Saturday, September 21st, 2019
কে এই জি কে শামীম,কি তার আসল পরিচয়
September 21st, 2019 at 2:00 pm
কে এই জি কে শামীম,কি তার আসল পরিচয়

ঢাকা ডেস্কঃ শুক্রবার জুমার নামাজের পর নিকেতনে নিজ ব্যবসায়ী কার্যালয় থেকে বিপুল পরিমাণ নগদ অর্থ, এফডিআর, মদ ও অস্ত্র সহ জি কে শামীমকে গ্রেফতার করা হয়েছে। জি কে শামীমকে গ্রেফতারের খবর স্যাটেলাইট টেলিভিশন ও অনলাইন পত্রিকার সুবাদে সারা দেশে ছড়িয়ে পড়ে। কিন্তু কে এই জি কে শামীম? জনমুখে এখন এ প্রশ্ন।

নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁ উপজেলার সন্মানদী ইউনিয়নের দক্ষিণপাড়া গ্রামের মৃত মো. আফসার উদ্দিন মাস্টারের ছেলে শামীম। তার পুরো নাম  এস এম গোলাম কিবরিয়া শামীম ওরফে জি কে শামীম। রাজধানীর প্রভাবশালী ঠিকাদার হিসেবেই পরিচিত। ছয়জন অস্ত্রধারী দেহরক্ষী সবসময় ঘিরে থাকে তাকে। বিএনপি-জামায়াত ক্ষমতায় থাকাকালে শামীম ছিলেন ঢাকা মহানগর যুবদলের সহসম্পাদক। সেই জি কে শামীম এখন যুবলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সমবায় বিষয়ক সম্পাদক। গত জাতীয় নির্বাচনের সময় শামীম আওয়ামী লীগের নৌকা মার্কা নিয়ে নির্বাচনের জন্য প্রচারণাও চালিয়েছিলেন। শুক্রবার তাকে আটক করেছে র‌্যাব।

রাজধানীর সবুজবাগ, বাসাবো, মতিঝিলসহ বিভিন্ন এলাকায় জি কে শামীম প্রভাবশালী ঠিকাদার হিসেবে পরিচিত। গণপূর্ত ভবনের বেশির ভাগ ঠিকাদারি কাজ জি কে শামীম নিয়ন্ত্রণ করেন। বিএনপি-জামায়াত শাসনামলেও গণপূর্ত বিভাগে ঠিকাদারি নিয়ন্ত্রণকারী ব্যক্তি হিসেবে তিনি পরিচিত ছিলেন। রূপপুর পারমাণবিক কেন্দ্র পর্যন্ত শামীমের ঠিকাদারি হাত বিস্তৃত।

বাসাবো ও এজিবি কলোনির কয়েকজন বাসিন্দা গণমাধ্যমকে জানায়, জি কে শামীম ওয়ার্ড যুবদলের মাধ্যমেই তার রাজনীতি শুরু করে। পরবর্তী সময়ে বিএনপি নেতাদের সঙ্গে ঘনিষ্ঠতা হয় এবং তাদের সহযোগিতায় ধীরে ধীরে গণপূর্ত ভবনের ঠিকাদারি ব্যবসার নিয়ন্ত্রণ নেন তিনি। ঢাকা মহানগর যুবদলের সহসম্পাদকের পদও বাগিয়ে নেন। বিএনপি আমলে গণপূর্ত ভবন ছিল তার দখলে।

ক্ষমতার পালাবদলে শামীমও বদলে গিয়ে এখন কেন্দ্রীয় যুবলীগ নেতা। পাশাপাশি তিনি নারায়ণগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগেরও সহসভাপতি। একসময় বিএনপির বড় বড় নেতাদের ছবিসহ সবুজবাগ-বাসাবো এলাকাসহ রাজধানীর বিভিন্ন এলাকায় শোভা পেত জি কে শামীমের ব্যানার-পোস্টার। এখন শোভা পায় যুবলীগ ও আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় নেতাদের ছবিসহ পোস্টার-ব্যানার রাজধানীর বিভিন্ন এলাকায়। বিএনপি-জামায়াত সরকারের আমলের মতোই আওয়ামী সরকারের আমলেও জি কে শামীমের একক আধিপত্য চলছে গণপূর্তে ঠিকাদারি ব্যবসায়।

তবে জি কে শামীম যুবলীগ ও আওয়ামী লীগের নেতা হিসেবে পরিচয় দিলেও শুক্রবার উভয় সংগঠন থেকে তা অস্বীকার করা হয়েছে। যুবলীগের দফতর সম্পাদক কাজী আনিসুর রহমান বলেন, জি কে শামীম যুবলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির কোনো পদে নেই। তবে তিনি নারায়ণগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি পদে থাকতে পারেন।

নারায়ণগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি আবদুল হাই বলেন, ৭১ সদস্যের জেলা আওয়ামী লীগের কমিটির কোনো পদে জি কে শামীম নামে কেউ নেই। সহ-সভাপতিসহ ছয়টি পদ নানা কারণে শূন্য আছে। ওইসব পদে কারও নাম প্রস্তাব করে অনুমোদনের জন্য কেন্দ্রে পাঠানো হয়নি। সুতরাং এ নামের কেউ দলীয় পদে থাকার কথা নয়।

গ্রন্থনা ও সম্পাদনা: সবুজ


সর্বশেষ

আরও খবর

পাকিস্তানকে ৩০০ অত্যাধুনিক ট্যাংক দিচ্ছে চীন

পাকিস্তানকে ৩০০ অত্যাধুনিক ট্যাংক দিচ্ছে চীন


আবরার হত্যাকাণ্ডে আসামী মোয়াজের ৫ দিন রিমান্ড মঞ্জুর

আবরার হত্যাকাণ্ডে আসামী মোয়াজের ৫ দিন রিমান্ড মঞ্জুর


বুয়েট শিক্ষার্থীদের আন্দোলন অযৌক্তিক: প্রধানমন্ত্রী

বুয়েট শিক্ষার্থীদের আন্দোলন অযৌক্তিক: প্রধানমন্ত্রী


৫ দফা দাবি না মানলে বুয়েটে ভর্তি পরীক্ষা স্থগিত

৫ দফা দাবি না মানলে বুয়েটে ভর্তি পরীক্ষা স্থগিত


বুয়েটে রাজনীতি নিষিদ্ধ ঘোষণা

বুয়েটে রাজনীতি নিষিদ্ধ ঘোষণা


আবরার হত্যার প্রতিবাদে জাবিতে ছাত্রদলের মিছিলে ছাত্রলীগের হামলা

আবরার হত্যার প্রতিবাদে জাবিতে ছাত্রদলের মিছিলে ছাত্রলীগের হামলা


ভারতকে দেশের প্রাকৃতিক গ্যাস দিচ্ছি না: প্রধানমন্ত্রী

ভারতকে দেশের প্রাকৃতিক গ্যাস দিচ্ছি না: প্রধানমন্ত্রী


আবরার হত্যা: ১০ দফা দাবি পূরণে শিক্ষার্থীদের আন্দোলন

আবরার হত্যা: ১০ দফা দাবি পূরণে শিক্ষার্থীদের আন্দোলন


আবরার খুনিরা কেউই ছাড় পাবে না : প্রধানমন্ত্রী

আবরার খুনিরা কেউই ছাড় পাবে না : প্রধানমন্ত্রী


দাবি আদায়ে আজও বুয়েটে বিক্ষোভ চলছে

দাবি আদায়ে আজও বুয়েটে বিক্ষোভ চলছে