Saturday, August 27th, 2016
ধর্মঘটে বাড়ছে অপেক্ষমান জাহাজের সংখ্যা
August 27th, 2016 at 3:40 pm
ধর্মঘটে বাড়ছে অপেক্ষমান জাহাজের সংখ্যা

চট্টগ্রাম: নৌ শ্রমিকদের ধর্মঘটের কারণে টানা ৫দিন লাইটারেজ জাহাজ পণ্য খালাস না করায় চট্টগ্রাম বন্দরের বহি: নোঙ্গরে শুক্রবার রাত পর্যন্ত ৫০টি বড় জাহাজ বিভিন্ন ধরনের পণ্য নিয়ে অপেক্ষায় রয়েছে। প্রতিদিনই বাড়ছে অপেক্ষামান জাহাজের সংখ্যা।

বন্দর কর্তৃপক্ষ জানায়, অপেক্ষায় থাকা ৫০টি মাদার ভেসেলে কমপক্ষে ১৮ লাখ টন বিভিন্ন ধরনের পণ্য রয়েছে। যার মধ্যে উল্লেখযোগ্য পরিমানে রয়েছে চিনি, গম, সয়াবিন, ক্লিংকার ও বিলেট। টানা ৫দিন বহি: নোঙ্গরে পণ্য খালাস না হওয়ায় দেশের প্রধান সমুদ্র বন্দর চট্টগ্রাম বন্দর প্রায় ৭০ শতাংশ অচল হয়ে পড়েছে। চট্টগ্রাম বন্দরে বছরে যে ৬ কোটি টন পণ্য খালাস হয় তার মধ্যে ৪ কোটি টনের বেশি খালাস হয় বহি: নোঙ্গরে।

বহি: নোঙ্গরের বড় জাহাজ থেকে পণ্য নিয়ে লাইটারেজ জাহাজ দেশের বিভিন্ন গন্তব্যে সরাসরি চলে যায়। আর কিছু পরিমাণ কর্ণফুলী চ্যানেল দিয়ে চট্টগ্রামের অভ্যন্তরে আসে।

আমদানি পণ্যের এমন অবস্থা হলেও কিছুটা স্বস্তি রয়েছে রফতানি পণ্যের ক্ষেত্রে। লাইটারেজ জাহাজ চলাচল না করায় কিছু পরিমান রফতানি পন্যও জাহাজে তোলা যাচ্ছেনা। তবে, সবচেয়ে বড় রফতানিখাত তৈরি পোষাক জাহাজীকরণে এখন পর্যন্ত তেমন সমস্যা হচ্ছেনা বলে বিজিএমইএ সূত্রে জানা গেছে।

প্রতিষ্ঠানটির চট্টগ্রাম অফিসের কর্মকর্তারা জানান, তৈরি পোষাক রফতানি হয় কন্টেইনার ভর্তি হয়ে, এসব কন্টেইনার বন্দরের জেটি থেকে সরাসরি জাহাজে উঠে সিঙ্গাপুর হয়ে চলে যাচ্ছে বিশ্বের বিভিন্ন গন্তব্যে। বন্দরের জেটিগুলোতে রফতানি পোশাক ভর্তি প্রতিদিন তিন থেকে সাড়ে তিন হাজার  টিইউএস একক কন্টেইনার জাহাজে উঠছে , যা স্বাভবিক সময়ের মতো।

বিজিএমই চট্টগ্রাম অফিসের কর্মকর্তা মোহাম্মদ আজিজ জানান, প্রায় শতভাগ তৈরি পোশাক কন্টেইনারে রফতানি হয়, কন্টেইনারগুলো সমুদ্রগামী জাহাজ থেকে জেটিতে উঠানামা করায় নৌ ধর্মঘটে এর প্রভাব পড়ার সুযোগ নেই।

চট্টগ্রাম বন্দরের পরিচালক প্রশাসন জাফর আলম জানান, বহি: নোঙ্গরে চলমান অচলাবস্থা আরো দীর্ঘায়িত হলে পরিস্থিতি জটিল আকার ধারণ করতে পারে। কারণ বর্তমানের ১৮ থেকে ২০ লাখ টন পণ্য নিজস্ব সামর্থে স্বাভাবিকভাবে খালাস করা সম্ভব হবে। তবে, অপেক্ষমান জাহাজের সংখ্যা আরো বৃদ্ধি পেলে আমদানিকারকরা স্বাভাবিক সময়ের মতো দ্রুত গতিতে পণ্য ডেলিভারী নিতে পারবেনা।

জাফর আলম বলেন, ‘এভাবে অচলাবস্থা চললেও বন্দর কর্তৃপক্ষের কিছু করার নেই। এটি শ্রমিক, জাহাজ মালিক ও সরকারের বিষয় এই ব্যাপারে সিদ্ধান্ত না নিলে জাতীয়ভাবে ক্ষতির সম্মুখীন হতে হবে।’

নূন্যতম বেতন বৃদ্ধি এবং নৌপথের নিরাপত্তাসহ চার দফা দাবিতে মঙ্গলবার থেকে সারাদেশে অনিদির্ষ্টকালের ধর্মঘট শুরু করে বাংলাদেশ নৌযান শ্রমিক ফেডারেশান। তবে, জ্বালানি তেল পরিবহনকে এই ধর্মঘটের আওতার বাইরে রাখা হয়।

প্রতিবেদন: সালেহ নোমান, সম্পাদনা: আইরিন রবি


সর্বশেষ

আরও খবর

ফ্রান্সে ছুরি হামলায় ৩ জন নিহত

ফ্রান্সে ছুরি হামলায় ৩ জন নিহত


শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ছুটি বাড়ল ১৪ নভেম্বর পর্যন্ত

শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ছুটি বাড়ল ১৪ নভেম্বর পর্যন্ত


কাউন্সিলর পদ থেকে বরখাস্ত হচ্ছেন ইরফান সেলিম

কাউন্সিলর পদ থেকে বরখাস্ত হচ্ছেন ইরফান সেলিম


বিশ্বে করোনায় মৃত্যু ছাড়াল সাড়ে ১১ লাখ

বিশ্বে করোনায় মৃত্যু ছাড়াল সাড়ে ১১ লাখ


করোনা: আরও ২৩ মৃত্যু, শনাক্ত ১৩০৮

করোনা: আরও ২৩ মৃত্যু, শনাক্ত ১৩০৮


সেনাপ্রধান ফেইসবুকে নেই: আইএসপিআর

সেনাপ্রধান ফেইসবুকে নেই: আইএসপিআর


ধর্ষণের সাজা মৃত্যুদণ্ডের চূড়ান্ত অনুমোদন

ধর্ষণের সাজা মৃত্যুদণ্ডের চূড়ান্ত অনুমোদন


করোনায় আরও ১৯ জনের মৃত্যু

করোনায় আরও ১৯ জনের মৃত্যু


বনানী কবরস্থানে চিরনিদ্রায় শায়িত ব্যারিস্টার রফিক-উল হক

বনানী কবরস্থানে চিরনিদ্রায় শায়িত ব্যারিস্টার রফিক-উল হক


সাগরে ৪ নম্বর সংকেত, বৃষ্টি অব্যাহত থাকবে আরও দুই দিন

সাগরে ৪ নম্বর সংকেত, বৃষ্টি অব্যাহত থাকবে আরও দুই দিন