Monday, June 13th, 2016
সমকামী ক্লাবে হামলাকারী আইএস যোদ্ধা
June 13th, 2016 at 4:04 am
সমকামী ক্লাবে হামলাকারী আইএস যোদ্ধা

ডেস্কঃ যুক্তরাষ্ট্রের অর‍ল্যান্ডো শহরের ‘পালস’ নামের সমকামী নাইটক্লাবে হামলাকারী ওমর মতিন আইএসের প্রতি অনুগত যোদ্ধা। ফ্লোরিডার পালস ক্লাবে হামলার আগে যুক্তরাষ্ট্রের জরুরী সেবায় নিয়োজিত ৯১১ নাম্বারে ফোন করে ওমর মতিন আইএসআইএস ও সন্ত্রাসী সংগঠনটির প্রধানের প্রতি আনুগত্য প্রকাশ করে।

আইএসআইএস প্রভাবিত সংবাদ সংস্থা ‘আমাক’ এর সূত্রে জানা যায়, সমকামীতা বিরোধী জঙ্গি সংগঠনটি এই নাশকতার দায় স্বীকার করেছে, যদিও হামলায় এই সংঠনের সম্পৃক্ততা নিয়ে সন্দেহ রয়েছে।

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা এক বিবৃতিতে বলেন, হামলাকারী চরম মাত্রায় বিদ্বেষী। তিনি উক্ত হামলাকে নাইন ইলেভেন’র পর যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাসে স্মরণকালের নিকৃষ্টতম হামলা বলে আখ্যা দেন। যেখানে হামলাকারী একটি হ্যান্ডগান ও একটি অ্যাসল্ট রাইফেল ব্যবহার করে। এছাড়া তার গায়ের সাথে কোন একটা ‘বিস্ফোরক জাতীয় কিছু’ বাঁধা ছিল।

এদিকে ওমর মতিনের পিতা বলছেন, এই হামলার কারণ তার ছেলের সমকামী-বিরোধী মনোভাব, ধর্ম নয়। এনবিসিকে দেয়া তাৎক্ষনিক এক সাক্ষাৎকারে তিনি বলেন, ‘এর সাথে ধর্মের কোন সম্পর্ক নেই, তবে সম্প্রতি মিয়ামিতে একটি সমকামী যুগলকে চুম্বনরত অবস্থায় দেখার পর সে ক্রুদ্ধ হয়ে উঠেছিল।’

হামলাকারী ওমর মতিনের পিতা মির সেদ্দিক আরো বলেন, এই আক্রমণে গোটা দেশের মতোই তিনিও স্তম্ভিত। তিনি এ জন্য তার পরিবারের পক্ষ থেকে দু:খ প্রকাশ করেছেন।

আক্রমণকারী বন্দুকধারী ওমর মতিন এর আগে কোন সন্দেহভাজন সন্ত্রাসীর তালিকায় ছিল না, তবে অন্য একটি অপরাধমূলক ঘটনার জন্য তার বিরুদ্ধে তদন্ত চলছিল- যেটির সাথে নাইটক্লাবে আক্রমণের ঘটনার কোন সম্পর্ক নেই।

সিবিএস নিউজ জানাচ্ছে, তার বাড়ি ফ্লোরিডার পোর্ট সেন্ট লুসিতে। সে একজন মার্কিন নাগরিক, এবং তার বাবা-মা আফগান। পুলিশ অবশ্য এখনো আনুষ্ঠানিকভাবে তাকে সনাক্ত করে নি। তবে এফবিআইয়ের একজন কর্মকর্তা রোনাল্ড হপার বলছেন, ‘আমরা আভাস পাচ্ছি যে লোকটির উগ্রপন্থী ইসলামী আদর্শের দিকে ঝোঁক ছিল, যদিও তা এখনো নিশ্চিত করা যায় নি।’

হামলার পর অ্যামেরিকান-ইসলামিক রিলেশন কাউন্সিল যুক্তরাষ্ট্রে বসবাসরত মুসলিম সমাজকে হামলায় আহতদের জন্য রক্ত দানের আহ্বান জানিয়েছে। হামলার পূর্বে, প্রাক্তন স্ত্রীর গায়ে নিয়ম মাফিক হাত তোলার অভিযোগও এসেছে ওমর মতিনের বিরুদ্ধে।

এদিকে হামলাকারী আফগান বংশোদ্ভূত ওমর মতিনের পিতা-মাতাকে ব্যক্তিগত ভাবে চেনেন না বলে দাবী করেছের সাবেক আফগান প্রেসিডেন্ট হামিদ কারজাই। যুক্তরাষ্ট্রে অবস্থান কালে সিএনএন’কে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে, হামলাকারী মতিনের জন্ম, শিক্ষা ও বেড়ে ওঠা যুক্তরাষ্ট্রে হওয়ায় তার বিদ্বেষী মনোভাবের পেছনে আফগানিস্তানের কোন প্রভাব নেই বলে দাবী করেন তিনি। হামলা পরবর্তী আমেরিকার পাশে থাকারও প্রতিশ্রুতি দিয়ে তিনি আরো বলেন, চরমপন্থীরা কখনোই ইসলামের প্রতিনিধিত্ব করে না।

এর আগে যুক্তরাষ্ট্রের অরল্যান্ডো শহরে ‘পালস’ নামের নাইটক্লাবে এক বন্দুকধারীর হামলায় নিহতের সংখ্যা বেড়ে ৫০-এ উঠেছে। শহরের মেয়র এই সংখ্যা নিশ্চিত করে বলেছেন আহত হয়েছেন অন্তত ৫৩ জন।

সূত্র: ইন্ডিপেন্ডেন্ট ডটসিও ডটইউকে ও বিবিসি

নিউজনেক্সটবিডিডটকম/এসকেএস/টিএস


সর্বশেষ

আরও খবর

শান্তিতে নোবেল পেলেন দুই সাংবাদিক

শান্তিতে নোবেল পেলেন দুই সাংবাদিক


আফগানিস্তানে মসজিদে বোমা বিস্ফোরণে আহত শতাধিক

আফগানিস্তানে মসজিদে বোমা বিস্ফোরণে আহত শতাধিক


পাকিস্তানে ভূমিকম্পে কমপক্ষে ২০ জন নিহত

পাকিস্তানে ভূমিকম্পে কমপক্ষে ২০ জন নিহত


কাবুল বিমানবন্দরের কাছে আবার বিস্ফোরণ

কাবুল বিমানবন্দরের কাছে আবার বিস্ফোরণ


মেক্সিকোতে সাংবাদিককে গুলি করে হত্যা

মেক্সিকোতে সাংবাদিককে গুলি করে হত্যা


বিশ্বে একদিনে আরও ১০ হাজার মানুষের মৃত্যু

বিশ্বে একদিনে আরও ১০ হাজার মানুষের মৃত্যু


ভারতের উত্তর প্রদেশে ট্রাকের ধাক্কায় ১৮ বাসযাত্রী নিহত

ভারতের উত্তর প্রদেশে ট্রাকের ধাক্কায় ১৮ বাসযাত্রী নিহত


পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রীকে আম পাঠালেন শেখ হাসিনা

পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রীকে আম পাঠালেন শেখ হাসিনা


ভূমধ্যসাগরে নৌকাডুবিতে ১৭ বাংলাদেশির মৃত্যু

ভূমধ্যসাগরে নৌকাডুবিতে ১৭ বাংলাদেশির মৃত্যু


ইরাকে করোনা হাসপাতালে আগুন; নিহত অর্ধশতাধিক

ইরাকে করোনা হাসপাতালে আগুন; নিহত অর্ধশতাধিক