Friday, November 11th, 2016
খালেদা যে ডাল ধরেন, সে ডালই ভেঙে পড়ে: নাসিম
November 11th, 2016 at 7:46 pm
খালেদা যে ডাল ধরেন, সে ডালই ভেঙে পড়ে: নাসিম

সিরাজগঞ্জ: বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া যে ডাল ধরেন, সে ডালই ভেঙে পড়ে বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগ প্রেসিডিয়াম সদস্য, স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম।

সিরাজগঞ্জের কাজিপুর উপজেলার গান্ধাইলে শুক্রবার সন্ধ্যায় দশ শয্যাবিশিষ্ট মা ও শিশু কল্যাণ কেন্দ্রের ভবন উদ্বোধন শেষে আয়োজিত সমাবেশে তিনি এ মন্তব্য করেন।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে মোহাম্মদ নাসিম বলেন, “২০১৪  সালের ৫ জানুয়ারি নির্বাচন বর্জন করে, মানুষ পুড়িয়ে, বেগম খালেদা জিয়া জনবিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছেন। যে ডাল তিনি ধরেন, সে ডালই ভেঙে পড়ে। আর এ শোকে ব্যথায় তিনি কেঁদে বুক ভাসান। মাঝে মাঝে উন্নয়নের ধুয়া তুলে দেশকে অকার্যকর করার নকশা আঁকেন। কিন্তু এ নকশা জনগণ বুঝে গেছে। তারা উন্নয়ন ও শান্তি চায় বলেই এসব অপপ্রচারে মন না দিয়ে দেশের উন্নয়নে অবদান রেখে চলেছে।”

তিনি আরো বলেন, “প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশ এগিয়ে যাচ্ছে। বাংলাদেশ এখন আলোকিত হয়েছে। শিক্ষা, স্বাস্থ্য, কৃষি ও বিদ্যুৎসহ সকল ক্ষেত্রেই দেশ যখন এগিয়ে যাচ্ছে, ঠিক তখনই একটি মহল সরকারকে বেকায়দায় ফেলতে জঙ্গি-সন্ত্রাস শুরু করে। কিন্তু শেখ হাসিনার দুরদর্শী নেতৃত্বে মাত্র দু’মাসের ব্যবধানে জঙ্গি সমস্যার সমাধান হয়। খালেদা জিয়া ২০১৪ সালের ৫ জানুয়ারির নির্বাচন বর্জন করে মানুষ পুড়িয়ে হত্যা করে এখন জনবিচ্ছিন্ন। তাই ভোটের মাধ্যমে বিএনপি আর ক্ষমতায় আসতে পারবে না।”

নাসিম বলেন, “দুর্নীতি ও অন্যায়ের বিরুদ্ধে সরকার কঠোর অবস্থানে। কোনো অপরাধীকে ছাড় দেয়া হবে না। এরই মধ্যে সরকারদলীয় একজন সংসদ সদস্যকেও জেলে যেতে হয়েছে।”

সিরাজগঞ্জ পরিবার-পরিকল্পনা বিভাগের উপ-পরিচালক শাহীন হাসানের সভাপতিত্বে সমাবেশে আরো বক্তব্য রাখেন, পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক মো. ওয়াহিদ হোসেন, স্বাস্থ্য প্রকৌশল অধিদপ্তরের প্রধান প্রকৌশলী ব্রি. জেনারেল এম এ মুহী, জেলা প্রশাসক কামরুন নাহার সিদ্দিকা, সিভিল সার্জন ডা. মঞ্জুর রহমান প্রমুখ।

এর আগে মন্ত্রী প্রায় সোয়া চার কোটি টাকা ব্যয়ে গান্ধাইল মা ও শিশু কল্যাণ কেন্দ্রের ত্রিতল ভবন উদ্বোধন করেন।

প্রতিবেদন: শরীফ আহমদ ইন্না, সম্পাদনা: আবু তাহের


সর্বশেষ

আরও খবর

আসামে বন্দী রোহিঙ্গা কিশোরীকে কক্সবাজারে চায় পরিবার

আসামে বন্দী রোহিঙ্গা কিশোরীকে কক্সবাজারে চায় পরিবার


ছয় দিনে নির্যাতিত অর্ধশত সাংবাদিক: মামলা নেই, কাটেনি আতঙ্ক

ছয় দিনে নির্যাতিত অর্ধশত সাংবাদিক: মামলা নেই, কাটেনি আতঙ্ক


ঢাকা-দিল্লি ৫ সমঝোতা স্মারক সই

ঢাকা-দিল্লি ৫ সমঝোতা স্মারক সই


করোনায় আরও ৩৯ মৃত্যু

করোনায় আরও ৩৯ মৃত্যু


করোনায় আক্রান্ত শচীন

করোনায় আক্রান্ত শচীন


নাশকতা ঠেকাতে র‍্যাব-পুলিশের কঠোর অবস্থান

নাশকতা ঠেকাতে র‍্যাব-পুলিশের কঠোর অবস্থান


শুক্র ও শনিবার যান চলাচল নিয়ন্ত্রিত থাকবে

শুক্র ও শনিবার যান চলাচল নিয়ন্ত্রিত থাকবে


মতিঝিলে মোদিবিরোধী বিক্ষোভ, শিশুবক্তা রফিকুলসহ অন্তত ১০ জন আটক

মতিঝিলে মোদিবিরোধী বিক্ষোভ, শিশুবক্তা রফিকুলসহ অন্তত ১০ জন আটক


ঈদের পর স্কুল-কলেজ খোলার ইঙ্গিত শিক্ষামন্ত্রীর

ঈদের পর স্কুল-কলেজ খোলার ইঙ্গিত শিক্ষামন্ত্রীর


৮ মাস পর দেশে করোনায় এক দিনে সর্বোচ্চ ৩৫৫৪ শনাক্ত

৮ মাস পর দেশে করোনায় এক দিনে সর্বোচ্চ ৩৫৫৪ শনাক্ত