Saturday, July 16th, 2016
যে কারণে ব্যর্থ তুর্কি সেনা অভ্যুত্থান
July 16th, 2016 at 7:23 pm
যে কারণে ব্যর্থ তুর্কি সেনা অভ্যুত্থান

আংকারা: তুরস্কের বেশ কয়েকটি গুরুত্বপূর্ণ ভবন নিয়ন্ত্রণে নিয়ে তুর্কি সেনাবাহিনীর একটি অংশ শুক্রবার রাতে জাতীয় সম্প্রচারমাধ্যমে ক্ষমতা দখলের ঘোষণা দিয়ে দেশজুড়ে সামরিক শাসন জারি করে।

এরপরে তুরস্কের সরকারের পক্ষ থেকেও যখন দাবি করা হয় তাদের হাতেই ক্ষমতা আছে তখন বিশ্বগণমাধ্যমগুলি বেশ দ্বন্দ্বে পড়ে যায়। তাদের বেশিরভাগেরই শিরোনাম ছিল, ক্ষমতার নিয়ন্ত্রণ নিয়ে সাংঘর্ষিক বক্তব্য পাওয়া যাচ্ছে।

কিন্তু পরবর্তীকালে প্রেসিডেন্ট এর্দোয়ান যখন দৃশ্যপটে হাজির হন তখনই ভোজবাজির মত সবকিছু বদলে যেতে থাকে। জয়ের পাল্লা প্রেসিডেন্টের দিকেই ঝুঁকে পড়তে থাকে।তুর্কি সেনা অভ্যুত্থান ব্যর্থ হওয়ার কারণগুলি দেখে নেয়া যাক।

turkey coup  failed 2

তুরস্কের রাজধানী আংকারা এবং সবচেয়ে বড় শহর ইস্তাম্বুলের প্রধান স্থাপনাগুলোতে প্রথমদিকে সেনাবাহিনীর বিদ্রোহী গ্রুপের দৃশ্যমান উপস্থিতি ছিল।তারা টেলিভিশন চ্যানেলগুলো দখল করে নেয় এবং সম্প্রচার বন্ধ করে দেয়।
অভ্যুত্থান চেষ্টা শুরু হওয়ার সঙ্গে সঙ্গেই প্রধানমন্ত্রী বিনালি ইলদিরিম তা প্রতিরোধের চেষ্টা করেন।

এ সময় প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়িপ এর্দোয়ান রাজধানীতে ছিলেন না। তিনি দেশটির দক্ষিণ-পূর্ব উপকূলে অবকাশ যাপন করছিলেন। কিন্তু কয়েকঘন্টার মধ্যেই মোবাইল ফোনে ভিডিও সাক্ষাৎকারের মাধ্যমে তিনি জনগণকে রাস্তায় নেমে প্রতিরোধের আহ্বান জানান।

শনিবার সকালের আগেই ইস্তানবুলের আতাতুর্ক বিমানবন্দরে নেমে প্রেসিডেন্ট সমর্থকদের উদেশ্যে বক্তৃতা করেন এবং দেশবাসীকে জানান ক্ষমতার নিয়ন্ত্রণ তার হাতেই রয়েছে। তুর্কি প্রধানমন্ত্রী এবং প্রেসিডেন্ট অভ্যুত্থানে জড়িতদের চড়ামূল্য দিতে হবে বলে হুঁশিয়ার করে দিয়েছিলেন।তখনো আংকারার নিয়ন্ত্রণ অভ্যুত্থানকারীদের হাতে ছিল কিন্তু ইস্তানবুল তাদের হাত ছাড়া হয়ে যায়।

turkey coup  failed 3

মূলত প্রেসিডেন্ট এর্দোয়ানের ডাকে সাড়া দিয়ে আসা জনগণের কারণেই এই যাত্রায় তুর্কি প্রেসিডেন্ট রক্ষা পেয়ে গেলেন।তার আহ্বানে হাজার হাজার মানুষ অভ্যুত্থানকারীদের জারি করা কারফিউ উপেক্ষা করে ইস্তানবুল আর আংকারার রাস্তায় নেমে আসে। বিমানবন্দরে অবস্থান করে থাকা সেনাদের ঘেরাও করে পুরো বিমানবন্দর দখল করে নেয় তারা।

যদিও রাষ্ট্রীয় টেলিভিশন টিআরটি থেকে অভ্যুত্থানকারীরা বেশ কিছু ঘোষণা প্রচার করেছিল। তারা কারফিউ জারি করেছিল। কিন্তু সেটি কার্যকর করতে ব্যর্থ হয়।অভ্যুত্থানকারীদের নিয়ন্ত্রণ ক্রমশ শিথিল হতে থাকে। অভ্যুত্থানকারীরা রাস্তায় অনেক ট্যাংক নামাতে পেরেছিল, তারা ইস্তানবুলের বসফোরাস প্রণালীর ওপরের ব্রিজ বন্ধ করে দিতে পেরেছিল।কিন্তু অভ্যুত্থান সফল হতে হলে পুরো সেনাবাহিনীর যে ব্যাপক সমর্থনের দরকার ছিল তা অর্জন করতে ব্যর্থ হয়েছে বিদ্রোহী অফিসাররা।

এদিকে তুর্কি সেনা প্রধান জেনারেল গুল হুলুসি আকার এই অভ্যুত্থানের সঙ্গে জড়িত ছিলেন না।বিদ্রোহীরা তাকে আংকারার বাইরে একটি বিমানঘাঁটিতে আটকে রাখে।পরবর্তীকালে সরকারের অনুগতবাহিনী তাকে উদ্ধার করতে সক্ষম হয়। এছাড়া ইস্তাম্বুলের সেনা ডিভিশন, তার অধিনায়কও এই অভ্যুত্থান সমর্থন করেন নি।

turkey coup  failed 4

নৌবাহিনী প্রধান এবং বিশেষবাহিনীর প্রধানও অভ্যুত্থানের বিরোধিতা করেন। এফ-সিক্সটিন জঙ্গি বিমান থেকে অভ্যুত্থানকারীদের অবস্থানে বিমান হামলাও চালানো হয়। ব্রিটেনের একটি থিংক ট্যাংক চ্যাথাম হাউজের ফাদি হাকুরা জানান, এই অভ্যুত্থান আসলে শুরু হওয়ার আগেই ব্যর্থ হয়। এদের পেছনে না ছিল রাজনৈতিক সমর্থন, না ছিল জনগণের সমর্থন।

বিদ্রোহী সেনাদের অভ্যুত্থানের চেষ্টাকালেই মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা নির্বাচিত সরকারকে সমর্থন করার জন্য তুরস্কের বিরোধীদলগুলোর প্রতি আহ্বান জানান।দেশটির বিরোধীদলগুলোও শুরুতেই জানিয়ে দেয়, তারা এই অভ্যুত্থানের সঙ্গে নেই। ধর্মনিরপেক্ষ সিএইচপি, জাতীয়তাবাদীদল এমএইচপি সবাই সরকারকে সমর্থন জানায়।

প্রথমদিকে তুর্কি প্রেসিডেন্ট এই হামলার জন্য মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে অবস্থান করা তুর্কি ধর্মীয় নেতা ফেতুল্লা গুলেনকে দায়ী করলেও পরবর্তীকালে জানা গেছে, ইস্তানবুলের সেনাবাহিনীর একটি অংশ এই অভ্যুত্থান ঘটানোর চেষ্টা করে।

সূত্র: বিবিসি

নিউজনেক্সটবিডিডটকম/এফকে


সর্বশেষ

আরও খবর

করোনায় আরও ৩০ জনের মৃত্যু, ৭৮ দিনের মধ্যে সর্বোচ্চ শনাক্ত

করোনায় আরও ৩০ জনের মৃত্যু, ৭৮ দিনের মধ্যে সর্বোচ্চ শনাক্ত


ঢাবি ছাত্রী ধর্ষণ মামলায় মজনুর যাবজ্জীবন কারাদণ্ড

ঢাবি ছাত্রী ধর্ষণ মামলায় মজনুর যাবজ্জীবন কারাদণ্ড


ব্রিটেনে অবৈধ মাইগ্রেন্ট ঠেকাতে রাইট টু লেট্ অনলাইন চেক পদ্ধতি ২৫ নভেম্বর থেকে নতুন নিয়মে বাড়ী ভাড়া

ব্রিটেনে অবৈধ মাইগ্রেন্ট ঠেকাতে রাইট টু লেট্ অনলাইন চেক পদ্ধতি ২৫ নভেম্বর থেকে নতুন নিয়মে বাড়ী ভাড়া


আনিসুল হত্যা: মানসিক স্বাস্থ্য ইন্সটিটিউটের রেজিস্ট্রার গ্রেপ্তার

আনিসুল হত্যা: মানসিক স্বাস্থ্য ইন্সটিটিউটের রেজিস্ট্রার গ্রেপ্তার


পাওয়ার গ্রিডের আগুনে বিদ্যুৎ-বিচ্ছিন্ন পুরো সিলেট, ব্যাপক ক্ষতি

পাওয়ার গ্রিডের আগুনে বিদ্যুৎ-বিচ্ছিন্ন পুরো সিলেট, ব্যাপক ক্ষতি


দুবাই পাচারকালে হিথ্রো বিমানবন্দরে ১২ লক্ষ পাউন্ড সহ দুই চেকরিপাবলিক নাগরিককে আটক করেছে ব্রিটিশ ইমিগ্রেশন

দুবাই পাচারকালে হিথ্রো বিমানবন্দরে ১২ লক্ষ পাউন্ড সহ দুই চেকরিপাবলিক নাগরিককে আটক করেছে ব্রিটিশ ইমিগ্রেশন


দুইদিনের বিক্ষোভের ডাক বিএনপির

দুইদিনের বিক্ষোভের ডাক বিএনপির


অবশেষে পাঁচ বছর পর নেপালকে হারালো বাংলাদেশ

অবশেষে পাঁচ বছর পর নেপালকে হারালো বাংলাদেশ


অবশেষে গ্রেফতার হলো এসআই আকবর

অবশেষে গ্রেফতার হলো এসআই আকবর


থাইল্যান্ডে সেলিম প্রধানের ৭টি কোম্পানির খোঁজ পেয়েছে দুদক

থাইল্যান্ডে সেলিম প্রধানের ৭টি কোম্পানির খোঁজ পেয়েছে দুদক