Friday, December 30th, 2016
পর্যটন মৌসুমে পোশাক শিল্পে রমরমা পসরা
December 30th, 2016 at 12:36 pm
পর্যটন মৌসুমে পোশাক শিল্পে রমরমা পসরা

রাঙামাটি: প্রকৃতির ঘুরপাকে আবারো এলো শীত। শীতকালীন সময়ে পর্যটকের পদচারণায় মুখরিত হয় রাঙামাটির পর্যটন স্পটগুলো। এমনকি তার প্রভাব ঠিক টেক্সটাইল শিল্পেও ফেলে। অন্য সময়ের তুলনায় পর্যটন মৌসুমে পাহাড়ি পোশাক-আকাশ ও বার্মিজ পণ্যে ক্রেতার চাহিদা বেড়ে যায়। দেখা যায়, অন্য সময়ের তুলনায় প্রায় তিনগুণ বৃদ্ধি হয় বেচাকেনা।

ঢাকা থেকে আসা কয়েকজন পর্যটক জানায়, শীতকালীন সময়ে বেড়াতে এসে মায়ের জন্য পাহাড়ি বার্মিজ চাদর কিনে নিলাম। দামটা ঠিক নাগালের ভিতরই আছে। তবে এখানে অনেক রকম বার্মিজ পোশাক আছে, যেগুলো চাইলেও সবখানে পাওয়া যায় না। তাই স্ত্রীর জন্য একটা ভ্যানিটি ব্যাগ, বাবার জন্য ফতুয়া কিনে নিলাম।

আরেকজন ক্রেতা জানান, আমি কিছু তাঁতের কাপড় কিনলাম। নিজের জন্য কিছু না নিলেও পরিবারের সবার জন্য ক্রয় করলাম। তবে দামটা অন্য সময়ের তুলনায় কিছুটা বেশি।

তবলছড়ি টেক্সটাইল মার্কেট ঘুরে ফিরে দেখা যায়, অন্য সময়ের তুলনায় বর্তমানে বেচাকেনায় ব্যস্ত সময় পার করছেন তারা।

বনানী টেক্সটাইলের বিক্রেতা রিপা চাকমা জানালেন, পর্যটন মৌসুম আসাতে কয়েকদিন ধরেই ভালই ব্যবসা হচ্ছে। দৈনিক প্রায় ৪০ থেকে ৫০ হাজার টাকার মত বিক্রি হয়।

রিপা চাকমা আরো জানান, আমাদের কাস্টমার সাধারণত পর্যটকরাই। তবে স্থানীয়রাও কম বেশি কিনছেন। আর পোশাক আমাদের কারখানাতেই তৈরি হয়। তবে কিছু পণ্য বার্মা থেকে আসে। তারমধ্যে চন্দন, সাবানটাই বেশি।

রাঙাবি টেক্সটাইলের বিক্রেতা জেসমিন চাকমা জানান, প্রতিদিন প্রায় ৩০-৫০ হাজার টাকা বিক্রি হয়। তবে অন্য সময়ের তুলনায় এখন বেনাকেনার চাপ বেশি। নিজস্ব কারখানার কারণে চাহিদা অনুযায়ী পণ্যের কমতি নেই। দামটা ঠিক আগের মতই রাখা হচ্ছে।

প্রতিবেদন: প্রান্ত রনি, সম্পাদনা: মাহতাব শফি


সর্বশেষ

আরও খবর

ফটোগ্রাফিক এসোসিয়েশনে নতুন নেতৃত্ব নির্বাচনের আহ্ববান

ফটোগ্রাফিক এসোসিয়েশনে নতুন নেতৃত্ব নির্বাচনের আহ্ববান


একদিনেই সড়কে ঝড়ল ১৯ প্রাণ

একদিনেই সড়কে ঝড়ল ১৯ প্রাণ


নামাজ পড়ানোর সময় সিজদারত অবস্থায় ইমামের মৃত্যু

নামাজ পড়ানোর সময় সিজদারত অবস্থায় ইমামের মৃত্যু


ডুবে যাওয়ার ২৫ ঘণ্টা পর মিলল লাশ

ডুবে যাওয়ার ২৫ ঘণ্টা পর মিলল লাশ


সোনারগাঁয়ে দুই বাসের রেষারেষিতে প্রাণ গেল ৩ পথচারীর

সোনারগাঁয়ে দুই বাসের রেষারেষিতে প্রাণ গেল ৩ পথচারীর


করোনা নিয়ন্ত্রণে বাংলাদেশের সুনাম বেড়েছে, দাবি স্বাস্থ্যমন্ত্রীর

করোনা নিয়ন্ত্রণে বাংলাদেশের সুনাম বেড়েছে, দাবি স্বাস্থ্যমন্ত্রীর


ভোট শান্তিপূর্ণ হয়েছে: ইসি সচিব; অংশগ্রহণমূলক হয়নি: নির্বাচন কমিশনার

ভোট শান্তিপূর্ণ হয়েছে: ইসি সচিব; অংশগ্রহণমূলক হয়নি: নির্বাচন কমিশনার


বৌভাতের খাবারে মাংস কম দেয়ায় সংঘর্ষ, নিহত ১

বৌভাতের খাবারে মাংস কম দেয়ায় সংঘর্ষ, নিহত ১


লাকিংমে বরং সৎকারহীনই থাক!

লাকিংমে বরং সৎকারহীনই থাক!


রাজশাহীতে মদপানে ৩ জনের মৃত্যু, ২ জন সঙ্কটাপন্ন

রাজশাহীতে মদপানে ৩ জনের মৃত্যু, ২ জন সঙ্কটাপন্ন