Thursday, January 9th, 2020
ইজতেমা ঘিরে তীব্র যানজট, ত্রিমাত্রিক নিরাপত্তার কথা জানিয়েছে র‌্যাব
January 9th, 2020 at 1:49 pm
ইজতেমা ময়দানকে দু’টি সেক্টরে ভাগ করে কার-মোটারসাইকেল-বোট পেট্রোলিংয়ের পাশাপাশি আকাশ থেকে হেলিকপ্টার এবং ড্রোনের মাধ্যমে সার্বক্ষণিক নজরদারি থাকবে
ইজতেমা ঘিরে তীব্র যানজট, ত্রিমাত্রিক নিরাপত্তার কথা জানিয়েছে র‌্যাব

বিশেষ প্রতিনিধি, ঢাকাঃ

শুক্রবার (১০ জানুয়ারি) থেকে টঙ্গীর তুরাগ নদীর তীরে শুরু হচ্ছে তাবলিগ জামাতের তিন দিনব্যাপী বিশ্ব ইজতেমার প্রথম পর্ব। এতে অংশ নিতে দু’একদিন  আগে থেকেই ইজতেমা ময়দানে আসতে শুরু করেছেন মুসল্লিরা। কনকনে শীত উপেক্ষা করে এরই মধ্যে পৌঁছে গেছেন কয়েক হাজার ধর্মপ্রাণ মানুষ।

ইজতেমা আয়োজকরা জানান, আগামী ১০ জানুয়ারি অনুষ্ঠিতব্য বিশ্ব ইজতেমার প্রথম পর্বে মাওলানা জুবায়েরপন্থি মুসল্লিরা অংশ নেবেন; ১২ জানুয়ারি আখেরি মোনাজাতের মধ্য দিয়ে শেষ হবে এই পর্ব। এরপর আবার চারদিন বিরতি দিয়ে, দ্বিতীয় পর্ব ১৭ জানুয়ারি থেকে শুরু হয়ে শেষ হবে ১৯ জানুয়ারি, যাতে মাওলানা সা’দপন্থিরা অংশ নেবেন।

এদিকে, ইজতেমা ঘিরে রাজধানীর বিমানবন্দর সড়ক থেকে শুরু করে পুরো ঢাকা-ময়মনসিংহ রোড জুড়ে বৃহস্পতিবার (৯ জানুয়ারি) সকাল থেকেই তীব্র যানজটের সৃষ্টি হয়েছে। বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে ক্রমেই বাড়ছে যানবাহনের চাপ।

বৃহস্পতিবার সকাল থেকেই বনানী থেকে বিমানবন্দর-উত্তরা সড়কে যানবাহনের দীর্ঘ জট লক্ষ্য করা গেছে। ঢাকা মহানগর পুলিশের (ডিএমপি) ট্রাফিক বিভাগ বলছে, ইজতেমা ঘিরে সারা দেশ থেকে মানুষজন আসতে শুরু করেছে। এ বাড়তি যানবাহনের চাপ পড়েছে রাজধানীতে।

ভুক্তভোগীদের কয়েকজন জানান, সকাল থেকে বনানী-বিমানবন্দর সড়কে তীব্র যানজট শুরু হয়েছে। খুবই ধীর গতিতে গাড়ি চলাচল করছে। এর ফলে বনানী ফ্লাইওভার হয়ে মিরপুর সড়কেও যানজট ছড়িয়ে পড়েছে।

অন্যদিকে, ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কেও তীব্র যানজটের সৃষ্টি হয়েছে। এতে অফিসগামী কর্মজীবী মানুষ ও স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থীরা চরম বিপাকে পড়ে। ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কে যানজটের কারণে ঢাকা-বাইপাস ও ঢাকা-টাঙ্গাইল সড়কে যানবাহন চলছে ধীর গতিতে। পুলিশ যানজট নিরসনে কাজ করছে। ওই সড়কে ঢাকাগামী লেনে যানজট বেশি বলে ভুক্তভোগীরা জানিয়েছেন।

সকালে বৃষ্টি হওয়ায় ও মানুষ পারাপারের কারণে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কে যানবাহন চলে ধীর গতিতে। এ কারণেও যানজট বেড়ে গেছে। সকালে চান্দনা চৌরাস্তা থেকে টঙ্গী পর্যন্ত সড়কের উভয় দিকে যানজটের সৃষ্টি হয়। বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে এ যানজট আরও বেড়ে যায়। টঙ্গী ব্রিজের পর থেকে স্টেশন রোড, চেরাগআলী, গাজীপুরা, বোর্ড বাজার, ছয়দানা, বাসন সড়ক, ভোগড়া বাইপাস ও চান্দনা চৌরাস্তা মোড় পর্যন্ত যানজট রয়েছে। 

ট্রাফিক উত্তর বিভাগের উপ-কমিশনার (ডিসি) সাইফুল হকের কাছে যানজট মোকাবেলায় কি পদক্ষেপ নেয়া হচ্ছে –তা জানতে চাওয়া হলে তিনি বলেন, “ইজতেমা উপলক্ষে যানবাহনের বাড়তি চাপ রয়েছে। এর ফলে উত্তরা-বিমানবন্দর সড়কে যান চলাচলে ধীরগতি রয়েছে। তবে এ অবস্থা নিয়ন্ত্রণে ট্রাফিক পুলিশের বাড়তি সদস্য দায়িত্ব পালন করছেন। তারা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে চেষ্টা করে যাচ্ছেন।”

এদিকে, এবারের বিশ্ব ইজতেমার নিরাপত্তায় ত্রিমাত্রিক নিরাপত্তা ব্যবস্থা হাতে নেওয়ার কথা জানিয়েছে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব)। ইজতেমা ময়দানকে দু’টি সেক্টরে ভাগ করে কার-মোটারসাইকেল-বোট পেট্রোলিংয়ের পাশাপাশি আকাশ থেকে হেলিকপ্টার এবং ড্রোনের মাধ্যমে সার্বক্ষণিক নজরদারি থাকবে। ইজতেমার শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত পোশাকধারী র‌্যাব সদস্যের পাশাপাশি পর্যাপ্ত সংখ্যক সাদা পোশাকের সদস্যরা নিয়োজিত থাকবে। দু’পক্ষের দ্বন্দ্বের জেরে যে কোনো ধরনের অপ্রীতিকর পরিস্থিতি এড়াতেও সতর্ক থাকবে র‌্যাব সদস্যরা।

বৃহস্পতিবার (৯ জানুয়ারি) দুপুরে রাজধানীর কারওয়ান বাজারে র‌্যাব মিডিয়া সেন্টারে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য জানানো হয়। সংবাদ সম্মেলনে র‌্যাবের মহাপরিচালক (ডিজি) বেনজীর আহমেদ বলেন, ইজতেমায় ২৭টি দেশের বিদেশি নাগরিকসহ বিপুল সংখ্যক মুসল্লির জমায়েত হবে। আমরা ইতোমধ্যে গোয়েন্দা নজরদারির কাজ শুরু করেছি। দুই ধাপে ইজতেমার ময়দানে তিনদিন করে আমাদের ডেপ্লয়মেন্ট থাকবে। গাড়ি-বাইক পেট্রোলিংয়ের পাশাপাশি তুরাগ নদীতে স্পিডবোটের মাধ্যমে বোট পেট্রোলিংয়ের ব্যবস্থা থাকবে। এছাড়া, আকাশপথে দু’টি হেলিকপ্টারের পাশাপাশি ড্রোনের মাধ্যমে সার্বক্ষণিক নজরদারি রাখা হবে।

ময়দানের অভ্যন্তরে পোশাকধারী র‌্যাব সদস্যের পাশাপাশি পর্যাপ্ত সংখ্যক সাদা পোশাকের সদস্য মোতায়েন থাকবে জানিয়ে তিনি বলেন, র‌্যাবের বোম্ব ডিসপোজাল ইউনিট, সুইপিং টিম ও ডগ স্কোয়াড প্রস্তুত থাকবে। যে কোনো আপদকালীন পরিস্থিতি মোকাবিলায় আমাদের ফোর্স সার্বক্ষণিক প্রস্তুত থাকবে। অন্য গোয়েন্দা সংস্থার সঙ্গে সমন্বয় করে সার্বক্ষণিক তথ্য যাচাই করা হচ্ছে। কোথাও ঝুঁকি দেখা দিলে সঙ্গে সঙ্গে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে। এদিকে, ইজতেমার দু’পক্ষের সঙ্গেই আমাদের যোগাযোগ রয়েছে। সবকিছু স্বাভাবিক রেখে ইজতেমা অনুষ্ঠিত হতে আমরা সতর্ক রয়েছি।  এছাড়া, বর্তমানে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে নানা ধরনের গুজব ছড়ানোর মাধ্যমে পরিণত হয়েছে। এজন্য সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলো মনিটরিং করার কথা উল্লেখ করেন তিনি।


সর্বশেষ

আরও খবর

সাম্প্রদায়িক সন্ত্রাস: প্রধান বিচারপতির উদ্বেগ, আশ্বাস আইনমন্ত্রীর

সাম্প্রদায়িক সন্ত্রাস: প্রধান বিচারপতির উদ্বেগ, আশ্বাস আইনমন্ত্রীর


বিএফইউজের নতুন সভাপতি ফারুক, মহাসচিব দীপ

বিএফইউজের নতুন সভাপতি ফারুক, মহাসচিব দীপ


কালীপূজায় হবে না দীপাবলি!

কালীপূজায় হবে না দীপাবলি!


রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন ঠেকাতেই মুহিবুল্লাহকে হত্যা: পুলিশ

রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন ঠেকাতেই মুহিবুল্লাহকে হত্যা: পুলিশ


সহিংসতায় নিহত ৬ রোহিঙ্গা, ইউএন বলছে ৭

সহিংসতায় নিহত ৬ রোহিঙ্গা, ইউএন বলছে ৭


ইকবালকে জেরা করছে পুলিশ, সারাদেশে গ্রেফতার ৫৮৪

ইকবালকে জেরা করছে পুলিশ, সারাদেশে গ্রেফতার ৫৮৪


সাম্প্রদায়িক সন্ত্রাস, সংবিধান এবং আশাজাগানিয়া মুরাদ হাসান

সাম্প্রদায়িক সন্ত্রাস, সংবিধান এবং আশাজাগানিয়া মুরাদ হাসান


কুমিল্লার মণ্ডপে কোরআন রাখা ব্যক্তি শনাক্ত

কুমিল্লার মণ্ডপে কোরআন রাখা ব্যক্তি শনাক্ত


কুমিল্লার মূল অভিযুক্ত পালিয়ে বেড়াচ্ছে, দ্রুতই গ্রেপ্তার: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

কুমিল্লার মূল অভিযুক্ত পালিয়ে বেড়াচ্ছে, দ্রুতই গ্রেপ্তার: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী


হামলায় জড়িতদের বিরুদ্ধে দ্রুত ব্যবস্থা নিতে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশ

হামলায় জড়িতদের বিরুদ্ধে দ্রুত ব্যবস্থা নিতে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশ