Monday, September 12th, 2016
গতি নেই অভিজিৎ হত্যার তদন্তে
September 12th, 2016 at 12:19 pm
গতি নেই অভিজিৎ হত্যার তদন্তে

প্রীতম সাহা সুদীপ, ঢাকা: মৌলবাদের ধারালো আঘাতে নিহত মুক্তমনা ও বিজ্ঞানধর্মী লেখক অভিজিৎ রায়’র ৪৪ তম জন্মবার্ষিকী সোমবার। বিজ্ঞানমনস্ক বাঙালী সমাজ এই প্রতিভাধর লেখককে শ্রদ্ধাভরে স্মরণ করলেও অভিজিৎ হত্যার তদন্তে এখন পর্যন্ত কোন উল্লেখযোগ্য অগ্রগতি দেখাতে পারেনি পুলিশ। হত্যাকাণ্ডের প্রায় দেড় বছর পর কেবল সন্দেহভাজন খুনিদের ৭টি ভিডিওচিত্র  প্রকাশিত হয়েছে।

অন্যদিকে গ্রেফতারকৃত সন্দেহভাজন আট আসামির ডিএনএ নমুনা পরীক্ষার জন্য ল্যাবে পাঠিয়েছে এফবিআই। ওই আট আসামির ডিএনএ আলামত ঘটনাস্থল থেকে জব্দকৃত ১৩ ধরনের আলামতের সঙ্গে প্রোফাইলিং করে দেখছে পুলিশ।

তবে তদন্ত সংশ্লিষ্টরা আশা প্রকাশ করেছেন যে খুব শিগগিরই অভিজিৎ হত্যার তদন্ত সফলতার মুখ দেখবে। তাদের দাবি ইতিমধ্যে এই মামলায় গ্রেফতারকৃতদের জিজ্ঞাসাবাদে অনেক তথ্য বেরিয়ে এসেছে। সেসব তথ্য যাচাই বাছাই করা হচ্ছে। এছাড়া ভিডিও ফুটেজ দেখেও আরো কয়েকজনকে শনাক্ত করা হয়েছে। এদের গ্রেফতার করা গেলেই তদন্ত নিষ্পত্তির দিকে এগিয়ে যাবে।

গোয়েন্দা ও অপরাধ তদন্ত বিভাগ ডিবির উপ-কমিশনার মাসরুকুর রহমান খালেদ নিউজনেক্সটবিডি ডটকমকে বলেন, ‘বিভিন্ন সময় মুক্তমনা লেখক ও ব্লগার হত্যা মামলায় যাদের গ্রেফতার করা হয়েছে, তাদের জিজ্ঞাসাবাদ এবং জবানবন্দি থেকে বেশ কয়েকজনের নাম বেরিয়ে এসেছে। ইতিমধ্যে তাদের শনাক্তও করা হয়েছে। এছাড়া অভিজিতের সন্দেহভাজন খুনিদের ভিডিও ফুটেজ প্রকাশ করা হয়েছে। তাদের তথ্য চেয়ে জনসাধারণের কাছে সহযোগিতা চাওয়া হয়েছে। এরই মধ্যে আমরা কিছু তথ্য পেয়েছি। সে অনুযায়ী তাদের গ্রেফতারে অভিযান চালানো হচ্ছে। আশা করছি, শিগগিরই সফলতা পাবো।’

ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের গণমাধ্যম শাখার উপ-কমিশনার মো. মাসুদুর রহমান নিউজনেক্সটবিডি ডটকমকে বলেন, ‘আমরা মোটামুটি নিশ্চিত হয়েই খুনি চক্রের অবস্থান শনাক্ত করতে পেরেছি। তাদের গ্রেফতার করা গেলে আরও কয়েকটি হত্যাকাণ্ডের বিষয়ে জানা যাবে। ব্লগার হত্যা মামলার তদন্তে কিছু সফলতা এসেছে। শিগগিরই অভিজিৎ রায়সহ কয়েকটি মামলার রহস্য জানা যাবে।’

অভিজিৎ হত্যার পর ঘটনাস্থল থেকে কিলারদের রক্তমাখা চাপাতি, চুল, ব্যাগ, অব্যবহৃত সিরিঞ্জ, পত্রিকা, জিন্স প্যান্ট, তুলা, স্যাভলন, টিস্যু পেপারসহ বিভিন্ন আলামত জব্দ করেছিল পুলিশ। এর মধ্যে ১৩ ধরনের আলামত ডিএনএ পরীক্ষার জন্য হত্যাকাণ্ডে কয়েকদিন পর যুক্তরাষ্ট্রে এফবিআই ল্যাবে পাঠানো হয়। দীর্ঘ অপেক্ষার পর সেই ডিএনএ পরীক্ষার প্রতিবেদন এফবিআইয়ের কাছ থেকে হাতে পেয়েছে পুলিশ। তদন্ত সংস্থার কাছে পাঠানো ওই প্রতিবেদনে আলামতগুলোয় একাধিক পুরুষের ডিএনএ নমুনা পেয়েছে বলে উল্লেখ করা হয়েছে।

এখন গ্রেফতারকৃত আট আসামির ডিএনএ আলামত ঘটনাস্থল থেকে জব্দকৃত আলামতের সঙ্গে প্রোফাইলিং করে দেখা হচ্ছে। পুলিশ বলছে,আগের আলামতের ডিএনএর সঙ্গে সন্দেহভাজন আট আসামির কারো ডিএনএ নমুনা মিলে গেলে তিনিই অভিজিৎ হত্যা মামলার আসামি হবেন।

অভিজিৎ রায় হত্যা মামলার তদন্ত কর্মকর্তা গোয়েন্দা পুলিশের পরিদর্শক ফজলুর রহমান জানান, এফবিআই’র আংশিক প্রতিবেদন আমরা হাতে পেয়েছি। এ বিষয়ে এখনো কাজ চলছে। তাই তদন্তের স্বার্থে এখনই কিছু বলা যাচ্ছেনা।

তিনি বলেন, অভিজিৎ হত্যা মামলায় এ পর্যন্ত আটজনকে গ্রেফতার দেখানো হয়েছে। এর মধ্যে ব্রিটিশ নাগরিক তৌহিদুর রহমান, সাদেক আলী, আমিনুল মল্লিক, জুলহাস বিশ্বাস, আবুল বাশার ও জাফরান হাসানকে গ্রেফতারের পর গোয়েন্দা পুলিশে হস্তান্তর করে র‍্যাব। এ ছাড়া ইন্টারনেটে উগ্রবাদের প্রচারক ব্লগার শফিউর রহমান ফারাবী, সিলেটে ব্লগার অনন্ত বিজয় দাস খুনের আসামি মান্নান ইয়াহিয়া ওরফে মান্নান রাহীকেও অভিজিৎ রায় হত্যা মামলায় গ্রেফতার দেখানো হয়।

তদন্ত সূত্রে জানা গেছে, নিষিদ্ধ জঙ্গি সংগঠন আনসারুল্লাহ বাংলা টিমের সাত সদস্যের কিলিং স্কোয়াড অভিজিৎ রায়কে এক সপ্তাহ অনুসরণ করার পর পরিকল্পনা মাফিক তাকে হত্যা করে।

কিছুদিন আগে সন্দেহভাজন ছয় আসামির গতিবিধির সাতটি ভিডিও ফুটেজ প্রকাশ করে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ। ঘটনার দিনের এসব ভিডিও ক্লিপে সন্দেহভাজনদের বইমেলায় প্রবেশ, প্রস্থান এবং অভিজিৎ রায়কে অনুসরণ করতে দেখা যায়।

সূত্র আরো জানায়, আনসারুল্লাহ বাংলা টিমের তিন নীতিনির্ধারক চাকরিচ্যুত মেজর সৈয়দ জিয়াউল হক,শরীফুল ইসলাম ওরফে মুকুল রানা এবং সেলিম ওরফে ইকবাল ওরফে মামুনের সিদ্ধান্তেই অভিজিৎকে হত্যা করা হয়। তাদের তিনজনের মধ্যে শরীফুল খুনের সময় ঘটনাস্থলে উপস্থিত ছিল। গত জুনে শরীফুল পুলিশের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে নিহত হয়।

প্রসঙ্গত, গত বছর ২৬ ফেব্রুয়ারি রাতে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের টিএসসি এলাকায় বাংলাদেশি বংশোদ্ভুত যুক্তরাষ্ট্রের নাগরিক অভিজিৎ রায় ও তার স্ত্রী রাফিদা আহমেদ বন্যাকে কুপিয়ে জখম করে দুর্বৃত্তরা। এতে ঘটনাস্থলেই নিহত হন অভিজিৎ।

সম্পাদনা: এস. কে. সিদ্দিকী


সর্বশেষ

আরও খবর

৪২ ও ৪৩তম বিসিএসের বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ

৪২ ও ৪৩তম বিসিএসের বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ


করোনায় আরও ৩০ জনের মৃত্যু, ৭৮ দিনের মধ্যে সর্বোচ্চ শনাক্ত

করোনায় আরও ৩০ জনের মৃত্যু, ৭৮ দিনের মধ্যে সর্বোচ্চ শনাক্ত


ঢাবি ছাত্রী ধর্ষণ মামলায় মজনুর যাবজ্জীবন কারাদণ্ড

ঢাবি ছাত্রী ধর্ষণ মামলায় মজনুর যাবজ্জীবন কারাদণ্ড


মানুষের জন্য কিছু করতে পারাই আমাদের রাজনীতির লক্ষ্য: প্রধানমন্ত্রী

মানুষের জন্য কিছু করতে পারাই আমাদের রাজনীতির লক্ষ্য: প্রধানমন্ত্রী


আনিসুল হত্যা: মানসিক স্বাস্থ্য ইন্সটিটিউটের রেজিস্ট্রার গ্রেপ্তার

আনিসুল হত্যা: মানসিক স্বাস্থ্য ইন্সটিটিউটের রেজিস্ট্রার গ্রেপ্তার


পাওয়ার গ্রিডের আগুনে বিদ্যুৎ-বিচ্ছিন্ন পুরো সিলেট, ব্যাপক ক্ষতি

পাওয়ার গ্রিডের আগুনে বিদ্যুৎ-বিচ্ছিন্ন পুরো সিলেট, ব্যাপক ক্ষতি


দুবাই পাচারকালে হিথ্রো বিমানবন্দরে ১২ লক্ষ পাউন্ড সহ দুই চেকরিপাবলিক নাগরিককে আটক করেছে ব্রিটিশ ইমিগ্রেশন

দুবাই পাচারকালে হিথ্রো বিমানবন্দরে ১২ লক্ষ পাউন্ড সহ দুই চেকরিপাবলিক নাগরিককে আটক করেছে ব্রিটিশ ইমিগ্রেশন


লন্ডনে যৌন নির্যাতনের অভিযোগে দুই ব্রিটিশ বাঙ্গালীর ৩৬ বছরের কারাদন্ড

লন্ডনে যৌন নির্যাতনের অভিযোগে দুই ব্রিটিশ বাঙ্গালীর ৩৬ বছরের কারাদন্ড


দুইদিনের বিক্ষোভের ডাক বিএনপির

দুইদিনের বিক্ষোভের ডাক বিএনপির


বাস পোড়ানোর মামলায় বিএনপির ২৮ নেতাকর্মী রিমান্ডে

বাস পোড়ানোর মামলায় বিএনপির ২৮ নেতাকর্মী রিমান্ডে