Saturday, May 13th, 2017
লাগামহীন ভাবে বাড়ছে মাছ-মাংস-চালের দাম
May 13th, 2017 at 9:24 am
লাগামহীন ভাবে বাড়ছে মাছ-মাংস-চালের দাম

এম কে রায়হান: রমজান উপলক্ষে বিশ্বের প্রায় সব মুসলিমপ্রধান দেশে নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যে ছাড়ের ব্যবস্থা থাকলেও আমাদের দেশের চিত্র উল্টো। প্রতি বছরই রোজার আগে বাংলাদেশে সব নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের দাম বাড়ানো হয়। এবারও তার ব্যতিক্রম হয়নি। রমজান মাস সামনে রেখে প্রায় দেড় মাস আগেই সব পণ্যের দাম বাড়িয়েছেন ব্যবসায়ীরা। প্রতি সপ্তাহেই এ দাম দফায় দফায় বাড়ানো হয়েছে; সঙ্গে নানা অজুহাত।

রমজান মাস শুরু হতে আরও ১৫ দিন বাকি। চলতি মে মাসের প্রথম সপ্তাহে রাজধানীর বাজারে মাছ, মুরগি, সবজি থেকে শুরু করে চাল-ডাল পর্যন্ত সব ভোগ্যপণ্যের দাম এক দফা বাড়ানো হয়েছিল। আর মে মাসের দ্বিতীয় সপ্তাহে বাজার পর্যবেক্ষণে দেখা গেছে, রমজানে প্রয়োজনীয় নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যসহ সব ধরণের ভোগ্যপণ্যের দাম আরও এক দফা বাড়িয়েছেন রাজধানীর ব্যবসায়ীরা।

গত সপ্তাহে ৫০০ টাকা কেজিতে বিক্রি হওয়া গরুর মাংসের দাম এবার আরও এক ধাপ বাড়ানো হয়েছে। আজকের বাজারে প্রতি কেজি গরুর মাংস ৫৫০-৬০০ টাকা এবং খাসির মাংসা ৭৫০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। শবে বরাতের আগে হঠাৎ মাংসের দাম বাড়ার জন্য ভারত থেকে গরু আমদানি বন্ধ এবং দেশি খামারিদের গরু বিক্রি বন্ধ করে দেওয়াকেই দায়ী করছেন ব্যবসায়ীরা।

সপ্তাহের ব্যবধানে প্রতি কেজি রসুনের দাম বাড়ানো হয়েছে ২০-৩০ টাকা পর্যন্ত। এছাড়া ছোলা, চিনি, মুরগির দামও প্রতি কেজিতে ১০-১৫ টাকা হারে বাড়ানো হয়েছে। আর চাঁদাবাজি ও হাটে অনিয়ম বন্ধের আন্দোলনের পর দুই দফা বাড়ানো হয়েছে গরুর মাংসের দাম।

রাজধানীর কারওয়ান বাজারসহ কয়েকটি বাজার ঘুরে এমন চিত্র দেখা গেছে। বাজারে দেখা গেছে, সপ্তাহের ব্যবধানে প্রায় সব ধরনের সবজির দাম প্রতি কেজিতে ৫-১০ টাকা করে বাড়ানো হয়েছে। রমজান মাস শুরুর আগে লেবু, বেগুন, শসা, গাজরের দাম আরেক দফা বাড়তে পারে বলে জানিয়েছেন সংশ্লিষ্ট ব্যবসায়ীরা। সবজি ও মুদি পণ্যের মতো এ সপ্তাহে প্রায় সব ধরনের চালের দামও বেড়েছে। সপ্তাহের ব্যবধানে প্রতি কেজিতে মান ভেদে চালের দাম বেড়েছে ৫-৭ টাকা।

এছাড়া বয়লার মুরগির দাম কেজি প্রতি ৫-১০ টাকা বেড়ে আজকের বাজারে ১৬৫ টাকা; পাকিস্তানি মুরগি আকার ভেদে ১৩০-২০০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। একইসঙ্গে রাজধানীর বাজারে ডিমের দামও কিছুটা বেড়েছে। বয়লার মুরগির লাল ডিম প্রতি হালি ২৮ টাকা ও ডজন ৮৫ টাকা; দেশি মুরগির ডিম হালি ৫৫ টাকা ও ডজন ১৬০ টাকা এবং হাসের ডিম হালি ৪০ টাকা ও ডজন ১১০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

এদিকে রমজান মাসকে সামনে রেখে আগামী ১৫ মে থেকে রাজধানীর ৩০টিসহ সারাদেশের ১৮৫টি নির্ধারিত স্থানে ৫টি পণ্য বিক্রি করবে টিসিবি। টিসিবির বিবৃতিতে জানানো হয়েছে, চিনি কেজি প্রতি ৫৫ টাকা, ছোলা ৭০ টাকা, মসুর ডাল ৮০ টাকা, খেজুর ১২০ টাকা এবং সয়াবিন তেল লিটার প্রতি ৮৫ টাকায় বিক্রি হবে।

ঢাকায় ৩০টি; চট্টগ্রামে ১০টি, অন্যান্য বিভাগীয় শহরে ৫টি ও জেলা সদরে ২টি করে ট্রাকে করে সারাদেশে এসব পণ্য বিক্রি করবে টিসিবি। এছাড়া টিসিবির নিজস্ব ১০টি খুচরা বিক্রয় কেন্দ্র এবং ২ হাজার ৮১১ জন পরিবেশকের কাছ থেকেও ভোক্তারা পণ্য কিনতে পারবেন। একজন ভোক্তা প্রতিদিন সর্বোচ্চ ৪ কেজি চিনি, ৩ কেজি মশুর ডাল, ৫ লিটার সয়াবিন তেল, ৫ কেজি ছোলা এবং এক কেজি খেজুর কিনতে পারবেন।


সর্বশেষ

আরও খবর

ইগলু আইসক্রিমকে ৫ লাখ টাকা জরিমানা

ইগলু আইসক্রিমকে ৫ লাখ টাকা জরিমানা


বুধবার সন্ধ্যা ৬টায় দেশে ফিরছেন ওবায়দুল কাদের

বুধবার সন্ধ্যা ৬টায় দেশে ফিরছেন ওবায়দুল কাদের


খ্রিস্ট ধর্মীয় অনুভূতি: কবি ও সাংবাদিক হেনরী স্বপন গ্রেপ্তার

খ্রিস্ট ধর্মীয় অনুভূতি: কবি ও সাংবাদিক হেনরী স্বপন গ্রেপ্তার


কক্সবাজারে বন্দুকযুদ্ধে নিহত ৩

কক্সবাজারে বন্দুকযুদ্ধে নিহত ৩


ভূমধ্যসাগরে নিহত ২৭ বাংলাদেশির পরিচয় মিলেছে

ভূমধ্যসাগরে নিহত ২৭ বাংলাদেশির পরিচয় মিলেছে


ফুট ওভার ব্রীজ ব্যবহারে অনীহা

ফুট ওভার ব্রীজ ব্যবহারে অনীহা


দেশে ফিরেছেন প্রধানমন্ত্রী

দেশে ফিরেছেন প্রধানমন্ত্রী


আগামী তিনদিনের মধ্যে বৃষ্টির সম্ভাবনা

আগামী তিনদিনের মধ্যে বৃষ্টির সম্ভাবনা


বাগদাদে আত্মঘাতী বোমা হামলায় নিহত ৮

বাগদাদে আত্মঘাতী বোমা হামলায় নিহত ৮


সঙ্কটে বাংলাদেশ বিমান: শিডিউল বিপর্যয়

সঙ্কটে বাংলাদেশ বিমান: শিডিউল বিপর্যয়