Saturday, October 20th, 2018
এরশাদের ১৮ দফা ইশতেহার
October 20th, 2018 at 10:48 pm
এরশাদের ১৮ দফা ইশতেহার

ঢাকা: জাতীয় পার্টি নেতৃত্বাধীন সম্মিলিত জাতীয় জোটের মহাসমাবেশ থেকে ১৮ দফা ইশতেহার ঘোষণা করেছেন দলটির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ।

‘সুশাসনের লক্ষ্যে ও জাতির মুক্তির পথে’ ঘোষিত এই ১৮ দফার মধ্যে প্রাদেশিক সরকার গঠন করে প্রশাসনের বিকেন্দ্রীকরণ, নির্বাচন পদ্ধতি ও নির্বাচন কমিশনের সংস্কার ও পুনর্গঠন এবং সন্ত্রাস দমনে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়ার প্রতিশ্রুতি রয়েছে এরশাদের। এছাড়া পূর্ণাঙ্গ উপজেলা প্রশাসন ব্যবস্থা প্রণয়ন, বিচার বিভাগের পূর্ণ স্বাধীনতা, শিক্ষা পদ্ধতির সংস্কার, শান্তি ও নিরাপত্তার সহাবস্থানে রাজনৈতিক পরিবেশ তৈরি করা ও শিল্প খাতের অগ্রগতি প্রতিষ্ঠার কথা বলা হয়েছে এরশাদের ইশতেহারে।

আওয়ামী লীগের সঙ্গে জোট বেধে নবম জাতীয় সংসদে নির্বাচনে অংশ নেয় জাতীয় পার্টি। পরে ২০১৪ সালে বিএনপি নির্বাচন বর্জন করলে এরশাদ নেতৃত্বাধীন জাতীয় পার্টি সংসদে প্রধান বিরোধীদলের তকমা পায়। দলটির সিনিয়র কো-চেয়ারম্যান সংসদে প্রধান বিরোধীদলীয় নেতা হন। এরশাদ হন প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ দূত।

নেতাকর্মীদের উদ্দেশে তিনি বলেন, আমরা বলেছি, জোটগতভাবে ৩০০ আসনে আমরা নির্বাচন করব। আমরা জাতীয় পার্টি সব সময় নির্বাচন করেছি। আজও নির্বাচনের জন্য প্রস্তুত। তবে দেশের স্বার্থে নতুন মেরুকরণ হতে পারে।

নির্বাচন ঘিরে জাতীয় পার্টির গণসংযোগ এবং প্রার্থী বাছাইয়ের কাজ চলার কথা জানিয়ে এরশাদ বলেন, জোটের শরিকরা তাদের প্রার্থীর তালিকা দিয়েছেন। তবে আমি বলব, এখানে দলের চেয়ে প্রার্থীর যোগ্যতাই বেশি প্রাধান্য পাবে।

তিনি বলেন, ক্ষমতা ছেড়ে দেওয়ার পর এত নির্যাতন, নিপীড়ন, অত্যাচার সহ্য করেছি, পৃথিবীর ইতিহাসেব আর কোনো রাজনীতিবিদ সহ্য করেনি। ৯০ সালে ক্ষমতা ছেড়ে দেওয়ার পর আমি আনন্দে ঘুমাতে পারি নাই। শঙ্কা ছিল, কখন জেলে যাব।

সকাল সাড়ে ১০টায় শুরু হওয়া এই মহাসমাবেশ মঞ্চে এরশাদের পাশেই রয়েছেন পার্টির সিনিয়র কো চেয়ারম্যান সংসদের বিরোধী দলীয় নেতা রওশন এরশাদ এবং কো চেয়ারম্যান জি এম কাদের। এছাড়া জাতীয় পার্টির মহাসচিব এ বি এম রুহুল আমিন হাওলাদারসহ সভাপতিমণ্ডলীর সদস্যরা এবং জোটের শরিক বাংলাদেশ খেলাফত মজলিস, বাংলাদেশ ইসলামিক ফ্রন্ট, জাতীয় ইসলামী মহাজোটের নেতারাও সমাবেশে অংশ নেন।

নিজস্ব প্রতিবেদক, সম্পাদনা: এম কে রায়হান


সর্বশেষ

আরও খবর

শ্রীলঙ্কা হামলায় সংশোধিত নিহতের সংখ্যা ২৫৩

শ্রীলঙ্কা হামলায় সংশোধিত নিহতের সংখ্যা ২৫৩


মাদক ব্যবসায়ী ও পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত ১

মাদক ব্যবসায়ী ও পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত ১


সরকারি চাকরিতে প্রবেশের বয়স ৩০ই থাকছে

সরকারি চাকরিতে প্রবেশের বয়স ৩০ই থাকছে


নুসরাত হত্যা মামলার আরেক আসামি শাকিল গ্রেপ্তার

নুসরাত হত্যা মামলার আরেক আসামি শাকিল গ্রেপ্তার


রাত ১২টা থেকে বন্ধ হচ্ছে ২০ লাখ সিম

রাত ১২টা থেকে বন্ধ হচ্ছে ২০ লাখ সিম


গায়ে আগুন দিয়ে আত্মহত্যা করলেন রানা প্লাজার ‘হিরো’ হিমু

গায়ে আগুন দিয়ে আত্মহত্যা করলেন রানা প্লাজার ‘হিরো’ হিমু


বনলতা এক্সপ্রেসের উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী

বনলতা এক্সপ্রেসের উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী


শপথ নিলেন বিএনপির জাহিদুর রহমান

শপথ নিলেন বিএনপির জাহিদুর রহমান


ঢাকা-চট্টগ্রামসহ ৮৭ রুটে চলছে পরিবহন ধর্মঘট

ঢাকা-চট্টগ্রামসহ ৮৭ রুটে চলছে পরিবহন ধর্মঘট


বিরতিহীন ‘বনলতা এক্সপ্রস’

বিরতিহীন ‘বনলতা এক্সপ্রস’