Monday, July 25th, 2016
মৃত্যুপণে কিনতে হচ্ছে মানুষের নিরাপত্তা: রিজভী
July 25th, 2016 at 1:56 pm
মৃত্যুপণে কিনতে হচ্ছে মানুষের নিরাপত্তা: রিজভী

ঢাকা: বর্তমান সরকারের হিংস্রতা উগ্রবাদী জঙ্গিদের মতোই কাণ্ডজ্ঞানহীন অন্ধ এবং বেপরোয়া। এদেশে এখন মৃত্যুপণে কিনতে হয় মানুষের নিরাপত্তা। চারিদিকে শুধুই করোটিতে পরিপূর্ণ অন্ধকার প্রান্তর বলে জানিয়েছেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব অ্যাডভোকেট রুহুল কবির রিজভী।

বর্তমান সরকার এগিয়ে চলেছে এক মহাপরিকল্পনা বাস্তবায়ন করতে এমন অভিযোগও করেন রিজভী। তিনি বলেন, ‘সেই দূরভিসন্ধিমূলক পরিকল্পনা হচ্ছে বাংলাদেশের রাজনীতির দৃশ্যপট থেকে খালেদা জিয়া এবং তারেক রহমানকে সরিয়ে দেওয়া।’

‘এজন্যই দেশব্যাপী নানান ধরণের নি:শ্বাসরোধকারী, জীবনসংহারী সহিংস রক্তপাতের ঘটনা ঘটানো হচ্ছে। গুম আর বন্দুকযুদ্ধের নামে মানুষ হত্যার ভয়ংকর প্রবণতাকে টিকিয়ে রাখার পরেও দেশে ভয়াবহ সন্ত্রাসের নতুন মাত্রা যোগ হয়েছে উগ্রবাদী জঙ্গিগোষ্ঠীর রক্তঝরা তাণ্ডবে’ বলেন তিনি।

সোমবার দুপুরের দিকে রাজধানীর নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।

সরকার তার স্বরে জঙ্গিবাদ নির্মূলের কথা বারবার ঘোষণার পরেও উগ্রবাদীরা অতর্কিতে নিষ্ঠুর মৃত্যুর ফাঁদ পেতে রেখে নিরীহ দেশি-বিদেশি মানুষের জীবন কেড়ে নিচ্ছে জানিয়ে তিনি বলেন, ‘সরকার বিদ্যমান রক্তক্ষরণের অরাজকতা সামাল দিতে না পেরে নিজেদের ব্যর্থতায় দিশেহার হয়ে আরো বেশী প্রতিহিংসাপরায়ণ হয়ে উঠেছে। আর এই প্রতিহিংসা মেটাতে গিয়ে বিএনপিসহ দেশের গণতান্ত্রিক শক্তির ওপর হামলে পড়ছে। বাংলাদেশ এখন হিংস্র প্রাণীসঙ্কুল।’

তিনি আরো বলেন, ‘বিএনপিকে ধ্বংস করার জন্য জাতীয়তাবাদী শক্তির প্রতীক বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া এবং বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান জনাব তারেক রহমানকে নানাভাবে পর্যদুস্ত করতে প্রতিহিংসার ছোবল দিয়ে যাচ্ছেন বিরতিহীনভাবে। আর এই প্রতিহিংসার বিষ প্রবাহিত হয়ে গোটা জাতিকেই বেদনায় নীল করে দিয়েছে। এই সরকারের আন্দোলনের ফসল ১/১১ এর মঈনউদ্দন-ফখরুদ্দিনের সরকার তারেক রহমানের ওপর চালিয়েছে নিষ্ঠুর ও বর্বর নির্যাতন। এরই ধারাবাহিকতায় এখনও পর্যন্ত চলছে তার ওপর নানামুখী মিথ্যা মামলা-মোকদ্দমা, হুমকি, মিথ্যাচার ও কুৎসা রটনাসহ এখন খালাস পাওয়া একটি মামলায় আদালতের কাঁধে বন্দুক রেখে একেবারে অন্যায় অন্যায্যভাবে সাজা দেওয়া হয়েছে।’

‘আওয়ামী লীগ এখন আর একটি রাজনৈতিক দল নয়’ উল্লেখ করে রিজভী বলেন, ‘আওয়ামী লীগ তার ঐতিহ্য হারিয়ে ফেলে ক্ষমতার লালসায় দু:শাসনের মাধ্যমে দেশের জনগণকে বিষম মরণঘূর্ণিতে ফেলে দিয়েছে। ফলে পথবিচ্যুৎ এই দলটি বহুত্ত্ববাদী গণতন্ত্র, সার্বভৌমত্ব, স্বাধীনতা সবকিছুকে জলাঞ্জলি দিয়েছে এবং দলটির প্রধান দেশের প্রধানমন্ত্রী পার্শ্ববর্তী একটি দেশের পক্ষে নিজেকে বাংলাদেশের কেয়ারটেকারে পরিণত করেছেন। দেশের বর্ষীয়ান রাজনীতিবিদ বাবু সুরঞ্জিত সেনগুপ্ত নিজের দল আওয়ামী লীগ সম্পর্কে বলেছেন, আওয়ামী লীগ এখন বামলীগে পরিণত হয়েছে। আমার মনে হয় তিনি যথার্থই বলেছেন, তবে তা আরো যথার্থ হতো যদি বলতেন আওয়ামী লীগ এখন ইনুলীগে পরিণত হয়েছে।’

‘দেশে অশুভ শক্তিকে রুখে দাঁড়ানোর জন্য আমরা হারানো গণতন্ত্রের পক্ষেও কথা বলবো আবার দেশের অভ্যন্তরে মানবতা-সভ্যতা-সংস্কৃতি বিরোধী অশুভ শক্তিকে নির্মূল করতে জাতীয় ঐক্যের পক্ষে আহবান জানিয়ে যাবো। আমরা এদেশকে জনহীন, শব্দহীন, লোকালয়হীন গোরস্থানে পরিণত হতে দিতে পারি না,’ বলেন বিএনপির এই নেতা।

নিউজনেক্সটবিডি ডটকম/ওয়াইএ


সর্বশেষ

আরও খবর

দুইদিনের বিক্ষোভের ডাক বিএনপির

দুইদিনের বিক্ষোভের ডাক বিএনপির


ভোট সুষ্ঠু হয়েছে; দাবি প্রধান নির্বাচন কমিশনারের

ভোট সুষ্ঠু হয়েছে; দাবি প্রধান নির্বাচন কমিশনারের


জাতীয় পার্টির ‘ধর্ষণ ও নারী নির্যাতন’ বিরোধী সমাবেশ

জাতীয় পার্টির ‘ধর্ষণ ও নারী নির্যাতন’ বিরোধী সমাবেশ


গালিগালাজের ভয়েস নিজের না দাবি নিক্সন চৌধুরীর

গালিগালাজের ভয়েস নিজের না দাবি নিক্সন চৌধুরীর


বিএনপি মহাসচিবের বাসায় ঢিল: ১২ নেতা সাময়িক বহিষ্কার

বিএনপি মহাসচিবের বাসায় ঢিল: ১২ নেতা সাময়িক বহিষ্কার


‘সুপারম্যান‘ ট্রাম্প করোনাভাইরাসের ‘সুপারপাওয়ার‘ বুঝতে ভুল করেছেন

‘সুপারম্যান‘ ট্রাম্প করোনাভাইরাসের ‘সুপারপাওয়ার‘ বুঝতে ভুল করেছেন


লন্ডনে টাওয়ার হ্যামলেটস এর স্পীকার হিসেবে দায়িত্ব নিলেন ব্রিটিশ বাঙ্গালী আহবাব হোসেন

লন্ডনে টাওয়ার হ্যামলেটস এর স্পীকার হিসেবে দায়িত্ব নিলেন ব্রিটিশ বাঙ্গালী আহবাব হোসেন


ভেঙে গেলো গণফোরাম

ভেঙে গেলো গণফোরাম


২৫ সেপ্টেম্বর ১৯৭৪, জাতিসংঘে বঙ্গবন্ধু

২৫ সেপ্টেম্বর ১৯৭৪, জাতিসংঘে বঙ্গবন্ধু


ভূরাজনৈতিক বিরোধে জাতিসংঘকে দুর্বল না করার আহবান প্রধানমন্ত্রীর

ভূরাজনৈতিক বিরোধে জাতিসংঘকে দুর্বল না করার আহবান প্রধানমন্ত্রীর