Monday, September 19th, 2016
ফুল দিয়ে দায়িত্ব সারলেন ক্রীড়া উপমন্ত্রী!
September 19th, 2016 at 6:20 pm
ফুল দিয়ে দায়িত্ব সারলেন ক্রীড়া উপমন্ত্রী!

ঢাকা: ঘরের মাটিতে চলতি মাসেই এএফসি অনূর্ধ্ব-১৬ এশিয়ান কাপ ফুটবলের বাছাই পর্বে গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হয়ে মূল পর্বে খেলার যোগ্যতা অর্জন করে বাংলাদেশ। মেয়েদের ফুটবল ইতিহাসে এটাই সবচেয়ে বড় প্রাপ্তি লাল-সবুজদের। কিশোরী ফুটবলারদের সফলতায় উদ্বেলিত পুরো জাতি। ঈদের আগেই উৎসবের উপলক্ষ্য এনে দেয়া মার্জিয়া-তহুরাদের নিয়ে উৎফুল্ল স্বয়ং প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। ইতোমধ্যেই মহিলা ফুটবলারদের সহযোগিতায় বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান তাদের পাশে দাঁড়ানোর ঘোষণা দিয়েছে।

পুরুষ ফুটবলে যখন একে একে হতাশা উপহার দিয়ে যাচ্ছে, তখন অনূর্ধ্ব-১৬ মহিলা দলের সফলতায় কিছুটা হলেও আশার আলো খুঁজে পেয়েছে বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন (বাফুফে)। তাইতো মহিলা ফুটবলারদের উৎসাহ দিতে স্থানীয় একটি পাঁচ তারকা হোটেলে আজ সোমবার বিকেলে অনুষ্ঠিত হয় সংবর্ধনা অনুষ্ঠানের। যেখানে চারটি কর্পোরেট কোম্পানির পক্ষ থেকে প্রত্যেক ফুটবলার ও তিন কোচের হাতে নগদ দেড় লাখ টাকা করে তুলে দেয়। বেসরকারী প্রতিষ্ঠান যখন নগদ অর্থ দিয়ে সহযোগিতার হাত বাড়িয়েছে, তখন যুব ও ক্রীড়া উপমন্ত্রী আরিফ খান জয় তার দায়িত্ব সেরেছেন ফুল দিয়ে!

অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকতে পারেননি ক্রীড়া উপমন্ত্রী। মন্ত্রীর পক্ষ হতে তার ছোট ভাই, বাফুফের সদস্য অমিত খান শুভ্র মহিলা ফুটবলারদের হাতে ফুল তুলে দেন। ক্রীড়া উপমন্ত্রীর তরফ হতে এমন পুরস্কার দেখে সবাই বোকা বনে যান। গুঞ্জন উঠে হল রুমেই। অনেকেই বলেন, ‘যেখানে অন্যরা নগদ অর্থ দিয়ে সহযোগিতা করছেন, সেখানে ক্রীড়া উপমন্ত্রী ফুল পাঠিয়ে রসিকতা করেছেন ফুটবলারদের সাথে।’

তাই বাফুফে কিশোরী ফুটবলারদের সংবর্ধনার আয়োজন করে। যেখানে চারটি কর্পোরেট হাউজ আর্থিক অনুদান প্রদান করে দলের প্রত্যেক ফুটবলার ও তিন কোচকে। জেমকন গ্রুপ, সাইফ গ্লোবাল স্পোর্টস ও কাল্ড ওয়েলের পক্ষ থেকে দলের প্রত্যেককে দেড় লক্ষ করে টাকা আর এসএস সলিউশনের পক্ষ থেকে আগামি এক বছর পর্যন্ত প্রতি মাসে মাসিক ভাতা প্রদানের ঘোষণা দেয়া হয় সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে।

এতো টাকা এক সাথে পেয়ে বেশ খুশী সবাই। অভিবাবকরাও অনেকটাই ভারমুক্ত মেয়ের ভবিষ্যত নিয়ে। কৃষ্ণা সরকারের বাবা বাসুদেব সরকারতো বলেই দিলেন, ‘আর্থিক অনটন আমাদের নিত্যসঙ্গী। এতোগুলো টাকা একসাথে পেয়ে বেশ ভালো লাগছে। এ টাকা দিয়ে পরিবারের অভাব কিছুটা হলেও লাঘব হবে। আর ধর্মীয় কাছে কিছু টাকা ব্যয় করতে হবে।’

ধর্মীয় কাজে টাকা ব্যয় করার কারণ হিসেবে বাসুদেব জানালেন, ‘কৃষ্ণা যখন মাঠে নামার প্রস্তুতি নিচ্ছিল, তখন আমি মন্দিরে গিয়ে ভগবানের কাছে মেয়ের জন্য প্রার্থনা করেছিলাম। আর বলেছিলাম মেয়ে যদি ভালো কিছু করতে পারে তাহলে ভগবানের চরণতলে কিছু দান করবো।’

মার্জিয়ার বাবা আব্দুল মোতালেব প্রাপ্ত অর্থ দিয়ে ছোট-খাট একটা ব্যবসা শুরুর পরিকল্পনা করেছেন। এলাকাতেই একটা মুদি দোকান খুলে বসবেন। কিছু দেনা আছে, সেগুলোও পরিশোধ করবেন এ টাকা থেকেই। সন্তানদের পড়ালেখার খরচ নিয়ে এখন আর কোন চিন্তা করতে হবে না বলে জানান মোতালেব।

এমন পরিবেশে এর আগে কখনো উপস্থিত হননি উল্লেখ করে মার্জিয়ার বাবা বলেন, ‘পাঁচ তারকা হোটেল কখনো চোখেও দেখিনি। স্বপ্নেও ভাবিনি কখনো পাঁচ তারকা হোটেলে প্রবেশ করবো, খাবো, পুরস্কার নেবো। এমন পরিবেশে এবারই প্রথম। তাই মঞ্চে উঠে প্রথমে ইতস্তত বোধ করছিলাম। মেয়ের সফলতায় আজ আমরা গর্বিত। আশাকরি আমাদের মেয়েরা দেশের ফুটবলকে অনেক দূর এগিয়ে নিয়ে যাবে।

প্রতিবেদন: কবিরুল ইসলাম, সম্পাদনা: তুসা


সর্বশেষ

আরও খবর

করোনায় আরও ৩০ জনের মৃত্যু, ৭৮ দিনের মধ্যে সর্বোচ্চ শনাক্ত

করোনায় আরও ৩০ জনের মৃত্যু, ৭৮ দিনের মধ্যে সর্বোচ্চ শনাক্ত


ঢাবি ছাত্রী ধর্ষণ মামলায় মজনুর যাবজ্জীবন কারাদণ্ড

ঢাবি ছাত্রী ধর্ষণ মামলায় মজনুর যাবজ্জীবন কারাদণ্ড


মানুষের জন্য কিছু করতে পারাই আমাদের রাজনীতির লক্ষ্য: প্রধানমন্ত্রী

মানুষের জন্য কিছু করতে পারাই আমাদের রাজনীতির লক্ষ্য: প্রধানমন্ত্রী


আনিসুল হত্যা: মানসিক স্বাস্থ্য ইন্সটিটিউটের রেজিস্ট্রার গ্রেপ্তার

আনিসুল হত্যা: মানসিক স্বাস্থ্য ইন্সটিটিউটের রেজিস্ট্রার গ্রেপ্তার


পাওয়ার গ্রিডের আগুনে বিদ্যুৎ-বিচ্ছিন্ন পুরো সিলেট, ব্যাপক ক্ষতি

পাওয়ার গ্রিডের আগুনে বিদ্যুৎ-বিচ্ছিন্ন পুরো সিলেট, ব্যাপক ক্ষতি


দুইদিনের বিক্ষোভের ডাক বিএনপির

দুইদিনের বিক্ষোভের ডাক বিএনপির


বাস পোড়ানোর মামলায় বিএনপির ২৮ নেতাকর্মী রিমান্ডে

বাস পোড়ানোর মামলায় বিএনপির ২৮ নেতাকর্মী রিমান্ডে


অবশেষে পাঁচ বছর পর নেপালকে হারালো বাংলাদেশ

অবশেষে পাঁচ বছর পর নেপালকে হারালো বাংলাদেশ


মাইন্ড এইড হাসপাতালে তালা, মালিক গ্রেপ্তার

মাইন্ড এইড হাসপাতালে তালা, মালিক গ্রেপ্তার


অবশেষে গ্রেফতার হলো এসআই আকবর

অবশেষে গ্রেফতার হলো এসআই আকবর