকরের নির্দেশ

ঢাকা: যুদ্ধাপরাধীদের নিয়ে কটূক্তি ও মিথ্যা তথ্যের ভিত্তিতে ভুয়া জন্মদিন পালন করার অভিযোগে দায়ের করা মামলায় খালেদা জিয়াকে গ্রেফতার দেখানোর নির্দেশ দিয়েছেন আদালত। একই সঙ্গে মামলা দুটি পরবর্তী শুনানির জন্য আগামী ৫ জুলাই দিন ধার্য করেন।

আজ বৃহস্পতিবার পুরান ঢাকার বকশীবাজার আলিয়া মাদ্রাসা মাঠে ঢাকা মহানগর হাকিম খুরশীদ আলম ও ঢাকা মহানগর হাকিম আহসান হাবীব এ আদেশ দেন।ঢাকা মহানগর পাবলিক প্রসিকিউটর আবদুল্লাহ আবু সাংবাদিকদের বলেন, ‘দুই মামলায় খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করা আছে। সেগুলো এখনো কার্যকর করা হয়নি। তাই আমরা প্রসিকিউশন পক্ষ থেকে আবেদন করি।’

অন্যদিকে, খালেদা জিয়ার আইনজীবী সানাউল্লাহ মিয়া বলেন, ‘গত ২৫ এপ্রিল দুই মামলায় জামিনের আবেদন করা হয়। সেই আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে বিচারক আজ জামিনের শুনানির দিন নির্ধারণ করেন। সে জন্যই আজ জামিনের শুনানি করি। তখন বিচারক খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে জারি করা গ্রেপ্তারি পরোয়ানা কার্যকরের নির্দেশ দেন।’

এর আগে গত ২৫ এপ্রিল দুই মামলায় মাসুদ আহমেদ তালুকদার কারাগারে থাকা খালেদা জিয়াকে আদালতে হাজির করে প্রোডাকশন ওয়ারেন্ট ইস্যুসহ জামিন শুনানির আবেদন করলে বিচারক প্রোডাকশন ওয়ারেন্ট ইস্যুসহ জামিন শুনানির আদেশের জন্য আজকের দিন ধার্য করেন।

২০১৬ সালের ৩০ আগস্ট ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়নের সাবেক যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক গাজী জহিরুল ইসলাম ঢাকা মহানগর হাকিম আদালতে খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে ১৫ আগস্ট ভুয়া জম্মদিন পালন করার অভিযোগে মামলাটি দায়ের করেন। আর ২০১৬ সালের ৩ নভেম্বর ঢাকা মহানগর হাকিম আদালতে খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে মুক্তিযোদ্ধাদের নিয়ে কটূক্তি করার অভিযোগে জননেত্রী পরিষদের সভাপতি এ বি সিদ্দিকী বাদী হয়ে মামলা দায়ের করেন।

মামলার আরজিতে বলা হয়, ২০০১ সালে জাতীয় সংসদ নির্বাচনে স্বাধীনতাবিরোধী যুদ্ধাপরাধী জামায়াতের সঙ্গে জোট করে নির্বাচিত হয়ে সরকারের দায়িত্ব গ্রহণ করেন বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া। তিনি রাজাকার-আলবদর নেতাকর্মীদের মন্ত্রী-এমপি বানিয়ে তাদের বাড়ি ও গাড়িতে স্বাধীন বাংলাদেশের মানচিত্র ও জাতীয় পতাকা তুলে দেন।

গ্রন্থনা ও সম্পাদনা: এম কে রায়হান


সর্বশেষ

আরও খবর

বগুড়ায় বাস-সিএনজি সংঘর্ষে নিহত ৫

বগুড়ায় বাস-সিএনজি সংঘর্ষে নিহত ৫


উপাচার্যের পদত্যাগের দাবিতে শাবি শিক্ষার্থীদের আমরণ অনশন

উপাচার্যের পদত্যাগের দাবিতে শাবি শিক্ষার্থীদের আমরণ অনশন


দেশে আরও ৯৫০০ জনের করোনা শনাক্ত, হার ২৫ ছাড়াল

দেশে আরও ৯৫০০ জনের করোনা শনাক্ত, হার ২৫ ছাড়াল


টানা তৃতীয়বারের মতো নির্বাচিত হলেন আইভী

টানা তৃতীয়বারের মতো নির্বাচিত হলেন আইভী


অর্ধেক আসন ফাঁকা রেখে বাস চলার সিদ্ধান্ত পরিবর্তন

অর্ধেক আসন ফাঁকা রেখে বাস চলার সিদ্ধান্ত পরিবর্তন


আগুনে পুড়ল রোহিঙ্গা ক্যাম্পের ১২০০ ঘর

আগুনে পুড়ল রোহিঙ্গা ক্যাম্পের ১২০০ ঘর


এবারের বিজয় দিবসে দেশবাসীকে শপথ পড়াবেন প্রধানমন্ত্রী

এবারের বিজয় দিবসে দেশবাসীকে শপথ পড়াবেন প্রধানমন্ত্রী


কমলো এলপিজির দাম

কমলো এলপিজির দাম


উন্নয়নশীল দেশ নিয়ে খুশি না হয়ে, উন্নত দেশ গড়ার লক্ষ্যে কাজ করার আহ্বান রাষ্ট্রপতির

উন্নয়নশীল দেশ নিয়ে খুশি না হয়ে, উন্নত দেশ গড়ার লক্ষ্যে কাজ করার আহ্বান রাষ্ট্রপতির


জাতীয় অধ্যাপক রফিকুল ইসলাম মারা গেছেন

জাতীয় অধ্যাপক রফিকুল ইসলাম মারা গেছেন