Tuesday, August 16th, 2016
‘গুলশান হামলায় আরো ৭-৮ জন শনাক্ত’
August 16th, 2016 at 3:26 pm
‘গুলশান হামলায় আরো ৭-৮ জন শনাক্ত’

ঢাকা: গুলশানের হলি আর্টিজান রেস্তোরাঁয় জঙ্গি হামলার ঘটনায় তামিম, জিয়া, হাসনাত ও মারজান ছাড়াও আরো সাত আটজনকে শনাক্ত করেছে পুলিশ।

মঙ্গলবার দুপুরে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের মিডিয়া সেন্টারে কাউন্টার টেরোরিজম এন্ড ট্রান্সন্যাশনাল ক্রাইম ইউনিটের প্রধান মনিরুল ইসলাম সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান।

তিনি বলেন, ‘তামিম, জিয়া, মারজান ছাড়াও আরো ৭/৮ জনকে শনাক্ত করা হয়েছে। তাদের সাংগঠনিক নামও পাওয়া গেছে। যাবতীয় তথ্য যাচাই বাছাই করা হচ্ছে।’

মনিরুল ইসলাম আরো বলেন, ‘যাদের শনাক্ত করা হয়েছে তারা গুলশান হামলায় বিভিন্ন ধরনের ভূমিকা পালন করেছেন বলে তথ্য রয়েছে। তাদের সুনির্দিষ্ট অবস্থান সম্পর্কে জানা না গেলেও তারা সবাই দেশেই রয়েছেন বলে আমরা জানতে পেরেছি।’

এর আগে গুলশান হামলার মাস্টার মাইন্ড হিসেবে তামিম আহমেদ চৌধুরী, সেনাবাহিনী থেকে বহিষ্কৃত মেজর সৈয়দ মো. জিয়াউল হক ও নুরুল ইসলাম মারজানের ছবি ও তথ্য প্রকাশ করে পুলিশ।

এছাড়া গত ১৩ আগস্ট গুলশান হামলায় জড়িত থাকার সুনির্দিষ্ট তথ্য-প্রমাণ পাওয়ায় নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক শিক্ষক হাসনাত রেজা করিমকে ওই মামলায় গ্রেফতার করা হয়।

গত ১ জুলাই রাত নয়টায় অস্ত্রধারী সন্ত্রাসীদের হাতে গুলশানের স্প্যানিশ রেস্টুরেন্ট হলি আর্টিজান আক্রান্ত হয়। হামলায় দুই পুলিশ কর্মকর্তাসহ দেশি-বিদেশি ২২ নাগরিক নিহত হন। প্রায় ১২ ঘন্টার ‘জিম্মি সংকট’ শেষ হয় সেনাবাহিনীর কমান্ডো অভিযান ‘অপারেশন থান্ডারবোল্ট’ দিয়ে।

ওই কমান্ডো অভিযানে ছয় জঙ্গি নিহত হন। অভিযান শেষে আক্রান্ত হোটেল থেকে উদ্ধার করা হয় হাসনাত করিম, তাহমিদ হাসিব খানসহ ৩২ জন জিম্মিকে। জানা যায়, তার ১৩ বছর বয়সী সন্তান রাইয়ান করিমের জন্মদিন উদযাপন করতে ওইদিন সন্ধ্যায় স্ত্রী শারমিন পারভীন ও কনিষ্ঠ সন্তান সাফা করিমকে নিয়ে ঐ রেস্টুরেন্টে যান হাসনাত।

তবে হলি আর্টিজানে জিম্মিদশার বিভিন্ন ফাঁস হওয়া ভিডিও চিত্রে হাসনাত করিম ও তাহমিদকে রহস্যজনক ভাবে চলা ফেরা করতে দেখা যায়। এসময় জঙ্গিদের সাথে তাদের বেশ ঘনিষ্টভাবে কথা বলতেও দেখা যায়। রহস্যজনক আচরণের কারণে তাদের গোয়েন্দা কার্যালয়ে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়।

গত ৩ আগস্ট রাতে হাসনাত করিম এবং তাহমিদ হাসিব খানকে ৫৪ ধারায় গ্রেফতার করে পুলিশ। পরদিন তাদের ৮ দিনের রিমান্ডে নেয় পুলিশ। রিমান্ড আবেদনে বলা হয়, হাসনাত করিম নিষিদ্ধ ঘোষিত জঙ্গি সংগঠন হিজবুত তাহরীরের সদস্য এবং তাহমিদ তার সহযোগী। বিভিন্ন সময় তাহমিদ হাসনাতকে সহযোগিতা করেছে। পরে হাসনাতের বিরুদ্ধে সুনির্দিষ্ট তথ্য-প্রমাণ পেয়ে ১৩ আগস্ট গুলশান হামলার মামলায় তাকে গ্রেফতার দেখায় পুলিশ।

প্রতিবেদন- প্রীতম সাহা সুদীপ, সম্পাদনা- মাহতাব শফি


সর্বশেষ

আরও খবর

জাতীয় অধ্যাপক রফিকুল ইসলাম মারা গেছেন

জাতীয় অধ্যাপক রফিকুল ইসলাম মারা গেছেন


নির্বাচনী সহিংসতায় ছাত্রলীগ নেতার মৃত্যু

নির্বাচনী সহিংসতায় ছাত্রলীগ নেতার মৃত্যু


নটরডেম ছাত্রের মৃত্যু: তিন সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন ডিএসসিসির

নটরডেম ছাত্রের মৃত্যু: তিন সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন ডিএসসিসির


আগামী বছর দেশে টিকা উৎপাদন শুরু হতে পারে: সালমান এফ রহমান

আগামী বছর দেশে টিকা উৎপাদন শুরু হতে পারে: সালমান এফ রহমান


মুশফিককে বিসিবির কারণ দর্শানোর নোটিশ

মুশফিককে বিসিবির কারণ দর্শানোর নোটিশ


জীবন-মৃত্যুর সন্ধিক্ষণে খালেদা জিয়া: মির্জা ফখরুল

জীবন-মৃত্যুর সন্ধিক্ষণে খালেদা জিয়া: মির্জা ফখরুল


বিএনপি যত খুশি গালি দিক, কিছু করার নেই: আইনমন্ত্রী

বিএনপি যত খুশি গালি দিক, কিছু করার নেই: আইনমন্ত্রী


কড়াইল বস্তিতে ছয় হাজার টিকা দিল ডিএনসিসি

কড়াইল বস্তিতে ছয় হাজার টিকা দিল ডিএনসিসি


নির্বাচন এখন আইসিইউতে, গণতন্ত্র এখন লাইফ সাপোর্টে: ইসি মাহবুব

নির্বাচন এখন আইসিইউতে, গণতন্ত্র এখন লাইফ সাপোর্টে: ইসি মাহবুব


সিসিইউতে খালেদা জিয়া

সিসিইউতে খালেদা জিয়া