Saturday, September 10th, 2016
কওমি সনদের স্বীকৃতিতে বাঁধা কোথায়
September 10th, 2016 at 10:55 pm
কওমি সনদের স্বীকৃতিতে বাঁধা কোথায়

দেলোয়ার মহিন, ঢাকা: মাদরাসা শিক্ষার দু’টি ধারা- একটি সরকারি নিয়ন্ত্রণে আলিয়া, অন্যটি সনাতন কওমি। যেখানে সরকারি কোন পাঠ্যক্রম পড়ানো হয় না। তাই শিক্ষাজীবন শেষে তাদের সনদের কোনো মূল্যই নেই। কেননা সনদের কোনো স্বীকৃতি নেই। ফলে পড়াশোনা শেষে চাকরি আবেদনও করতে পারে না কেউ।

তাই এই শিক্ষার স্বীকৃতির বিষয়ে সরকার চেষ্টা করেছে। কিন্তু এই মাদরাসার নিয়ন্ত্রকরা সরকারের ন্যূনতম নিয়ন্ত্রণ বা অর্থায়ন নিতে রাজি হয়নি। আবার আওয়ামী লীগ সরকারের কাছ থেকে সনদের স্বীকৃতি নেয়ার বিষয়ে বিএনপি-জামায়াতের সঙ্গে জোটবদ্ধ কওমি মাদরাসা কেন্দ্রিক রাজনৈতিক নেতাদের মধ্যে প্রবল আপত্তির কারণেও বিষয়টি ঝুলে আছে কয়েক বছর ধরে।

কওমি সনদের স্বীকৃতির বিষয়ে সবচেয়ে বড় বাধা হিসেবে ভূমিকা পালন করছে বেফাকুল মাদারিসিল আরাবিয়া বেফাক এমটাই দায়ী করেন কওমি মাদ্রাসা শিক্ষা কমিশনের সদস্য সচিব মাওলানা রুহুল আমীন।

তবে যত বাঁধাই থাকুক না কেন এইবার অবশেষে আলোর মুখ দেখতে শুরু করেছে কওমি মাদ্রাসার সনদের সরকারি স্বীকৃতি প্রদান কার্যক্রম। এ বছরের মধ্যেই এই কার্যক্রম একটি ফলপ্রসূ লক্ষ্যে পৌঁছুবে-এমনটাই আশা করছেন আলেমরা।

শনিবার নিউজনেক্সটবিডি ডডকম’কে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে মাওলানা রুহুল আমীন এসব কথা বলেন। তিনি বলেন, ‘কমিশন পুরো সিলেবাস প্রণয়ন ও সুপারিশের ভিত্তিতে মন্ত্রিসভায় যেদিন উঠার কথা, এর আগের দিন শফী সাহেব লাখ লাখ লাশ পড়ার হুমকি দিয়েছিলেন। এ কারণেই থমকে গেছে সনদ কার্যক্রম। তবে এবার আর ওই রকম হুমকি আসবে না।’

রুহুল আমীন জানান, এই বোর্ডের মহাসচিব আবদুল জব্বার সোচ্চার সাবেক শিক্ষা কমিশনের বিরুদ্ধে। এরই মধ্যে তিনি এই প্রতিবেদককে পরিষ্কারভাবেই বলেছেন, মাওলানা ফরিদ উদ্দিন ও রুহুল আমিনের সঙ্গে বেশি আলেম নেই। স্বীকৃতি দিলে তার বেফাকের অধীনেই দিতে হবে।

পাশাপাশি সরকারি স্বীকৃতি দ্রুত বাস্তবায়নের উদ্দেশ্যে ইতোমধ্যে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল কয়েক দফায় আলেমদের সঙ্গে কথা বলেছেন বলে জানান তিনি।

এ ব্যাপারে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল নিউজনেক্সটবিডি ডটকম’কে বলেন, ‘বিভক্ত আলেমদের ঐক্যমতে আনতে তার উদ্যোগেই এই কার্যক্রম আরো জোরালো হয়েছে। উনাদের নিয়ে আমি প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গেও দেখা করেছি। প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, মেজরিটি এক হয়ে আসলেই স্বীকৃতি দেয়া হবে।

এবার তারা মেজরিটি এক হবেন এবং এ বছরের মধ্যেই স্বীকৃতির বিষয়টি চূড়ান্ত হবে বলে মনে করেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।

জানা যায়, ১১ আগস্ট বাংলাদেশ জমিয়াতুল উলামা আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ঘোষণার পরই স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে আলেমদের সঙ্গে কথা বলতে দায়িত্ব দেয়া হয়। ফলশ্রুতিতে তিনি বেফাকসহ কয়েকজন আলেমের সঙ্গে বৈঠক করেন। সর্বশেষ গত বৃহস্পতিবার মাওলানা রুহুল আমীনের সঙ্গে তার সাক্ষাৎ হয়। ওই সাক্ষাতে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে তার স্বীকৃতি নিয়ে আলোচনা হয়। এর আগে গত মাসের শেষ দিকে মাওলানা ফরিদ উদ্দিন মাসঊদ এ বিষয়ে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করে কথা বলেছেন।

মাওলানা মাসঊদ নিউজনেক্সটবিডি ডটকম’কে বলেন, ‘স্বীকৃতির জন্যই তো কাজ করছি। গত কয়েক বছর ধরে শিক্ষক-ছাত্ররা চাইছেন। এখন এটি নিয়ে জনমত গঠন করার কাজ চলছে। সবাইকে এক হতে হবে।’

তবে বেফাক মনে করছে, যে সরকার শিক্ষা আইন করছে, সে সরকার কি কওমি মাদ্রাসার সনদের স্বীকৃতি দিবে?

বেফাকের বাধার বিষয়ে রুহুল আমীন বলেন, ‘যারা ইসলামী দল করেন, তারা ছাত্রদের ওপর প্রভাব হারাবেন, এমন শঙ্কা থেকেই স্বীকৃতির বিরোধিতা করতে পারেন।’

জামিয়া রাহমানিয়া মাদ্রাসার প্রিন্সিপাল ও বেফাকের যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা মাহফুযূল হক নিউজনেক্সটবিডি ডটকম’কে বলেন, ‘স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে আমাদের বৈঠকে আলোচ্য বিষয় ছিলো, সারা দেশে আলেম ও মাদ্রাসাগুলো আওয়ামী লীগ ও প্রশাসনের হয়রানীর শিকার সে বিষয়ে। আবার সরকার শিক্ষা আইন পাশ করেছে। তো পরিকল্পনা বুঝতে পারছি, বস্তুত সরকার নিয়ন্ত্রণ প্রতিষ্ঠা করতে চায়। স্বীকৃতির মূল লক্ষ্য নিয়ন্ত্রণ করা কি-না, এ নিয়ে সন্দেহ আছে আমাদের।’

শিক্ষা কমিশনের বিষয়ে মাওলানা মাহফুযূল হক বলেন, ‘২০১২ সালে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী, শিক্ষামন্ত্রী, ধর্মমন্ত্রী ও ইসলামিক ফাউন্ডেশনের ডিজিকে নিয়ে মাওলানা ফরিদ উদ্দিন ও মাওলানা রুহুল আমীনকে ডেকে স্বীকৃতির কথা বললেন। তো প্রকৃত প্রতিনিধিত্বশীল আলেমদের রেখে অস্বচ্ছ প্রক্রিয়ায় হওয়ায় আমাদের সন্দেহ আছে।’

সম্পাদনা: সজিব ঘোষ


সর্বশেষ

আরও খবর

৪২ ও ৪৩তম বিসিএসের বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ

৪২ ও ৪৩তম বিসিএসের বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ


করোনায় আরও ৩০ জনের মৃত্যু, ৭৮ দিনের মধ্যে সর্বোচ্চ শনাক্ত

করোনায় আরও ৩০ জনের মৃত্যু, ৭৮ দিনের মধ্যে সর্বোচ্চ শনাক্ত


ঢাবি ছাত্রী ধর্ষণ মামলায় মজনুর যাবজ্জীবন কারাদণ্ড

ঢাবি ছাত্রী ধর্ষণ মামলায় মজনুর যাবজ্জীবন কারাদণ্ড


মানুষের জন্য কিছু করতে পারাই আমাদের রাজনীতির লক্ষ্য: প্রধানমন্ত্রী

মানুষের জন্য কিছু করতে পারাই আমাদের রাজনীতির লক্ষ্য: প্রধানমন্ত্রী


আনিসুল হত্যা: মানসিক স্বাস্থ্য ইন্সটিটিউটের রেজিস্ট্রার গ্রেপ্তার

আনিসুল হত্যা: মানসিক স্বাস্থ্য ইন্সটিটিউটের রেজিস্ট্রার গ্রেপ্তার


পাওয়ার গ্রিডের আগুনে বিদ্যুৎ-বিচ্ছিন্ন পুরো সিলেট, ব্যাপক ক্ষতি

পাওয়ার গ্রিডের আগুনে বিদ্যুৎ-বিচ্ছিন্ন পুরো সিলেট, ব্যাপক ক্ষতি


দুইদিনের বিক্ষোভের ডাক বিএনপির

দুইদিনের বিক্ষোভের ডাক বিএনপির


বাস পোড়ানোর মামলায় বিএনপির ২৮ নেতাকর্মী রিমান্ডে

বাস পোড়ানোর মামলায় বিএনপির ২৮ নেতাকর্মী রিমান্ডে


অবশেষে পাঁচ বছর পর নেপালকে হারালো বাংলাদেশ

অবশেষে পাঁচ বছর পর নেপালকে হারালো বাংলাদেশ


মাইন্ড এইড হাসপাতালে তালা, মালিক গ্রেপ্তার

মাইন্ড এইড হাসপাতালে তালা, মালিক গ্রেপ্তার