Tuesday, June 21st, 2016
বিলুপ্ত ৩১ প্রজাতির প্রাণী
June 21st, 2016 at 11:11 pm
বিলুপ্ত ৩১ প্রজাতির প্রাণী

ঢাকা: ১০০ বছরে বাংলাদেশ ভূখন্ড থেকে একত্রিশ প্রজাতির প্রানী বিলুপ্ত হয়েছে এবং কোনো না কোনোভাবে হুমকির মুখে রয়েছে দেশের আরো ৩৯০টি  বন্য প্রাণী বলে জানিয়েছে ম্যামালিয়ান কমিউনিটি অফ বাংলাদেশ। সোমবার রাতে এক সমীক্ষায় এমন তথ্য তুলে ধরে প্রতিষ্ঠানটি। ১৫ বছর পর করা এই প্রতিবেদনে প্রথমবারের মত আন্তর্জাতিক স্বীকৃত পদ্ধতি ব্যবহার করা হয়েছে। তবে এ তালিকায় ১৪টি নতুন প্রজাতিও যুক্ত হয়েছে। এদের মধ্যে পাঁচটি ইঁদুরের ও পাঁচটি প্রজাপতি বর্গের প্রজাতি।

২০০০ সালের প্রথম তালিকায় ২৬৬ প্রজাতির মাছ, ২২ প্রজাতির উভচর, ১০৯ প্রজাতির সরীসৃপ, ৩৮৮ প্রজাতির পাখি, ১১০ প্রজাতির স্তন্যপায়ী প্রাণীর উপর জরিপ চালানো হয়েছিলো। তাতে তারা এর আগের ১০০ বছরের মধ্যে ১৩ প্রজাতির প্রাণী বিলুপ্ত হওয়ার প্রমাণ পায়।

২০১৪ থেকে ২০১৫ পর্যন্ত করা এবারের তালিকার প্রধান উপদেষ্টার দায়িত্ব পালন করেছেন বন্য প্রাণী বিশেষজ্ঞ অধ্যাপক রেজা খান। এবারের তালিকা তৈরির ক্ষেত্রে আইইউসিএনের আন্তর্জাতিক সর্বজনীন পদ্ধতি অনুসরণ করা হয়েছে। সাতটি পর্যায়ে প্রতিটি প্রাণী বিষয়ক তথ্যকে যাচাই বাছাই করে তা প্রতিবেদনে যুক্ত করা হয়েছে।

তালিকায় দেখা যায়, গত ১৫ বছরে পাখি প্রজাতি সবচেয়ে বেশি বিলুপ্ত হয়েছে। দেশের ৫৬৬ প্রজাতির পাখির মধ্যে ১৯টি গত ১০০ বছরের বেশি সময়ে বিলুপ্ত হয়ে গেছে। বিলুপ্তির দিকে থেকে দ্বিতীয় স্থান স্তন্যপায়ী প্রাণীদের। ১১ প্রজাতির স্তন্যপায়ী প্রাণী হারিয়ে গেছে এই সময়ে। আর সরীসৃপজাতীয় প্রাণী বিলুপ্ত হয়েছে একটি।

প্রতিবেদনটিতে বিপন্ন প্রাণীর তালিকাকে আবার তিন ভাগে ভাগ করা হয়েছে। মহাবিপন্ন প্রাণী ৫৬টি। বিপন্ন ১৮১টি এবং ঝুঁকিতে আছে ১৫৩টি প্রজাতি। আর ঝুঁকির কাছাকাছি রয়েছে ৯০ প্রজাতির প্রাণী। তবে ৮০৩ প্রজাতির প্রাণী নিয়ে এখন পর্যন্ত দুশ্চিন্তার কিছু নেই।

বিলুপ্ত প্রাণীর মধ্যে রয়েছে- ডোরা কাটা হায়েনা,  ধূসর নেকড়ে, নীলগাই, বান্টিং বা বনগরু, বনমহিষ, তিন ধরনের গন্ডার: সুমাত্রা গন্ডার, জাভা গন্ডার ও ভারতীয় গন্ডার, বারো শিঙা হরিণ, কৃষ্ণষাঁড়, মন্থর হরিণ এই ১৩ প্রজাতির প্রাণীর মধ্যে বেশির ভাগই গত শতাব্দীতেই বিলুপ্ত হয়ে গেছে বলে প্রতিবেদনে বলা হয়েছে। এর মধ্যে একমাত্র মন্থর ভালুক নামে ভালুকের একটি প্রজাতি গত ৪০ বছরে বাংলাদেশ থেকে হারিয়ে গেছে।

মহাবিপন্ন প্রাণীদের তালিকায় রয়েছে-বেঙ্গল টাইগার, হাতি, ভোঁদড়, লামচিতা, চিতা, বনরুই, উল্লুক, চশমা পরা হনুমান, বনগরু, সাম্বার হরিণ, প্যারাইল্লা বানর, হিমালয়ান ডোরা কাঠবিড়ালি ও কালো ভালুক।

পাখির মধ্যে বিলুপ্ত হয়েছে- লালমুখ দাগিডানা, পাঁচ থেকে সাড়ে পাঁচ ফুট উচ্চতার সারস পাখি এ ছাড়া ধূসর মেটে তিতির ও বাদা তিতির পাখিও হারিয়ে গেছে। বাংলার বিখ্যাত বাদি হাঁস, গোলাপি হাঁস, বড় হাড়গিলা বা মদনটাক, ধলাপেট বগ, সাদাফোঁটা গগন রেড, রাজ শকুন, দাগি বুক টিয়াঠুঁটি, লালমাথা টিয়াঠুঁটি, গাছ আঁচড়া, সবুজ ময়ূর চিরতরে এ দেশ থেকে হারিয়ে গেছে।

উভচর প্রাণীদের তালিকা- চামড়া ঝোলা ব্যাঙ এবং কেঁচোর মতো দেখতে নীল রঙের একটি নতুন উভচর প্রাণীও মহাবিপন্ন উভচর প্রাণীর তালিকায় উঠে এসেছে। বিপন্নের তালিকায় এসেছে চিত্রিত ব্যাঙ, বেলুন ব্যাঙ, চ্যাপ্টা মাথা ব্যাঙ, ঝরনা সুন্দরী ব্যাঙ, বড় গেছো ব্যাঙ।

৩০৫ প্রজাতির প্রজাপতি নিয়ে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাণিবিদ্যা বিভাগের শিক্ষক মনোয়ার হোসেনের নেতৃত্বে একদল গবেষক কাজ করেছেন। তারা সুন্দরবন ক্রো বা বাংলার কাক নামে প্রজাপতির একটি জাতকে মহা বিপদাপন্ন হিসেবে চিহ্নিত করেছেন। এটি মূলত সুন্দরবনের কটকা ও কচিখালী এলাকার আট কিলোমিটার বিস্তীর্ণ বনে বসবাস করে।

সরীসৃপজাতীয় প্রাণীর মধ্যে মিঠাপানির কুমির বাংলাদেশ থেকে হারিয়ে গেছে। বন্য পরিবেশ থেকে এটি অনেক আগেই হারিয়ে গেলেও বাগেরহাটের খানজাহান আলীর মাজারে দুটি মিঠাপানির কুমির ছিল। দুই বছর আগে এরা মারা গিয়ে এই প্রজাতিই বাংলাদেশ থেকে বিলুপ্ত হয়ে গেছে। এ ছাড়া পদ্মার চর ও দেশের বেশির ভাগ এলাকায় একসময় ঘড়িয়াল পাওয়া যেত। এই প্রাণী দুটি এবার মহাবিপন্নের তালিকায় প্রবেশ করেছে।

নিউজনেক্সটবিডি ডটকম/এমআই/এসজি/ওয়াইএ


সর্বশেষ

আরও খবর

সিনোফার্মের ৩০ লাখ টিকা ঢাকায় এলো

সিনোফার্মের ৩০ লাখ টিকা ঢাকায় এলো


একদিনে রেকর্ড ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে ১৯৪ জন হাসপাতালে ভর্তি

একদিনে রেকর্ড ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে ১৯৪ জন হাসপাতালে ভর্তি


টিকা নেয়ার বয়সসীমা ২৫ বছর নির্ধারণ করেছে সরকার

টিকা নেয়ার বয়সসীমা ২৫ বছর নির্ধারণ করেছে সরকার


ভারত থেকে এলো আরও ২০০ টন অক্সিজেন

ভারত থেকে এলো আরও ২০০ টন অক্সিজেন


এবার এসএসসি-এইচএসসি পরীক্ষা হবে ৩ বিষয়ে

এবার এসএসসি-এইচএসসি পরীক্ষা হবে ৩ বিষয়ে


‘বিধিনিষেধে শিল্পকারখানাসহ কোনো প্রতিষ্ঠান খুললেই ব্যবস্থা’

‘বিধিনিষেধে শিল্পকারখানাসহ কোনো প্রতিষ্ঠান খুললেই ব্যবস্থা’


দেশে করোনায় মৃত্যু ও শনাক্তের রেকর্ড

দেশে করোনায় মৃত্যু ও শনাক্তের রেকর্ড


দেশে করোনায় আরও ২২৮ জনের মৃত্যু

দেশে করোনায় আরও ২২৮ জনের মৃত্যু


কঠোর লকডাউনের তৃতীয় দিনে রাজধানীতে গ্রেপ্তার ৫৮৭ জন

কঠোর লকডাউনের তৃতীয় দিনে রাজধানীতে গ্রেপ্তার ৫৮৭ জন


জাপান থেকে অ্যাস্ট্রাজেনেকার ২ লাখ ৪৫ হাজার টিকা আসলো দেশে

জাপান থেকে অ্যাস্ট্রাজেনেকার ২ লাখ ৪৫ হাজার টিকা আসলো দেশে