Wednesday, August 24th, 2016
‘গ্যাসের মূল্য বাড়লে বিপর্যয় নেমে আসবে’
August 24th, 2016 at 6:24 pm
‘গ্যাসের মূল্য বাড়লে বিপর্যয় নেমে আসবে’

ঢাকা: ভোক্তা পর্যায়ে জ্বালানি গ্যাসের মূল্য অযৌক্তিকভাবে একলাফে ৬৫% বাড়ানোর পাঁয়তারা করা হচ্ছে এবং যদি তা করা হয় তাহলে জনজীবনে ও শিল্পখাতে ভয়াবহ বিপর্যয় নেমে আসবে বলে মন্তব্য করেছেন অর্থনীতিবিদ অধ্যাপক আনু মোহাম্মদ।

বুধবার দুপুরে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে ভোক্তা পর্যায়ে গ্যাসের অযৌক্তিক মূল্য বৃদ্ধির পাঁয়তারার প্রতিবাদে ‘জনতার গণশুনানিতে’তিনি এই অভিযোগ করেন।

অধ্যাপক আনু মোহাম্মদ বলেন, সরকারের দুর্নীতি ও ভুল নীতির কারণে বারবার গ্যাস বিদ্যুৎ এর মূল্য বাড়িয়ে জনগণের নাভিশ্বাস তুলছে। অথচ এই খাতে সংস্কার আনা গেলে গ্যাস বিদ্যুতের মূল্য আরো কমানো সম্ভব। এই খাতে সরকার এক টাকা মূল্য বাড়ালে জনগণের খরচ ভারে নানা খাতে ১০ টাকা। গ্যাসের মূল্য বাড়লে গ্যাস যেহেতু জ্বালানি খাতের প্রাথমিক উৎস সেহেতু বিদ্যুতের মূল্য ও বেড়ে যাবে, পণ্য পরিবহন, গণপরিবহন, শিল্প, ব্যবসা বাণিজ্য সকল খাতে খরচ বেড়ে যাবে। তিনি অনতিবিলম্বে এই জনবিরোধী  প্রস্তাব বাতিলের দাবি জানান।

গণসংহতি আন্দোলনের প্রধান সমন্বয়ক জোনায়েদ সাকি বলেন, ইতিমধ্যে বিইআরসির শুনানিতে নানা শ্রেণী পেশার লোকজন তাদের যুক্তি তর্ক দিয়ে প্রমাণ করতে সক্ষম হয়েছে। গ্যাসের মূল্য এক পয়সাও বাড়ানোর কোনো প্রয়োজন নেই। শুধু সরকারের বিভিন্ন প্রকল্পের কয়েকগুণ খরচ বাড়িয়ে লুটপাটে যোগান দেয়ার জন্য গ্যাসের দাম বাড়িয়ে জনগণের পকেট কাঁটার আয়োজন চলছে।

শুনানিতে ভুক্তভোগীরা অভিযোগ করে বলেন, পেট্রোবাংলার অধীন কোম্পনিগুলো ভুলতথ্য উপাত্ত দিয়ে রাজস্ব ঘাটতি মেটানোর কথা বলে একলাফে গ্যাসের দাম ৬৫ দশমিক ৪৫ শতাংশ বাড়ানোর পাঁয়তারা করা হচ্ছে। অথচ ইতিমধ্যে বিইআরসির গণশুনানিতে উঠে এসেছে প্রতিটি কোম্পানি লাভজনক রয়েছে এবং এদের শত শত কোটি টাকার এফডিআর ব্যাংকে গচ্ছিত রয়েছে। মাত্র বছরে ৮৪০ কোটি টাকা রাজস্ব আয়ের টার্গেট নিয়ে প্রতিষ্ঠানটি গ্রাহকদের কাছে গ্যাসের মূল্য বাবদ অতিরিক্ত ১১ হাজার কোটি টাকার বেশি আদায়ের মহোৎসবে নেমেছে বলেছে অভিযোগ ভুক্তভোগীদের।

 শুনানিতে বক্তারা বলেন, ১৯৯৩ সালে বহুজাতিক কোম্পানির গ্যাসের দামের ওপর সব ধরনের কর ও ভ্যাট অব্যাহতি দিলেও পেট্রোবাংলা গ্রাহকদের কাছে থেকে কর-ভ্যাট বাবদ অর্থ আদায় অব্যাহত রাখে। পরে এই টাকা সরকার মওকুফ করলেও গ্রাহকদের ফেরত দেয়নি।

এ সময় আরো উপস্থিত ছিলেন বাসদ কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য রাজেকুজ্জামান রতন, ভাড়াটিয়া পরিষদের সভাপতি বাহারানে সুলতান বাহার, বাংলাদেশ সিএনজি ফিলিং স্টেশন ওনার অ্যাসোসিয়েশনের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হাসিন পারভেজ, বাংলাদেশ যাত্রী কল্যাণ সমিতির কেন্দ্রীয় নেতা মাহমুদুল হাসান রাসেল, মনিরুল হক ও সামসুদ্দীন চৌধুরী।

প্রতিবেদক- ইয়াসিন রানা, সম্পাদনা- জাহিদুল ইসলাম

 


সর্বশেষ

আরও খবর

জ্বরে আক্রান্ত খালেদা জিয়া

জ্বরে আক্রান্ত খালেদা জিয়া


খালেদা জিয়ার বিদেশে যাওয়া নিয়ে আইনি দিক খতিয়ে দেখছে বিএনপি

খালেদা জিয়ার বিদেশে যাওয়া নিয়ে আইনি দিক খতিয়ে দেখছে বিএনপি


চিকিৎসার জন্য বিদেশ যেতে পারছেন না খালেদা জিয়া: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

চিকিৎসার জন্য বিদেশ যেতে পারছেন না খালেদা জিয়া: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী


খালেদা জিয়ার বিদেশ যাওয়া প্রসঙ্গে সিদ্ধান্ত শিগগিরই: আইনমন্ত্রী

খালেদা জিয়ার বিদেশ যাওয়া প্রসঙ্গে সিদ্ধান্ত শিগগিরই: আইনমন্ত্রী


প্রধানমন্ত্রীপরিচয়ে তাজউদ্দীন ইন্দিরার সমর্থন আদায় করেন যেভাবে!

প্রধানমন্ত্রীপরিচয়ে তাজউদ্দীন ইন্দিরার সমর্থন আদায় করেন যেভাবে!


লকডাউনের নামে সরকার ক্র্যাকডাউন চালাচ্ছে: ফখরুল

লকডাউনের নামে সরকার ক্র্যাকডাউন চালাচ্ছে: ফখরুল


বিদেশি অতিথিদের স্বাগত জানাতে গিয়ে ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের মারামারি

বিদেশি অতিথিদের স্বাগত জানাতে গিয়ে ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের মারামারি


প্রকৃতির নিয়ম রেখেছিল ঢেকে রাতের কালো, বিধাতার ডাকে বঙ্গবন্ধু এলো

প্রকৃতির নিয়ম রেখেছিল ঢেকে রাতের কালো, বিধাতার ডাকে বঙ্গবন্ধু এলো


দক্ষ লেখক, রাজনীতিক; ক্ষমতার দাবা খেলোয়াড়ের মৃত্যু

দক্ষ লেখক, রাজনীতিক; ক্ষমতার দাবা খেলোয়াড়ের মৃত্যু


মারা গেলেন মওদুদ আহমদ, রাষ্ট্রপতির শোক

মারা গেলেন মওদুদ আহমদ, রাষ্ট্রপতির শোক