Sunday, April 1st, 2018
ভোট চাওয়া আমার রাজনৈতিক অধিকার: প্রধানমন্ত্রী
April 1st, 2018 at 1:07 am
ভোট চাওয়া আমার রাজনৈতিক অধিকার: প্রধানমন্ত্রী

ঢাকা: আওয়ামী লীগের সভানেত্রী ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, ‘নৌকায় ভোট চাওয়া আমার অধিকার। কারণ আমি তো একটা দলের সভানেত্রী। কাজেই আমি যেখানেই যাব, অবশ্যই আমার দলের জন্য আমি ভোট চাইব। এটা আমার রাজনৈতিক অধিকার।’

বৃহস্পতিবার ঠাকুরগাঁওয়ে বেশ কয়েকটি উন্নয়ন প্রকল্প উদ্বোধনের পর জনসভায় যোগ দিয়ে আগামী নির্বাচনে আওয়ামী লীগকে ভোট দেওয়ার ওয়াদা নেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

এর সমালোচনা করে বিএনপি নেতা মওদুদ আহমদ বলেছেন, ‘এগুলো সবই অনৈতিক ও নির্বাচন কার্যবিধির পরিপন্থি। তিনি যদি আওয়ামী লীগের সভাপতি হিসেবে নিজ খরচে জনসভা করে ভোট চাইতেন, তাহলে কারও কিছু বলার ছিল না।’

সমালোচকদের অভিযোগের জবাবে শনিবার সন্ধ্যায় গণভবনে আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী সংসদের বৈঠকের শুরুতে এই প্রসঙ্গে কথা বলেন প্রধানমন্ত্রী।

বৈঠকের শুরুতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, ‘আগামী নির্বাচন হবে। অবশ্যই আমাদের সকলকে জনগণের কাছে যেতে হবে। নৌকায় ভোট চাইতে হবে। সকলকে বলতে হবে এবং বোঝাতে হবে; একমাত্র নৌকায় ভোট দিলেই এ দেশের মানুষ উন্নতি পায়।’ তিনি আরও বলেন, ‘নৌকায় ভোট দিয়েই দেশের মানুষ স্বাধীনতা পেয়েছে, রাষ্ট্রভাষা বাংলা পেয়েছে আর দেশের উন্নতির ছোঁয়াটাও নৌকা মার্কায় ভোট দিয়েই পেয়েছে। কাজেই এই কথাটা সকলকে বলতে হবে যে আমরা নৌকা মার্কায় ভোট চাই আর দেশের উন্নয়ন করার সুযোগ চাই।’

বাংলাদেশ প্রাচ্য ও পাশ্চাত্যের মাঝে সেতুবন্ধন তৈরি করতে পারে মন্তব্য করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘সেখান থেকেই আমদের বিরাট অর্থনেতিক অর্জন হতে পারে। কিন্তু এগুলো কখনও কেউ সেভাবে বোঝেও নাই, ভাবেও নাই।’

শুধু মানবিক কারণে প্রায় ১১ লাখ রোহিঙ্গাকে বাংলাদেশে স্থান দেওয়ার কথা মনে করিয়ে দিয়ে তিনি বলেন, ‘আমাদের ভূমিকায় আন্তর্জাতিক বিশ্ব ভূয়সী প্রশংসা করেছে। সারা বিশ্ব এখন বাংলাদেশের সাথে রয়েছে।’

২০১৪ সালে দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে জয়ী হয়ে আওয়ামী লীগ টানা দ্বিতীয়বারের মতো সরকার গঠন করায় দেশের উন্নয়নের ধারাবাহিকতা নিশ্চিত হয়েছে মন্তব্য করে শেখ হাসিনা বলেন, ‘মর্যাদাশীল জাতি হিসাবে নিজেদের সম্পদ দিয়েই উন্নতি করতে হবে।’

আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সভায় দলের জ্যেষ্ঠ নেতাদের মধ্যে কৃষিমন্ত্রী মতিয়া চৌধুরী, জনপ্রশাসনমন্ত্রী সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম, কাজী জাফরউল্লাহ, সাহারা খাতুন, ফারুক খান, আবদুর রাজ্জাক, পীযূষ কান্তি ভট্টাচার্য প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

গ্রন্থনা ও সম্পাদনা: এম কে রায়হান


সর্বশেষ

আরও খবর

সাম্প্রদায়িক সন্ত্রাস, সংবিধান এবং আশাজাগানিয়া মুরাদ হাসান

সাম্প্রদায়িক সন্ত্রাস, সংবিধান এবং আশাজাগানিয়া মুরাদ হাসান


কুমিল্লার মণ্ডপে কোরআন রাখা ব্যক্তি শনাক্ত

কুমিল্লার মণ্ডপে কোরআন রাখা ব্যক্তি শনাক্ত


কুমিল্লার মূল অভিযুক্ত পালিয়ে বেড়াচ্ছে, দ্রুতই গ্রেপ্তার: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

কুমিল্লার মূল অভিযুক্ত পালিয়ে বেড়াচ্ছে, দ্রুতই গ্রেপ্তার: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী


হামলায় জড়িতদের বিরুদ্ধে দ্রুত ব্যবস্থা নিতে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশ

হামলায় জড়িতদের বিরুদ্ধে দ্রুত ব্যবস্থা নিতে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশ


দেবীগঞ্জের অগ্নিকাণ্ড নিছক দূর্ঘটনা: ইউএনও

দেবীগঞ্জের অগ্নিকাণ্ড নিছক দূর্ঘটনা: ইউএনও


সাম্প্রদায়িক নৈরাজ্যে আক্রান্ত ২৩ জেলা

সাম্প্রদায়িক নৈরাজ্যে আক্রান্ত ২৩ জেলা


ওয়েবসাইট বন্ধ করে দিয়েছে ইভ্যালি কর্তৃপক্ষ

ওয়েবসাইট বন্ধ করে দিয়েছে ইভ্যালি কর্তৃপক্ষ


ময়মনসিংহে সড়ক দুর্ঘটনায় ৭ জনের মৃত্যু

ময়মনসিংহে সড়ক দুর্ঘটনায় ৭ জনের মৃত্যু


পেঁয়াজের আমদানি শুল্ক প্রত্যাহার করলো জাতীয় রাজস্ব বোর্ড

পেঁয়াজের আমদানি শুল্ক প্রত্যাহার করলো জাতীয় রাজস্ব বোর্ড


মিরপুরে খালে পড়ে নিখোঁজ ব্যক্তিকে ৬ ঘণ্টা পর জীবিত উদ্ধার

মিরপুরে খালে পড়ে নিখোঁজ ব্যক্তিকে ৬ ঘণ্টা পর জীবিত উদ্ধার