Tuesday, November 8th, 2016
প্রবীণ মুক্তিযোদ্ধাকে নির্বিচারে মারধর (ভিডিও)
November 8th, 2016 at 12:43 pm
প্রবীণ মুক্তিযোদ্ধাকে নির্বিচারে মারধর (ভিডিও)

ঢাকা: প্রবীণ এক মুক্তিযোদ্ধা একটি দোকানের সামনে চেয়ারে বসে আছেন। হঠাৎ কয়েকজন যুবক লোহার রড, লাঠি নিয়ে এসে তাকে নির্বিচারে পেটাতে শুরু করেন। এ সময় দোকানের ভেতরে তিনজন থাকলেও তাদের কেউ এগিয়ে যায়নি ওই প্রবীণ লোকটিকে বাঁচাতে। এক পর্যায়ে লাল টি-শার্ট পরা একটি ছেলে এগিয়ে আসে বৃদ্ধকে সাহায্য করতে। তখন দুর্বৃত্তরা তাকেও মারতে শুরু করে। কিছুক্ষণ ওই ছেলেকে পেটানোর পর আবারো ঘুরে এসে তারা ওই বৃদ্ধকে পেটাতে শুরু করেন।

সোমবার এমনই একটি ভিডিও ভাইরাল হয়ে পড়েছিল সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে। পরে খোঁজ নিয়ে জানা যায়, ভিডিওটি ঝিনাইদহের শৈলকূপার ওই দোকানের ক্লোজ সার্কিট ক্যামেরার। ভিডিওতে মার খাওয়া প্রবীণ লোকটি একজন মুক্তিযোদ্ধা, শুধু তাই নয় মুক্তার আহমেদ মৃধা নামের ওই ব্যক্তি জেলা আওয়ামী লীগের সদস্য এবং সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান।

পরিচয় পাওয়া গেছে হামলাকারীদেরও। তারা হলেন, উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক শাওন সিকদার, যাদব, রিপন, সুমন ও সাচ্চু। এরা সবাই জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আব্দুল হাই এমপি এবং শৈলকূপা উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি সোনা সিকদারের অনুসারী।

আক্রান্ত মুক্তার মৃধার ছেলে সুমন মৃধা জানান, ঘটনাটি গত ১৮ অক্টোবর সন্ধ্যা ৭টার। যারা মুক্তিযোদ্ধা মুক্তারের উপর হামলা চালান তারা সবাই ক্ষমতাসীন জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আব্দুল হাই এমপি এবং শৈলকূপা উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি সোনা সিকদারের অনুসারী।

তিনি আরো জানান, ঘটনার পর ১০ জনকে আসামি করে একটি মামলা করেছিলাম। পুলিশ তাদের গ্রেফতারও করেছিল। কিন্তু মাত্র পাঁচ দিনের মাথায় জেলা জজ আদালত থেকে জামিন পেয়ে বর্তমানে তারা মুক্ত রয়েছেন।

মুক্তার মৃধার বর্তমান অবস্থা জানতে চাইলে সুমন বলেন, বাবার হাতের অবস্থা খুব খারাপ। কয়েক জায়গায় ভেঙে গেছে। রড ঢুকে গিয়ে মারাত্মক ক্ষত তৈরি হয়েছে। এর আগে এক দফা অস্ত্রোপচার হয়েছিল। মঙ্গলবার হাতে দ্বিতীয় দফায় অস্ত্রোপচার হবে।

প্রতিবেদন: প্রীতম সাহা সুদীপ, সম্পাদনা: মাহতাব শফি


সর্বশেষ

আরও খবর

আসামে বন্দী রোহিঙ্গা কিশোরীকে কক্সবাজারে চায় পরিবার

আসামে বন্দী রোহিঙ্গা কিশোরীকে কক্সবাজারে চায় পরিবার


ছয় দিনে নির্যাতিত অর্ধশত সাংবাদিক: মামলা নেই, কাটেনি আতঙ্ক

ছয় দিনে নির্যাতিত অর্ধশত সাংবাদিক: মামলা নেই, কাটেনি আতঙ্ক


ঢাকা-দিল্লি ৫ সমঝোতা স্মারক সই

ঢাকা-দিল্লি ৫ সমঝোতা স্মারক সই


করোনায় আরও ৩৯ মৃত্যু

করোনায় আরও ৩৯ মৃত্যু


করোনায় আক্রান্ত শচীন

করোনায় আক্রান্ত শচীন


নাশকতা ঠেকাতে র‍্যাব-পুলিশের কঠোর অবস্থান

নাশকতা ঠেকাতে র‍্যাব-পুলিশের কঠোর অবস্থান


শুক্র ও শনিবার যান চলাচল নিয়ন্ত্রিত থাকবে

শুক্র ও শনিবার যান চলাচল নিয়ন্ত্রিত থাকবে


মতিঝিলে মোদিবিরোধী বিক্ষোভ, শিশুবক্তা রফিকুলসহ অন্তত ১০ জন আটক

মতিঝিলে মোদিবিরোধী বিক্ষোভ, শিশুবক্তা রফিকুলসহ অন্তত ১০ জন আটক


ঈদের পর স্কুল-কলেজ খোলার ইঙ্গিত শিক্ষামন্ত্রীর

ঈদের পর স্কুল-কলেজ খোলার ইঙ্গিত শিক্ষামন্ত্রীর


৮ মাস পর দেশে করোনায় এক দিনে সর্বোচ্চ ৩৫৫৪ শনাক্ত

৮ মাস পর দেশে করোনায় এক দিনে সর্বোচ্চ ৩৫৫৪ শনাক্ত