Saturday, June 18th, 2016
কাপ্তাই হ্রদে সঠিক ব্যবস্থাপনা চায় স্থানীয়রা
June 18th, 2016 at 4:10 pm
কাপ্তাই হ্রদে সঠিক ব্যবস্থাপনা চায় স্থানীয়রা

রাঙ্গামাটি: এশিয়ার মহাদেশের সর্ববৃহৎ মানব সৃষ্ট জলাধার রাঙামাটির কাপ্তাই হ্রদ। ১৯৬৩-৬৪ সালে তৎকালীন পাকিস্তান সরকার বিদ্যুৎ উৎপাদনের লক্ষ্যে চেঙ্গী নদীতে বাঁধ দিলে এই হ্রদের সৃষ্টি হয়।

সে সময়ে বাঁধের কারণে উদ্বাস্তু হয় লক্ষাধিক মানুষ। বিদ্যুৎ উৎপাদনের পাশাপাশি এই হ্রদ সৃষ্টিতে আরো কিছু উদ্দেশ্য ছিল এর মধ্যে একটি যোগাযোগ; আর একটি মাছ উৎপাদনের মাধ্যমে দেশে পুষ্টি চাহিদায় অবদান রাখা।

ক্রমেই এ হ্রদ দেশের মিঠা পানির মাছ উৎপাদনের অন্যতম উৎসে পরিণত হয়েছে। তবে গেলো অর্থ বছর এই হ্রদ থেকে সরকার সর্বোচ্চ পরিমাণ রাজস্ব অর্জন করেছে। বিএফডিসির দেয়া তথ্যমতে যার পরিমাণ ১০ কোটি টাকারও বেশি।

মৎস্য উন্নয়ন কর্পোরেশন এর ব্যবস্থাপক ও প্রজেক্ট ডিরেক্টর কমান্ডার মাইনুল ইসলাম জানান, হ্রদ থেকে এর আগের বছর তথা ২০১৩-১৪ অর্থ বছরে মৎস্য আহরিত হয় ৮ হাজার ৮১৩ মে.টন এর বিপরীতে রাজস্ব আয় ছিল ৭ কোটি ৩৪ লাখ টাকার কিছু বেশি। ২০১৪-২০১৫ অর্থ বছরে মাছ আহরিত হয় ৮ হাজার ৬৪৪.৮০ মে.টন এতে রাজস্ব আয় ছিল ৯ কোটি ৩৫ লাখ টাকারও বেশি। আর সদ্য শেষ হওয়া অর্থ বছরে অর্থাৎ ২০১৫-২০১৬ অর্থ বছরে মৎস্য আহরিত হয়েছে ৯ হাজার ৫৮৮.৫৫ মে.টন এবং রাজস্ব আদায় হয়েছে ১০ কোটি ৫৪ লাখ টাকারও বেশি। তিনি জানান, রাজস্ব আদায়ের এই হার হ্রদের সৃষ্টি লগ্ন থেকে এ পর্যন্ত সর্বোচ্চ।

তবে রাজস্ব আয় বাড়লেও নানা কারণে এ হৃদ ঘিরে অভিযোগেরও শেষ নেই। বিশেষজ্ঞ ও স্থানীয়রা জানান,  হ্রদ থেকে রাজস্ব আদায় বাড়লেও নানা কারণে এই হ্রদ থেকে বেশ কিছু প্রজাতির মাছ বিলুপ্ত হয়ে গেছে।

১৯৮৮-৮৯ সালের দিকে প্রথমে মৎস্য প্রজাতি বিলুপ্তির তথ্য প্রকাশ পায়। প্রায় দু’দশক পর দেখা যাচ্ছে হ্রদ থেকে প্রায় ৩৭ প্রজাতির মাছ বিলুপ্ত হয়েছে এবং আরো অনেক সুস্বাধু মাছ এখন বিলুপ্তির পথে এবং দুই প্রজাতির কচ্ছপ অনেক আগে বিলুপ্তি হয়েছে।

সচেতন বিজ্ঞমহলরা বারবার অভিযোগ করে বলছেন, বৃহৎ এ হ্রদ নিয়ে সঠিক ব্যবস্থাপনা ও প্রয়োজনীয় গবেষণা নেই।  হ্রদ ঘিরে অবৈধ দখলবাজদের কারণে হ্রদের পরিধিও দিন দিন ছোট হয়ে আসছে। শহর জনপদের পয়ঃনিষ্কাশনের কারণে বাড়ছে দূষণ।

তা ছাড়া কাপ্তাই হ্রদে ক্ষতিগ্রস্ত এই এলাকার মানুষ ন্যায্য মূলে মাছ পাওয়ার কথা থাকলেও এ নিয়ম মানা হচ্ছে না প্রায় দুই দশক ধরে।

নিউজনেক্সটবিডি ডটকম/এসপিকে/জাই


সর্বশেষ

আরও খবর

করোনায় প্রাণ গেল আরও ২১ জনের

করোনায় প্রাণ গেল আরও ২১ জনের


মাস্ক পরা নিশ্চিত করতে নির্দেশ মন্ত্রিসভার

মাস্ক পরা নিশ্চিত করতে নির্দেশ মন্ত্রিসভার


ভোট সুষ্ঠু হয়েছে; দাবি প্রধান নির্বাচন কমিশনারের

ভোট সুষ্ঠু হয়েছে; দাবি প্রধান নির্বাচন কমিশনারের


বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার খসড়া তালিকায় গ্লোব বায়োটেকের ভ্যাকসিন

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার খসড়া তালিকায় গ্লোব বায়োটেকের ভ্যাকসিন


আপাতত বন্ধ হচ্ছে না ইন্টারনেট-ক্যাবল টিভি

আপাতত বন্ধ হচ্ছে না ইন্টারনেট-ক্যাবল টিভি


জাতীয় পার্টির ‘ধর্ষণ ও নারী নির্যাতন’ বিরোধী সমাবেশ

জাতীয় পার্টির ‘ধর্ষণ ও নারী নির্যাতন’ বিরোধী সমাবেশ


চোরের চিরকুট!

চোরের চিরকুট!


বাংলাদেশ থেকে ষ্টুডেন্ট ভিসা এবং ওয়ার্ক পারমি‌ট নিয়ে ৭০টি পেশার মানুষের ব্রিটেনে প্রবেশের পথ উম্মোক্ত হল

বাংলাদেশ থেকে ষ্টুডেন্ট ভিসা এবং ওয়ার্ক পারমি‌ট নিয়ে ৭০টি পেশার মানুষের ব্রিটেনে প্রবেশের পথ উম্মোক্ত হল


মিরপুর চিড়িয়াখানা খুলছে ১ নভেম্বর

মিরপুর চিড়িয়াখানা খুলছে ১ নভেম্বর


দেশে করোনায় আরও ১৫ মৃত্যু

দেশে করোনায় আরও ১৫ মৃত্যু