Sunday, April 7th, 2019
গ্রেপ্তার ছাত্রলীগ কর্মীদের মুক্তির দাবিতে অচল চবি
April 7th, 2019 at 12:21 pm
গ্রেপ্তার ছাত্রলীগ কর্মীদের মুক্তির দাবিতে অচল চবি

চট্টগ্রাম- দেশীয় অস্ত্রমামলায় আটক ছয় ছাত্রলীগকর্মীর নিঃশার্ত মুক্তি, বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর এবং ওসি বেলালের প্রত্যাহারের দাবিতে অনিদির্ষ্টকালের জন্য ছাত্রধর্মঘটের ঘোষণা দিয়েছে শাখা ছাত্রলীগের একপক্ষ।

রোববার (৭ মার্চ) সকাল থেকে এ ধর্মঘট শুরু হয়। বর্তমানে আন্দোলনকারী ছাত্রলীগের নেতকর্মীরা বিশ্ববিদ্যালয়ের জিরো পয়েন্টের প্রধান গেইট তালাবন্ধ করে জিরোপয়েন্টে আবস্থান নিয়েছে। ফলে যানচলাচল বন্ধ থাকায় অচল হয়ে পরেছে চবি।

এদিকে ধর্মঘটসফল করতে শনিবার রাতে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকদের সকল বাসের চাকার হাওয়া ছেড়ে দিয়েছে তারা। এছাড়া চট্টগ্রাম বটতলী স্টেশনে বিশ্ববিদ্যালয়গামী শাটল ট্রেনের হুইসপাইপও কেটে দিয়েছে। বিশ্ববিদ্যালয়ের ঢোকার সকল প্রবেশপথ, সকল দোকানপাটও বন্ধ করে দিয়েছে আন্দোলনকারী ছাত্রলীগের নেতকর্মীরা।

দাবি মেনে না নেওয়া পর্যন্ত আন্দোলন চলবে বলে জানিয়েছে তারা।

আন্দোলনকারী ছাত্রলীগের নেতকর্মীরা শাখা ছাত্রলীগের বগিভিত্তিক গ্রুপ সিএফসি ও বিজয় গ্রুপ এবং শিক্ষা উপমন্ত্রী ও বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ কেন্দ্রীয় কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেলের অনুসারী হিসেবে ক্যাম্পাসে পরিচিত।

এ বিষয়ে সিএফসি গ্রুপের নেতা মির্জা খবির সাদাফ বলেন, ওসি বেলালের নেতৃত্বে আমাদের ছাত্রলীগের ৬ কর্মীকে শুধু শুধু গ্রেপ্তার করে মামলা দেয়া হয়েছে। তাদের হাতে অস্ত্র না থাকলেও তাদেরকে অস্ত্র মামলায় চালান করে দেয়া হয়েছে। প্রয়োজনে বিশ্ববিদ্যালয়ের সিসি টিভি ফুটেজ প্রকাশ করা হোক।

তিনি আরো বলেন, আগামী ২৪ ঘণ্টার মধ্যে আমাদের ভাইদের মুক্তির এবং ওসি বেলালকে প্রত্যাহারের দাবি জানাচ্ছি। দাবি পূরণ না হওয়া পর্যন্ত আন্দোলন চলবে।

জানা গেছে, ফেসবুকে এক গ্রুপের নাম নিয়ে অন্য গ্রুপ বাজে মন্তব্য করাকে কেন্দ্র গত ৩১ মার্চ (রোববার) থেকে তিনদিনব্যাপী দফায় দফায় সংঘর্ষ ও দেশীয় অস্ত্রের মহড়া দেয় শাখা ছাত্রলীগের বগিভিত্তিক গ্রুপ সিএফসি ও বিজয় গ্রুপের কর্মীরা।

এতে তিনদিনে ছাত্রলীগের ২০ নেতাকর্মী আহত হয়। সংঘর্ষ চলাকালীন এক গ্রুপেরআহতের অনেককে বিশ্ববিদ্যালয় মেডিকেল সেন্টরে চিকিৎসা করতে দেয়নি অন্যগ্রুপ।

এসব ঘটনায় ১ মার্চ (সোমবার) দিবাগত রাতে বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রদের পাঁচটি আবাসিক হলে তল্লাশি চালিয়ে দুটি পাইপগান ও ১২৮ রাউন্ড গুলিসহ বিপুল পরিমাণ দেশীয় অস্ত্র উদ্ধার করা হয়। পরে গ্রুপ দুটি ২ মার্চ (মঙ্গলবার) ফের সংঘর্ষে জড়ালে সংঘর্ষচলাকালীল ৬ ছাত্রলীগ কর্মীকে আটক করেন। আটকদের ৩ মার্চ (বুধবার) দেশীয় অস্ত্র মামলায় কোর্টে চালান দেয় চট্টগ্রামের হাটহাজারী মডেল থানা পুলিশ।

এদের মধ্যে চবি আইন বিভাগের ছাত্র খালেদ মাসুদ, একই বিভাগের শাকিল হাসান, সমাজতত্ব বিভাগের সিফাত উল্লাহ সরকার শাখা ছাত্রলীগের সিএফসি গ্রুপের কর্মী।

অন্যদিকে ইংরেজি বিভাগের বেলাল হাসান, ইতিহাস বিভাগের অমিত রয় এবং উদ্ভিদবিদ্যা বিভাগের ইয়াসিন আরাফাত শাখা ছাত্রলীগের বিজয় গ্রুপের কর্মী। এছাড়া এরা সবাই শিক্ষা উপমন্ত্রী ও বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ কেন্দ্রীয় কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেলের অনুসারী হিসেবে ক্যাম্পাসে পরিচিত।

শাখা ছাত্রলীগের বিলুপ্ত সহ-সম্পাদক ও বিজয়গ্রুপের নেতা আজাদুর রহমান বলেন, আমাদের কর্মীদের মিথ্যা অস্ত্র মামলায় আটক করা হয়েছে। এছাড়া আমরা বিশ্ববিদ্যালয়ের আমাদের অধিকার থেকে বঞ্চিত হচ্ছি। তাই আমাদের কর্মীদের নিঃশর্তমুক্তি, বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর মোহাম্মদ আলী আজগর চৌধুরী এবং হাটহাজারী মডেল থানার ওসি বেলালের প্রত্যাহারের দাবি। সেই সাথে ২০১৫ সাল থেকে এ পর্যন্ত ছাত্রলীগের বিরুদ্ধে যতো মামলা হয়েছে তা প্রত্যাহার করতে হবে।

সার্বিক বিষয়ে জানতে চাইলে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর মোহাম্মদ আলী আজগর চৌধুরী বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ের আন্দোলনের নামে যদি কেউ বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করতে চায় তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে। তবে তাদের (ছাত্রলীগের) আন্দোলন যৌক্তিক হলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

এসআর


সর্বশেষ

আরও খবর

টানা তৃতীয়বারের মতো নির্বাচিত হলেন আইভী

টানা তৃতীয়বারের মতো নির্বাচিত হলেন আইভী


অর্ধেক আসন ফাঁকা রেখে বাস চলার সিদ্ধান্ত পরিবর্তন

অর্ধেক আসন ফাঁকা রেখে বাস চলার সিদ্ধান্ত পরিবর্তন


আগুনে পুড়ল রোহিঙ্গা ক্যাম্পের ১২০০ ঘর

আগুনে পুড়ল রোহিঙ্গা ক্যাম্পের ১২০০ ঘর


এবারের বিজয় দিবসে দেশবাসীকে শপথ পড়াবেন প্রধানমন্ত্রী

এবারের বিজয় দিবসে দেশবাসীকে শপথ পড়াবেন প্রধানমন্ত্রী


কমলো এলপিজির দাম

কমলো এলপিজির দাম


উন্নয়নশীল দেশ নিয়ে খুশি না হয়ে, উন্নত দেশ গড়ার লক্ষ্যে কাজ করার আহ্বান রাষ্ট্রপতির

উন্নয়নশীল দেশ নিয়ে খুশি না হয়ে, উন্নত দেশ গড়ার লক্ষ্যে কাজ করার আহ্বান রাষ্ট্রপতির


জাতীয় অধ্যাপক রফিকুল ইসলাম মারা গেছেন

জাতীয় অধ্যাপক রফিকুল ইসলাম মারা গেছেন


ডিআরইউর নতুন সভাপতি মিঠু, সাধারণ সম্পাদক হাসিব

ডিআরইউর নতুন সভাপতি মিঠু, সাধারণ সম্পাদক হাসিব


ওমিক্রন খুবই ঝুঁকিপূর্ণ; সবাইকে প্রস্তুত থাকার আহ্বান বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার

ওমিক্রন খুবই ঝুঁকিপূর্ণ; সবাইকে প্রস্তুত থাকার আহ্বান বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার


নির্বাচনী সহিংসতায় ছাত্রলীগ নেতার মৃত্যু

নির্বাচনী সহিংসতায় ছাত্রলীগ নেতার মৃত্যু