Tuesday, June 21st, 2016
দুই জঙ্গীর স্বীকারোক্তি
June 21st, 2016 at 11:53 pm
দুই জঙ্গীর স্বীকারোক্তি

ডেস্ক: ঢাকা ও ঝিনাইদহে একই দিনে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন দুই জঙ্গী। অপরাধ স্বীকার করে ঢাকার আদালতে জবানবন্দি দিয়েছেন শুদ্ধস্বরের প্রকাশক আহমেদুর রশীদ টুটুল হত্যাচেষ্টায় গ্রেফতার সুমন হোসেন পাটোয়ারি (২০)। অন্যদিকে ঝিনাইদহে জবানবন্দি দিয়েছেন পুরোহিত আনন্দ গোপাল গাঙ্গুলী হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় গ্রেপ্তার হওয়া এনামুল হক (২৫)।

ঢাকা মহানগর হাকিম আহসান হাবিবের খাস কামরায় মঙ্গলবার দুপুর থেকে বিকাল পর্যন্ত সুমনের জবানবন্দি রেকর্ড করা হয় বলে জানিয়েছেন সংশ্লিষ্ট আদালত। পুলিশের সাধারণ নিবন্ধন কর্মকর্তা এসআই কুতুবুল আলম জবানবন্দি নেয়ার পরে বিচারক তাকে কারাগারে পাঠান।

গত বছর ৩১ অক্টোবর রাজধানীর লালমাটিয়ায় শুদ্ধস্বর কার্যালয়ে ঢুকে টুটুলকে হত্যাচেষ্টার ঘটনায় গত ১৫ জুন রাতে ঢাকার উত্তরা থেকে গ্রেপ্তার করা হয় সুমনকে (২০)। নিষিদ্ধ জঙ্গি সংগঠন আনসারুল্লাহ বাংলা টিমের এই সদস্য সিহাব, সাকিব, সাইফুল নামেও পরিচিত বলে পুলিশ জানিয়েছে।

লালমাটিয়ায় শুদ্ধস্বরের কার্যালয়ে টুটুলের উপরের হামলার সময় সেখানে তার সঙ্গে থাকা ব্লগার তারেক রহিম ও রণদীপম বসুকেও কুপিয়ে জখম করা হয়। টুটুলের উপর হামলার পর সুমন চট্টগ্রামে গিয়ে একটি ওষুধের দোকানের বিপণন কর্মকর্তা হিসেবে চাকরি করছিলেন বলে জানিয়েছে পুলিশ। আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর তথ্য অনুযায়ী, সুমনের বাড়ি চাঁদপুরে হলেও তিনি বড় হয়েছেন চট্টগ্রামের হালিশহরে। উচ্চ মাধ্যমিক পর্যন্ত লেখাপড়া করেছিলেন তিনি।

ওদিকে সোমবার দিবাগত রাত দুইটার দিকে ঢাকার গাবতলী থেকে এনামুলকে গ্রেপ্তার করা হয়। মঙ্গলবার বিকেল চারটার দিকে ঝিনাইদহের অতিরিক্ত মুখ্য বিচারিক হাকিম ফাহমিদা জাহাঙ্গীরের আদালতে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেন এনামুল। রাত আটটার দিকে ঝিনাইদহ পুলিশ সুপার আলতাফ হোসেন এক প্রেস ব্রিফিংয়ে এসব কথা জানিয়েছেন।

পুলিশ সুপার আলতাফ হোসেন প্রেস ব্রিফিংয়ে জানান, পুরোহিত আনন্দ গোপাল হত্যার পর তাঁরা বিভিন্নভাবে হত্যাকারীদের শনাক্ত ও গ্রেপ্তারে চেষ্টা করে যাচ্ছিলেন। এরই মধ্যে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে হত্যার সঙ্গে জড়িত এনামুল হককে সোমবার রাতে ঢাকার গাবতলী এলাকা থেকে গ্রেপ্তার করা হয়। পুলিশ সুপার বলেন, এনামুল হক জানিয়েছেন, পুরোহিত হত্যা মিশন সফল করতে কেন্দ্রীয় শিবিরের নির্দেশে ঝিনাইদহে সাতজন নেতা বৈঠক করেন। এর মধ্যে তিনজন হত্যার মিশনে অংশ নেন।

পুলিশের ভাষ্যমতে, ঝিনাইদহ সদর উপজেলার কালুহাটি গ্রামে হোমিও চিকিৎসক সমির উদ্দীন খাজা এবং কালীগঞ্জের চাপালী গ্রামের শিয়া মতাদর্শে বিশ্বাসী আবদুর রাজ্জাক হত্যার সঙ্গেও ছাত্রশিবির জড়িত বলে তথ্য পাওয়া গেছে। অন্যান্য আসামিদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

উল্লেখ্য, গত ৭ জুন সকাল নয়টার দিকে ঝিনাইদহ সদর উপজেলার কারাতিপাড়া গ্রামের বাসিন্দা পুরোহিত আনন্দ গোপাল গাঙ্গুলীকে সন্ত্রাসীরা কুপিয়ে ও গলা কেটে হত্যা করে। ওই সময় তিনি বাড়ি থেকে বাইসাইকেল যোগে নলডাঙ্গা বাজারের দিকে যাচ্ছিলেন। পথে মহিষের ভাগার এলাকায় তাঁকে হত্যা করা হয়।

নিউজনেক্সট ডটকম/এসকে/এসকেএস


সর্বশেষ

আরও খবর

সহিংসতায় নিহত ৬ রোহিঙ্গা, ইউএন বলছে ৭

সহিংসতায় নিহত ৬ রোহিঙ্গা, ইউএন বলছে ৭


ইকবালকে জেরা করছে পুলিশ, সারাদেশে গ্রেফতার ৫৮৪

ইকবালকে জেরা করছে পুলিশ, সারাদেশে গ্রেফতার ৫৮৪


কুমিল্লার মণ্ডপে কোরআন রাখা ব্যক্তি শনাক্ত

কুমিল্লার মণ্ডপে কোরআন রাখা ব্যক্তি শনাক্ত


কুমিল্লার মূল অভিযুক্ত পালিয়ে বেড়াচ্ছে, দ্রুতই গ্রেপ্তার: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

কুমিল্লার মূল অভিযুক্ত পালিয়ে বেড়াচ্ছে, দ্রুতই গ্রেপ্তার: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী


হামলায় জড়িতদের বিরুদ্ধে দ্রুত ব্যবস্থা নিতে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশ

হামলায় জড়িতদের বিরুদ্ধে দ্রুত ব্যবস্থা নিতে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশ


দেবীগঞ্জের অগ্নিকাণ্ড নিছক দূর্ঘটনা: ইউএনও

দেবীগঞ্জের অগ্নিকাণ্ড নিছক দূর্ঘটনা: ইউএনও


সাম্প্রদায়িক নৈরাজ্যে আক্রান্ত ২৩ জেলা

সাম্প্রদায়িক নৈরাজ্যে আক্রান্ত ২৩ জেলা


ওয়েবসাইট বন্ধ করে দিয়েছে ইভ্যালি কর্তৃপক্ষ

ওয়েবসাইট বন্ধ করে দিয়েছে ইভ্যালি কর্তৃপক্ষ


ময়মনসিংহে সড়ক দুর্ঘটনায় ৭ জনের মৃত্যু

ময়মনসিংহে সড়ক দুর্ঘটনায় ৭ জনের মৃত্যু


পেঁয়াজের আমদানি শুল্ক প্রত্যাহার করলো জাতীয় রাজস্ব বোর্ড

পেঁয়াজের আমদানি শুল্ক প্রত্যাহার করলো জাতীয় রাজস্ব বোর্ড