Thursday, November 10th, 2016
আ.লীগ নির্ভর বিএনপি
November 10th, 2016 at 8:07 am
আ.লীগ নির্ভর বিএনপি

নিজস্ব প্রতিবেদক : বাংলাদেশের স্বাধীন রাজনীতিতে গণতন্ত্রকে ফিরিয়ে আনতে আওয়ামী লীগ বা অন্য দলের মত বিএনপিরও অবদান কম ছিল না। দেশের রাজনীতিতে দীর্ঘ দিন ক্ষমতায় ছিল দলটি। তবে বিএনপি ক্ষমতা হারিয়েছে প্রায় আট বছর। এই আট বছরে বিএনপি হারিয়ে ফেলেছে তার জৌলস। সংগ্রাম আন্দোলনে রাজপথে বিএনপির কোনো ভূমিকা এখন চোখে পড়া দুষ্কর।

তবে এ নিয়ে বিএনপি বরাবরই অভিযোগ করেছে আওয়ামী লীগ দেশের গণতন্ত্রতে হত্যা করে এক দলীয় শাসন ব্যবস্থা কায়েম করার জন্য বিরোধী দলগুলোকে রাজপথে সংগ্রাম করতে দেয় না। রাজপথে সংগ্রাম বা আন্দোলন করলেই পুলিশ এবং আওয়ামী সন্ত্রাস দ্বারা হামলা চালানো হয়।

অন্যদিকে আওয়ামী লীগের নেতারা মনে করেন দেশে বিএনপির কোনো অস্তিত এখন আর তেমনটি নেই। বিএনপি এখন আর আন্দোলন সংগ্রাম করতে পারে না। বিএনপি ঘরের মধ্যে ব্রিফিং নির্ভর হয়ে পড়েছে।

মাঝে মাঝে দেশে কোনো বিদেশি আসলে বিএনপি নালিশ করে বলে আওয়ামী লীগের নবনির্বাচিত সাধারণ সম্পাদক ও সেতু মন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বিএনপির নতুন নাম রেখেছিলেন বাংলাদেশ নালিশ পার্টি (বিএনপি)।

ওবায়দুল কাদের আরও বলেছিলেন, বিএনপি যতই মধ্যবর্তী নির্বাচন দাবি করুক না কেন আওয়ামী লীগ মধ্যবর্তী নির্বাচন দিবে না। মধ্যবর্তী নির্বাচন দেয়ার মতো কোনো পরিবেশ সৃষ্টি করতে পারেনি বিএনপি। এমনকি বিদেশীদের উপর থেকেও তেমন কোনো চাপ আমরা পায়নি তবে কেন মধ্যবর্তী নির্বাচন দিব।

বিএনপি ক্ষমতা ছাড়ার পর থেকে এখন পর্যন্ত এমন কোনো বড় আন্দোলন করতে পারেনি। ২০১৪ সালের নির্বাচনে আওয়ামী লীগ আবারও ক্ষমতায় আসলে বিএনপি সরকারকে অবৈধ সরকার বলে আখ্যা দেয় এবং এই সরকারকে মানে না বলেও জানান তারা। কিন্তু এই সরকারের অধিনেই আড়াই বছর পার করে এখন ২০১৯ সালের নির্বাচনের কথা ভাবছে বিএনপি।

বিএনপির সংগ্রাম আন্দোলন সম্পর্কে বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, সরকারের বিরুদ্ধে বিরোধী দল আন্দোলনে নামলেই গণ গ্রেফতার শুরু করে। পুলিশ দিয়ে হামলা চালানো হয়। এমনি কি পুলিশ কে গুলি করারও অনুমতি দেওয়া হয়। এমন অবস্থায় কিভাবে আন্দোলন করবে বিরোধী দলগুলো।

সম্প্রতি বিপ্লব ও সংহতি দিবস উপলক্ষে বিএনপি সাত নভেম্বর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে সমাবেশ করতে চাইলেও অনুমতি দেয়নি ডিএমপি। এর পর ৮ নভেম্বর নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে সড়কের উপর সমাবেশ করতে চাইলে দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশন এবং ডিএমপি থেকে নিষেধ করা হয়।

অনুমতির অভাবে বিএনপি নিজের গণতান্ত্রিক অধিকার সমাবেশ করতে পারছে না। এর জন্য বিএনপি কোনো প্রতিবাদ না করেই নেতাকর্মীরা সাংবাদিক সম্মেলন এবং সমাবেশের জন্য একের পর এক তারিখ পরিবর্তন করে ডিএমপির কাছে অনুমতি চাইছে। প্রত্যেক বারই বিএনপি অনুমতি পাবার আশায় বসে থাকে।

বিপ্লব ও সংহতি দিবস উপলক্ষে আবারও ১৩ নভেম্বর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে সমাবেশের জন্য ডিএমপির কাছে অনুমতি চেয়েছে। আবারও অনুমতির আশায় অপেক্ষা করছে।

তবে বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী আহমেদ বলেছেন, ১৩ নভেম্বরের সমাবেশের বিএনপি ইতোমধ্যেই সমস্ত কার্যক্রম শেষ করেছে।

তবে এবারের সমাবেশের অনুমতি না পেলে পরবর্তী কর্মসূচি ঘোষণা করবে বলে জানিয়েছে দলটির একাধিক নেতা।

গ্রন্থনা: শেখ রিয়াল, সম্পাদনা: জাবেদ


সর্বশেষ

আরও খবর

পলিথিন দিয়ে জ্বালানী তেল তৈরী করছে বগুড়ার ৫ যুবক

পলিথিন দিয়ে জ্বালানী তেল তৈরী করছে বগুড়ার ৫ যুবক


চলে গেলেন পল্লীবন্ধু হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ

চলে গেলেন পল্লীবন্ধু হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ


ফুট ওভার ব্রীজ ব্যবহারে অনীহা

ফুট ওভার ব্রীজ ব্যবহারে অনীহা


বিশ্ব মুক্ত গণমাধ্যম দিবস আজ

বিশ্ব মুক্ত গণমাধ্যম দিবস আজ


সিটি সেন্টারে গাড়ি পার্কিং: অনিয়ম যেন নিয়ম

সিটি সেন্টারে গাড়ি পার্কিং: অনিয়ম যেন নিয়ম


‘বাড়ি কই’ অ্যাপে সফল আল-আমিন

‘বাড়ি কই’ অ্যাপে সফল আল-আমিন


এলইডি বিলবোর্ডে স্বাস্থ্য ঝুঁকি, রয়েছে দূর্ঘটনার আশঙ্কা

এলইডি বিলবোর্ডে স্বাস্থ্য ঝুঁকি, রয়েছে দূর্ঘটনার আশঙ্কা


ঢাকা-চট্টগ্রামসহ ৮৭ রুটে পরিবহন ধর্মঘটের ডাক

ঢাকা-চট্টগ্রামসহ ৮৭ রুটে পরিবহন ধর্মঘটের ডাক


ফেনীর অগ্নিদগ্ধ নুসরাত আর নেই

ফেনীর অগ্নিদগ্ধ নুসরাত আর নেই


সুফল মিলছে না বিআরটিএ’র ডিজিটাল নাম্বার প্লেটের, ক্ষুব্ধ যানবাহন মালিকরা

সুফল মিলছে না বিআরটিএ’র ডিজিটাল নাম্বার প্লেটের, ক্ষুব্ধ যানবাহন মালিকরা