Monday, September 10th, 2018
ঢাকা; মৃত জোনাকির থমথমে চোখ
September 10th, 2018 at 10:35 pm
ঢাকা; মৃত জোনাকির থমথমে চোখ

মাসকাওয়াথ আহসান: ঢাকা আমাদের অত্যন্ত ভালো লাগার শহর। বিংশ শতক পর্যন্ত এ শহরে জীবন ছিলো, খানিকটা সবুজ ছিলো, সাংস্কৃতিক উদ্দীপনার উষ্ণ সাঁঝ ছিলো, আড্ডা ছিলো, পান-অনুপান ছিলো।

ট্রাফিক সহনীয় ছিলো, ফুটপাথে হাঁটার পরিসর ছিলো। জনবসতি মোটামুটি পরিসরের সঙ্গে মানানসই ছিলো। কিন্তু বিংশ শতকের শেষ দশক; নীতি নির্ধারকরা ব্যস্ত ছিলো তাদের মিউজিক্যাল চেয়ার খেলায়। ফলে এই অযোগ্য, অদূরদর্শী ও আত্মকেন্দ্রিক নীতি নির্ধারকেরা “গণপরিবহন নৈরাজ্য”কে প্রশ্রয় দিয়ে এসময় নিশ্চিত করে একবিংশে ঢাকাকে বসবাসের অনুপযুক্ত করে তুলবে । আর যাদের একতলা-দোতলা বাড়ি ছিলো; তারা সিদ্ধান্ত নেয়, প্রমোটারকে দিয়ে সুউচ্চ এপার্ট্মেন্ট ভবন তুলে বাড়ি ভাড়া দিয়ে বসে খাবে একবিংশ শতকটি। এই বসে খাওয়ার স্বপ্নটি ভয়ংকর প্রতিশোধ নিয়েছে তাদের প্রতি। এখন ট্রাফিক জ্যামে গাড়িতে বসে বসে কার-পটেটো আর ট্রাফিকের ভয়ে বাসা থেকে বের না হয়ে কাউচ পটেটো হয়ে উঠেছে সেই অপরিনামদর্শী বাড়িওয়ালারা।

পরিবহন মালিক সমিতি আর এপার্টমেন্ট মালিক সমিতির লোভ ঢাকাকে জীবন্মৃত করেছে। আর নিজ নিজ গ্রাম ও শহরের স্বাস্থ্যপ্রদ জীবন ছেড়ে “বিরাট কিছু হবার” স্বপ্ন নিয়ে অসংখ্য মানুষ ঢাকা শহরে এসে একরকম আত্মঘাতি জীবনের গোলকধাঁধায় পড়ে গেছে। বাংলাদেশের গ্রাম ও অন্যান্য শহরের বসবাসের প্রাকৃতিক পরিবেশ ইউরোপের জীবনমানের সঙ্গে তুলনীয়। সেটা না বুঝে; ঢাকায় না এলে জীবন বৃথা যাবে এমন রূপকথার ফাঁদে পা দিয়েছে তারা। একবিংশ শতকের ঢাকা যেন মৃত জোনাকির থমথমে চোখ। বিংশ শতকের জীবন নগরী একবিংশে হয়ে উঠেছে মৃত্যুর শহর।

ঢাকার বর্তমান যে জনসংখ্যা, গণপরিবহন ব্যবস্থা, আবাসন ব্যবস্থাপনা তা এতো অপরিকল্পিত যে এর মেরামত প্রায় অসম্ভব। বাংলাদেশের গ্রামে ও অন্যান্য শহরে মানুষ যে জীবন যাপন করে তা অসম্ভব সুন্দর। জীবনানন্দ দাশের মতো আমাদের কোথাও দ্রুত পৌঁছে যাবার তাড়া নেই-ই হচ্ছে জীবন। জীবনের এতো সুন্দর ঠিকানা থাকার পরেও ঢাকায় ছুটে যাওয়া যেন প্যারাডাইস লস্ট; মৃত্যুর শহরের গোলকধাঁধায় ঢুকে পড়া; যেখান থেকে ফেরার পথ নেই।

ঢাকার জনসংখ্যা কমানোর বাস্তবিক কোন পথ খুঁজে পাওয়া মুশকিল। এখন ইন্টারনেট যুগে কর্মসংস্থানের কোন কেন্দ্র নেই। ঢাকায় গিয়ে সরকারি বা কর্পোরেট চাকরি নেয়াটা একসময় হয়তো একটা বাস্তবতা ছিলো। এখন বাংলাদেশের যে কোন জায়গায় বসে সরকারি বা কর্পোরেট চাকরির চেয়ে আনন্দদায়ী অথচ প্রয়োজনীয় উপার্জন জোগানে সক্ষম কাজ করা সম্ভব। আর মেট্রোপলিটান বলতে আধুনিকতম জীবনের যে ধারণাটি রয়েছে সেটির বসবাস এখন নেটিজেন জীবনে। আধুনিকতার বসবাস কেবল মনে। ভূমি-বাস্তবতায় এর কোন গেঁড়ে বসা ঠিকানা নেই। জীবনের একচুয়ালাইজেশানের সময়ে এসে অনেকটা নিশ্চিতভাবেই বলা যায়, আমাদের যেসব বন্ধুরা গ্রামে ও ছোট শহরগুলোতে থেকে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছিলো; তারাই যাপনযোগ্য জীবন পেয়েছে।

আর সবচেয়ে আগ্রহ উদ্দীপক ব্যাপার হলো, পশ্চিমের মানুষেরা এখন বড় শহরে বসবাস না করে ছোট শহর ও গ্রামে গিয়ে বসবাসের সিদ্ধান্ত নিয়েছে। ইন্টারনেট এসে যাবার ফলে ভৌগলিক অবস্থানের গুরুত্ব অপসৃয়মান। পৃথিবীর সবচেয়ে অনাধুনিক লোকেরাই এখনো মেট্রোপলিটানের “ইঁদুর দৌড়কে” জীবনের ধ্রুবতারা বানিয়ে চরকির মতো ঘুরছে। এ অনেকটা আমার হলো সারা আর তোমার হলো শুরু যেন। মেট্রোপলিটানের জীবন্মৃত জীবনের জুয়া খেলায় অনেক কিছু পেতে গিয়ে “জীবনটা খুইয়ে” ফেলার ট্র্যাজেডি থেকে খুব দ্রুত শিক্ষা নিয়ে নিয়েছে সচেতন মানুষেরা। আর যারা অসচেতন; তারা বেশ গাল ফুলিয়ে ট্রাফিক জ্যামে বসে কবে ছুটি কবে একটু নির্জনতার কাছে যাওয়া যাবে সেই অপেক্ষা করে; নিজেকে প্রবোধ দিতে মনে মনে সাফল্যের তুলনামূলক সরল অংক কষে। ট্রাফিক জ্যামে বসে সরল অংক কষলে ফলাফল ভুল আসবে বলাই বাহুল্য। কারণ জীবনের সরল অংক মেলাতে নির্জনতা লাগে; লাগে সবুজের অনুপ্রেরণা।

মাসকাওয়াথ আহসান

মাসকাওয়াথ আহসান: ব্লগার ও প্রবাসী সাংবাদিক

 


সর্বশেষ

আরও খবর

পাপিয়ার মদদদাতা থাকলে তাদেরকেও ছাড় নয়ঃ ওবায়দুল কাদের

পাপিয়ার মদদদাতা থাকলে তাদেরকেও ছাড় নয়ঃ ওবায়দুল কাদের


পাপিয়ার বিরুদ্ধে ৩ মামলার কোথাও ‘অসামাজিক কার্যকলাপ’ নেই!

পাপিয়ার বিরুদ্ধে ৩ মামলার কোথাও ‘অসামাজিক কার্যকলাপ’ নেই!


করোনাভাইরাসঃ সংক্রামণ বাড়ছে ২৯ দেশেই, মৃতের সংখ্যা বেড়ে ২,৬১৯

করোনাভাইরাসঃ সংক্রামণ বাড়ছে ২৯ দেশেই, মৃতের সংখ্যা বেড়ে ২,৬১৯


খালেদার স্বাস্থ্য প্রতিবেদন চেয়েছেন হাইকোর্ট, ২৭ ফেব্রুয়ারি আদেশ

খালেদার স্বাস্থ্য প্রতিবেদন চেয়েছেন হাইকোর্ট, ২৭ ফেব্রুয়ারি আদেশ


করোনাভাইরাসঃ ছড়িয়ে গেছে  ২৯ দেশে, মৃতের সংখ্যা বেড়ে ২,৪৬১

করোনাভাইরাসঃ ছড়িয়ে গেছে ২৯ দেশে, মৃতের সংখ্যা বেড়ে ২,৪৬১


বিশেষ মিশনে ঢাকায় আসা জিসানের ‘ডানহাত’ শাকিল গ্রেপ্তার

বিশেষ মিশনে ঢাকায় আসা জিসানের ‘ডানহাত’ শাকিল গ্রেপ্তার


বান্দরবানে সন্ত্রাসী হামলায় আওয়ামী লীগ নেতাসহ ২ জন নিহত

বান্দরবানে সন্ত্রাসী হামলায় আওয়ামী লীগ নেতাসহ ২ জন নিহত


এবার কচুরিপানার ‘ফুড ভ্যালু’ পরীক্ষার খবর দিলেন বাণিজ্যমন্ত্রী

এবার কচুরিপানার ‘ফুড ভ্যালু’ পরীক্ষার খবর দিলেন বাণিজ্যমন্ত্রী


চাঁদাবাজির সময় দুই ঢাবি ছাত্র হাতেনাতে আটক

চাঁদাবাজির সময় দুই ঢাবি ছাত্র হাতেনাতে আটক


বিএনপি’র মিছিলে পুলিশের লাঠিচার্জ, রিজভীসহ আহত ১০

বিএনপি’র মিছিলে পুলিশের লাঠিচার্জ, রিজভীসহ আহত ১০