Thursday, June 30th, 2016
বাবুলকে ফাঁসানোর চেষ্টা চলছে: মিতুর বাবা
June 30th, 2016 at 7:52 pm
বাবুলকে ফাঁসানোর চেষ্টা চলছে: মিতুর বাবা

প্রীতম সাহা সুদীপ, ঢাকা: চট্টগ্রামে নিহত মাহমুদা আক্তার মিতুর স্বামী পুলিশ সুপার বাবুল আক্তারকে ফাঁসানোর চেষ্টা চলছে। নিউজনেক্সট ডটকম’কে বৃহস্পতিবার দেয়া এক সাক্ষাতকারে এমনটাই দাবি করেছেন মিতুর বাবা সাবেক পুলিশ কর্মকর্তা (ওসি) মোশারফ হোসেন। এ জন্য তিনি ‘প্রফেসনাল জেলাসী’ –কে দায়ী করেছেন।

মোশারফ বলেন, ‘তদন্তকারীরা তদন্তের মূল জায়গা থেকে সরে যাচ্ছে। এর কারণ কী বা কেন এটা করা হচ্ছে তা তারাই ভালো বলতে পারবেন। মিতু খুন হওয়ার পর এখন বাবুলকেও দায়ী করা হচ্ছে, জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। এর পেছনে প্রফেশনাল জেলাসি বা অন্য কোন কারণ থাকতে পারে। তবে আমি শতভাগ নিশ্চিত বাবুলকে ফাঁসানোর চেষ্টা চলছে। সে এমন কাজ করতেই পারেনা।’

তিনি বলেন, ‘আমার পরিবার ও আত্মীয় স্বজনদের কেউ এটা বিশ্বাস করবে না যে বাবুল মিতুকে খুন করাতে পারে। ১৪ বছর হলো তাদের বিয়ে হয়েছে। এতগুলো বছরে একবারও তাদের মধ্যে ঝগড়া বিবাদ হতে দেখিনি।’  

এর আগে গত শুক্রবার ঢাকায় ১৫ ঘণ্টা গোয়েন্দা হেফাজতে জিজ্ঞাসাবাদ শেষে খিলগাঁওতে শ্বশুর বাড়ি ফিরে মুখে কুলুপ এঁটেছেন বাবুল আক্তার নিজেও। গুঞ্জন রয়েছে, জিজ্ঞাসাবাদের সময় বাবুলকে চাকরি থেকে ইস্তফা দেয়ার প্রস্তাব দেয়া হয়েছে এবং তিনি তা মেনেও নিয়েছেন। তবে কেন তাকে চাকরি ছাড়ার শর্ত দেয়া হলো তা স্পষ্ট হচ্ছে না। বিভিন্ন গণমাধ্যমে মিতু হত্যার পেছনে তার স্বামী বাবুলের হাত থাকতে পারে বলেও ‘বিশ্বস্ত’ বা ‘নির্ভরযোগ্য’ সূত্র দিয়ে প্রতিবেদন প্রকাশ করা হয়েছে।

তবে মোশারফ হোসেন বলেন, ‘বাবুল যদি আমার মেয়েকে খুনই করে, তাহলে কি সে সাক্ষী রেখে করবে? তার সোর্স দিয়ে কি সে আর তার স্ত্রীকে মারাবে? নিজের বাসার সামনে, নিজ-সন্তানের সামনে স্ত্রীকে খুন করাবে? এসব গুজব বিশ্বাসযোগ্য নয়।’

মিতুকে কেন খুন করা হলো? এই হত্যার মোটিভ কি? জানতে চায় মিতুর বাবা

তিনি বলেন, ‘একজন রিকশাওয়ালার সঙ্গেও যদি তার স্ত্রী ঝগড়া বিবাদ হয় তাহলে পরদিন সে ঠিক মতো রিকশা চালাতে পারেনা। বাবুলের চাকরিতে ১১ বছরের সাফল্য, ঘরে ঝগড়া বিবাদ থাকলে এ সাফল্য কখনোই আসতোনা। হঠাৎ আজ বাবুলের দিকে ডিপার্টমেন্টের সবার আঙ্গুল উঠছে কেন? এর কারণ কি হতে পারে? বড় বড় অফিসাররা বাবুলকে নিজের ডিপার্টমেন্টে নিতে চাইতো, আইজিপির কাছে তারা রিকোয়েস্ট করতো। সবার আদরের সবার প্রিয় সেই লোকটা রাতারাতি কেন অপ্রিয় হয়ে উঠলো।’

তিনি বলেন, ‘যাদের গ্রেফতার করা হয়েছে তাদের মধ্যে ২০ ভাগও যদি এই খুনের সঙ্গে জড়িত থাকে, তাহলে এটা পজিটিভ সাইন। কারণ এদের মাধ্যমে বাকিদের গ্রেফতার করে সত্য রহস্য উদঘাটন করা যাবে। কিন্তু আমার প্রশ্ন একটাই। মিতুকে কেন খুন করা হলো? এই হত্যার মোটিভ কি?’

বাবুল আক্তারের বর্তমান অবস্থা সম্পর্কে জানতে চাইলে মিতুর বাবা বলেন, ‘গোয়েন্দা হেফাজত থেকে বাসায় ফেরার পর বাবুল দো-তলার ঘরেই আছে। প্রয়োজন ছাড়া কারো সঙ্গে কথা বলছে না। বাচ্চাদের নিয়ে আছে, ওদের দেখাশোনা করছে। বাসা থেকেও বের হচ্ছে না।’ তিনি জানান, জিজ্ঞাসাবাদের বিষয়ে বাবুল আক্তার তার সঙ্গে কোনো কথা বলেননি। তিনি পত্রিকায় দেখেছেন যে, জিজ্ঞাসাবাদের সময় বাবুল আক্তারের কাছ থেকে জোর করে সাদা কাগজে স্বাক্ষর নেয়া হয়েছে। এসব খবর সম্পর্কে তার কোনো ধারণা নেই।

নিউজনেক্সটবিডি ডটকম/পিএসএস/এসকে/এসজি


সর্বশেষ

আরও খবর

করোনায় আরও ৩০ জনের মৃত্যু, ৭৮ দিনের মধ্যে সর্বোচ্চ শনাক্ত

করোনায় আরও ৩০ জনের মৃত্যু, ৭৮ দিনের মধ্যে সর্বোচ্চ শনাক্ত


ঢাবি ছাত্রী ধর্ষণ মামলায় মজনুর যাবজ্জীবন কারাদণ্ড

ঢাবি ছাত্রী ধর্ষণ মামলায় মজনুর যাবজ্জীবন কারাদণ্ড


আনিসুল হত্যা: মানসিক স্বাস্থ্য ইন্সটিটিউটের রেজিস্ট্রার গ্রেপ্তার

আনিসুল হত্যা: মানসিক স্বাস্থ্য ইন্সটিটিউটের রেজিস্ট্রার গ্রেপ্তার


পাওয়ার গ্রিডের আগুনে বিদ্যুৎ-বিচ্ছিন্ন পুরো সিলেট, ব্যাপক ক্ষতি

পাওয়ার গ্রিডের আগুনে বিদ্যুৎ-বিচ্ছিন্ন পুরো সিলেট, ব্যাপক ক্ষতি


দুইদিনের বিক্ষোভের ডাক বিএনপির

দুইদিনের বিক্ষোভের ডাক বিএনপির


অবশেষে পাঁচ বছর পর নেপালকে হারালো বাংলাদেশ

অবশেষে পাঁচ বছর পর নেপালকে হারালো বাংলাদেশ


অবশেষে গ্রেফতার হলো এসআই আকবর

অবশেষে গ্রেফতার হলো এসআই আকবর


থাইল্যান্ডে সেলিম প্রধানের ৭টি কোম্পানির খোঁজ পেয়েছে দুদক

থাইল্যান্ডে সেলিম প্রধানের ৭টি কোম্পানির খোঁজ পেয়েছে দুদক


মসজিদ-মন্দিরে মাস্ক পরা বাধ্যতামূলক করলো সরকার

মসজিদ-মন্দিরে মাস্ক পরা বাধ্যতামূলক করলো সরকার


করোনায় একদিনে আরও ১৮ প্রাণহানি

করোনায় একদিনে আরও ১৮ প্রাণহানি