Tuesday, July 12th, 2016
সাখাওয়াতসহ ৯জনের  বিরুদ্ধে যুক্তি উপস্থাপন  শেষ
July 12th, 2016 at 4:06 pm
সাখাওয়াতসহ ৯জনের  বিরুদ্ধে যুক্তি উপস্থাপন  শেষ

ঢাকা: একাত্তরে সংঘটিত মানবতাবিরোধী অপরাধের মামলায়  যশোর-৬ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য মাওলানা সাখাওয়াত হোসেনসহ ৯ জনের বিরদ্ধে যুক্তি উপস্থাপন শেষ করেছে রাষ্ট্রপক্ষের প্রসিকিউশন।

এ মামলায় সাখাওয়াত হোসেন ছাড়া অপর ৮ আসামি হলেন, মো. বিল্লাল হোসেন (৭৫), মো. ইব্রাহিম হোসেন (৬০), শেখ মোহাম্মদ মুজিবর রহমান (৬১), মো. আ. আজিজ সরদার (৬৫), আ. আজিজ সরদার (৬৬), কাজী ওহিদুল ইসলাম (৬১), মো.লুৎফর মোড়ল (৬৯), আব্দুল খালেক মোড়ল (৬৮)। এদের মধ্যে সাখাওয়াত হোসেনসহ ৩ জন গ্রেফতারের পর কারাগারে রয়েছেন। বাকিরা পালাতক।

রাষ্ট্রপক্ষের যুক্তি উপস্থাপন শেষ করার পর আসামি পক্ষ তাদের প্রাথমিক যুক্তি উপস্থাপন শুরু করেছেন। একই সঙ্গে আগামীকাল বুধবার মামলায় সর্বশেষ যুক্তি উপস্থাপনের জন্য দিন ঠিক করেছে ট্রাইব্যুনাল। পরে নিউজনেক্সটবিডি ডটকমকে এই তথ্য নিশ্চিত করেছেন আসামিপক্ষের আইনজীবী আব্দুস সাত্তার পালোয়ান।

মঙ্গলবার ট্রাইব্যুনাল এর চেয়ারম্যান বিচারপতি মো. আনোয়ারুল হকের নেতৃত্বে তিন সদস্যের আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালে এই আদেশ দেন। এর আগে ট্রাইব্যুনালে আসামিদের বিরুদ্ধে যুক্তি উপস্থাপন করেন প্রসিকিউটর জেয়াদ আল মালুম, সঙ্গে ছিলেন রেজিয়া সুলতানা। অপরদিকে মাওলানা সাখাওয়াতের পক্ষে আব্দুস সাত্তার পালোয়ান এবং অন্যদের পক্ষে ছিলেন রাষ্ট্র নিযুক্ত আইনজীবী আব্দুস শুকুর খান।

এর আগে গত ৯ ফ্রেব্রুয়ারি থেকে এই মামলায় প্রসিকিউশনের সাক্ষ্যগ্রহণ শুরু হয়। রাষ্ট্রপক্ষে প্রসিকিউশনের আনা ১৭ জন সাক্ষী তদের জবানবন্দি পেশ করেন। অপরদিকে আসামিপক্ষে কোনও সাফাই সাক্ষী ছিল না।

এর আগে গত বছরের ২৩ ডিসেম্বর এই ৯ জনের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করে ট্রাইব্যুনাল।এর আগে গত ৮ সেপ্টেম্বর ৯ আসামির বিরুদ্ধে অভিযোগ আমলে নেয় ট্রাইব্যুনাল। গত ১৪ জুন তাদের বিরুদ্ধে  গণহত্যা, হত্যা, ধর্ষণ, অগ্নিসংযোগসহ  মানবতাবিরোধী অপরাধের পাচঁটি অভিযোগ আনে ট্রাইব্যুনালের তদন্ত সংস্থা। মোট ১২ আসামির মধ্যে বাকী তিনজনের সম্পৃক্ততা না পাওয়ায় তাদেরকে অব্যাহতি দিয়েছে ট্রাইব্যুনাল।

গত ১৬ জুন সাখাওয়াতসহ আসামিদের বিরুদ্ধে তদন্তের চূড়ান্ত প্রতিবেদন জমা দয়া হয়। এর আগে আদালত ৮ জনের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করে আত্মসমর্পণের জন্য পত্রিকায় বিজ্ঞপ্তি প্রকাশের নির্দেশ দেয়।

২০১২ সালের ১ এপ্রিল থেকে এ মামলায় তদন্ত শুরু করে গত ১৪ জুন শেষ করেছেন তদন্তকারী কর্মকর্তা আবদুর রাজ্জাক খান। মুক্তিযোদ্ধাসহ ৩২ জনকে এ মামলার সাক্ষী করা হয়েছে।

১৯৯১ সালে জামায়াতের পক্ষে নির্বাচনে দাঁড়িয়ে যশোর-৬ আসন থেকে শাখাওয়াত সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন। কিন্তু মেয়াদপূর্তির আগেই জামায়াত ছেড়ে বিএনপিতে যোগ দেন তিনি। মাওলানা সাখাওয়াত গত সংসদ নির্বাচনে যশোর-৬ আসনে জাতীয় পার্টি থেকে মনোনয়ন পেয়েছিলেন।

নিউজনেক্সনটবিডি ডটকম/এফএইচ/এসআই


সর্বশেষ

আরও খবর

করোনায় আরও ৩০ জনের মৃত্যু, ৭৮ দিনের মধ্যে সর্বোচ্চ শনাক্ত

করোনায় আরও ৩০ জনের মৃত্যু, ৭৮ দিনের মধ্যে সর্বোচ্চ শনাক্ত


মানুষের জন্য কিছু করতে পারাই আমাদের রাজনীতির লক্ষ্য: প্রধানমন্ত্রী

মানুষের জন্য কিছু করতে পারাই আমাদের রাজনীতির লক্ষ্য: প্রধানমন্ত্রী


আনিসুল হত্যা: মানসিক স্বাস্থ্য ইন্সটিটিউটের রেজিস্ট্রার গ্রেপ্তার

আনিসুল হত্যা: মানসিক স্বাস্থ্য ইন্সটিটিউটের রেজিস্ট্রার গ্রেপ্তার


পাওয়ার গ্রিডের আগুনে বিদ্যুৎ-বিচ্ছিন্ন পুরো সিলেট, ব্যাপক ক্ষতি

পাওয়ার গ্রিডের আগুনে বিদ্যুৎ-বিচ্ছিন্ন পুরো সিলেট, ব্যাপক ক্ষতি


বাস পোড়ানোর মামলায় বিএনপির ২৮ নেতাকর্মী রিমান্ডে

বাস পোড়ানোর মামলায় বিএনপির ২৮ নেতাকর্মী রিমান্ডে


অবশেষে পাঁচ বছর পর নেপালকে হারালো বাংলাদেশ

অবশেষে পাঁচ বছর পর নেপালকে হারালো বাংলাদেশ


মাইন্ড এইড হাসপাতালে তালা, মালিক গ্রেপ্তার

মাইন্ড এইড হাসপাতালে তালা, মালিক গ্রেপ্তার


বিরোধী নেতাদের কটাক্ষ করতেন না বঙ্গবন্ধু: রাষ্ট্রপতি

বিরোধী নেতাদের কটাক্ষ করতেন না বঙ্গবন্ধু: রাষ্ট্রপতি


মসজিদ-মন্দিরে মাস্ক পরা বাধ্যতামূলক করলো সরকার

মসজিদ-মন্দিরে মাস্ক পরা বাধ্যতামূলক করলো সরকার


করোনায় একদিনে আরও ১৮ প্রাণহানি

করোনায় একদিনে আরও ১৮ প্রাণহানি