Sunday, January 1st, 2017
সাম্রাজ্যবাদের বিরুদ্ধে দুর্বার প্রতিরোধ গড়ার প্রত্যয়
January 1st, 2017 at 9:19 pm
সাম্রাজ্যবাদের বিরুদ্ধে দুর্বার প্রতিরোধ গড়ার প্রত্যয়

মিশুক মনির, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়: সাম্রাজ্যবাদের বিরুদ্ধে ভিয়েতনাম সংহতি মিছিলে ১৯৭৩ সালে গুলিতে নিহত ইউনিয়ন নেতা শহীদ মতিউল ইসলাম ও শহীদ মির্জা কাদেরের আত্মত্যাগ থেকে শিক্ষা গ্রহণ করে সাম্রাজ্যবাদের বিরুদ্ধে দুর্বার প্রতিরোধ গড়ার প্রত্যয় ব্যক্ত করার আহ্বান জানান বক্তারা। মতিউল ও কাদেরের উত্তরসূরী হিসেবে বাংলাদেশ ছাত্র ইউনিয়ন সাম্রাজ্যবাদের সব রকমের অপচেষ্টা এবং আগ্রাসনের বিরুদ্ধে আগামীতে তাদের লড়াই-সংগ্রাম অব্যাহত রাখবে।

রোববার বাংলাদেশ ছাত্র ইউনিয়ন আয়োজিত সাম্রাজ্যবাদের বিরুদ্ধে সাম্রাজ্যবাদবিরোধী সংহতি দিবসের ৪৪তম বার্ষিকীর এক প্রতিবাদী আলোচনা সভায় বক্তারা এ আহ্বান জানান। এসময় বক্তারা সাম্রাজ্যবাদবিরোধী সংহতি দিবসে নিহত শহীদ মতিউল ইসলাম ও মির্জা কাদের এর আত্মত্যাগকে গভীরভাবে স্মরণ করেন।

আলোচক হিসেবে বক্তব্য রাখেন- ১৯৭৩ সালে ১ জানুয়ারি ভিয়েতনাম সংহতি মিছিলে নেতৃত্বদানকারী তৎকালীন ডাকসুর সহ-সভাপতি, বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টির সভাপতি কমরেড মুজাহিদুল ইসলাম সেলিম, বাংলাদেশ উদীচী শিল্পীগোষ্ঠীর সভাপতি ড. শফিউদ্দিন আহমেদ।

সভায় উদীচীর সভাপতি ড. শফিউদ্দিন আহমেদ বলেন, ‘সাম্রাজ্যবাদ রণকৌশল পাল্টিয়ে একের পর এক দেশ দখল শেষে এখন বাজার দখল করছে। সাংস্কৃতিক বিপর্যয় ঘটিয়ে তাকে পণ্য হিসেবে মানুষের সামনে উপস্থাপন করছে। মৌলবাদের জন্ম দিয়ে সাম্প্রদায়িকতা সৃষ্টি করছে। তিনি সাম্রাজ্যবাদকে রুখতে শহীদ মতিউল ও মির্জা কাদের এর আত্মত্যাগকে প্রেরণা হিসেবে গ্রহণ করতে বলেন। সমাজতন্ত্রের লাল নিশান হাতে তিনি সাম্রাজ্যবাদের পতনের আহ্বান জানান।

ডাকসুর তৎকালীন ভিপি, কমিউনিস্ট পার্টির সভাপতি মুজাহিদুল ইসলাম সেলিম বলেন, ‘সাম্রাজ্যবাদ কোন আলাদা কিছু নয় এটি পুঁজিবাদেরই অংশ। সে বাজার দখলের মাধ্যমে নতুন করে উপনিবেশবাদ এর পুর্নত্থান ঘটাচ্ছে। বিভিন্ন সংস্থার নামে নিরপত্তার অজুহাতে তার আগ্রাসন চালাচ্ছে দেশে দেশে।’

সভার সভাপতি লাকী আক্তারের বক্তব্যের মধ্যদিয়ে অনুষ্ঠানের সমাপ্তি হয়। আলোচনা সভা শেষে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও ভিয়েতনাম সংহতির প্রামাণ্যচিত্র প্রদর্শনের মাধ্যমে আলোচনা সভা শেষ হয়।

সম্পাদনা: ইয়াসিন


সর্বশেষ

আরও খবর

গুলিবিদ্ধ সাংবাদিক মারা যাওয়ার ৬০ ঘন্টা পরে পরিবারের মামলা

গুলিবিদ্ধ সাংবাদিক মারা যাওয়ার ৬০ ঘন্টা পরে পরিবারের মামলা


সমাজ ব্যর্থ হয়েছে; নাকি রাষ্ট্র ব্যর্থ হয়েছে?

সমাজ ব্যর্থ হয়েছে; নাকি রাষ্ট্র ব্যর্থ হয়েছে?


ছোটভাইকে শান্ত থাকতে বললেন ওবায়দুল কাদের

ছোটভাইকে শান্ত থাকতে বললেন ওবায়দুল কাদের


ভোট শান্তিপূর্ণ হয়েছে: ইসি সচিব; অংশগ্রহণমূলক হয়নি: নির্বাচন কমিশনার

ভোট শান্তিপূর্ণ হয়েছে: ইসি সচিব; অংশগ্রহণমূলক হয়নি: নির্বাচন কমিশনার


বঙ্গবন্ধুর মুক্তির নেপথ্যে

বঙ্গবন্ধুর মুক্তির নেপথ্যে


ছাত্রলীগকে জনসেবায় মন দেয়ার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর

ছাত্রলীগকে জনসেবায় মন দেয়ার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর


ছাত্রলীগের প্রেসিডেন্ট-সেক্রেটারিরা কেন আওয়ামী লীগ করতে পারেন না!

ছাত্রলীগের প্রেসিডেন্ট-সেক্রেটারিরা কেন আওয়ামী লীগ করতে পারেন না!


প্রেসক্লাবে বিএনপি নেতাকর্মীদের সাথে পুলিশের বিক্ষিপ্ত সংঘর্ষ

প্রেসক্লাবে বিএনপি নেতাকর্মীদের সাথে পুলিশের বিক্ষিপ্ত সংঘর্ষ


উপমহাদেশের সবচেয়ে ক্ষমতাধর নারী বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী

উপমহাদেশের সবচেয়ে ক্ষমতাধর নারী বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী


দুইদিনের বিক্ষোভের ডাক বিএনপির

দুইদিনের বিক্ষোভের ডাক বিএনপির