Friday, June 10th, 2016
১৯ জুন দেশব্যাপী মানববন্ধন ১৪ দলের
June 10th, 2016 at 8:01 pm
১৯ জুন দেশব্যাপী মানববন্ধন ১৪ দলের

ঢাকা: দেশের বিভিন্ন স্থানে চলমান গুপ্তহত্যার প্রতিবাদে আগামী ১৯ জুন বিকাল ৩ টা থেকে ৪ টা পর্যন্ত দেশব্যাপী ১ ঘন্টা মানববন্ধন এবং ১৪ জুন ঝিনাইদহে বিক্ষোভ সমাবেশ কর্মসূচি ঘোষণা দিয়েছে আওয়ামী লীগ নেতৃত্বাধীন ১৪ দলীয় জোট।

শুক্রবার বিকেলে আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার ধানমন্ডিস্থ রাজনৈতিক কার্যালয়ে কেন্দ্রীয় ১৪ দলের এক বৈঠক শেষে সংবাদ সম্মেলনে এই কর্মসূচি ঘোষণা করেন আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডীর সদস্য, কেন্দ্রীয় ১৪ দলের মুখপাত্র এবং স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম।

নাসিম বলেন, রমজানের পর গ্রামে-গঞ্জে ১৪ দল টিম করে লাগামহীনভাবে এ সব হত্যার বিরুদ্ধে গণজাগরণ তৈরি করবে। আগামী ১৯ জুন বিকাল ৩ থেকে ৪ টা পর্যন্ত দেশব্যাপী ১ ঘন্টা মানববন্ধন করবে ১৪ দল। এছাড়া ১৪ জুন ঝিনাইদহে নিহত পুরোহিতের বাসায় যাবেন ১৪ দলের নেতারা এবং সেখানে সমাবেশ হবে।

দেশে চলমান গুপ্তহত্যায় জড়িতদের রক্ষার্থে বেগম খালেদা জিয়া ঘোমটা খুলে নেমেছেন জানিয়ে মোহাম্মদ নাসিম বলেন, অত্যন্ত কাপুরুষিতভাবে গুপ্তহত্যাগুলো ঘটানো হচ্ছে। অশুভ লক্ষ্য অর্জনের জন্যই এ ঘটনাগুলো ঘটানো হচ্ছে। খালেদা বলেছেন, আওয়ামী লীগের নেতারা নাকি হত্যার সাথে জড়িত। এই কথা বলে তিনি খুনীদের প্রকাশ্যে প্রটেকশন দিচ্ছেন। তার এ চরিত্র নতুন নয়। এর আগে তিনি এবং তার স্বামী যুদ্ধাপরাধীদের রক্ষা করতে চেয়েছিলেন।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, বিশ্বের বিভিন্ন দেশের সাথে যখন আমাদের বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক আরো সুদৃঢ় হচ্ছে। আন্তর্জাতিক সম্মেলনগুলোতে শেখ হাসিনা যখন গুরুত্ব পাচ্ছেন। দেশ যখন উন্নয়ন ও প্রবৃদ্ধির দিকে এগুচ্ছে, শান্তির দ্বীপে পরিণত হতে যাচ্ছে। তখন সুপরিকল্পিতভাবে একের পর এক হত্যাকাণ্ড ঘটানো হচ্ছে।

তিনি বলেন, খালেদা জিয়া নগ্নভাবে, ঘোমটা খুলে নিয়েছেন খুনীদের রক্ষা করতে। যারা মারা গেছেন, তাদের পরিবারকে সমবেদনা না জানিয়ে খুনীদের তিনি প্রশ্রয় দিচ্ছেন। এর নিন্দা জানানোর ভাষা আমাদের নেই।

নাসিম বলেন, যারা ভাবছেন এসব ঘটনার পর আমরা আপোষ করবো, তারা বোকার স্বর্গে বাস করছেন। কারণ শেখ হাসিনা আপোস করে না।

বৈঠকের সভাপতি বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টিও সভাপতি রাশেদ খান মেনন বলেন, ফখরুল সাহেব বলেছেন, চিরুনি অভিযানে নাকি তাদের কর্মীদের ধরপাকড় করা হবে। কিন্তু বিএনপি তাদের প্রশ্রয় না দিলে তাদের ভয় পাওয়ার কোনো কারণ নেই।

এ সময়ে আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর কবির নানক, সাংগঠনিক সম্পাদক আহমদ হোসেন ও খালিদ মাহমুদ চৌধুরী, দপ্তর সম্পাদক ড. আবদুস সোবহান গোলাপ, কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য সুজিত রায় নন্দী ও আমিনুল ইসলাম আমিন, জাতীয় পার্টি জেপির সাধারণ সম্পাদক শেখ শহিদুল ইসলাম, গণতন্ত্রী পার্টির সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য নুরুর রহমান সেলিম, তরিকত ফেডারেশনের এম এ আউয়াল, কমিউনিস্ট কেন্দ্রের আহবায়ক ডা. ওয়াজেদুল ইসলাম, গণআজাদী লীগের এস কে শিকদার, বাসদের আহবায়ক রেজাউর রশিদ খান উপস্থিত ছিলেন।

নিউজনেক্সটবিডি ডটকম/জাই


সর্বশেষ

আরও খবর

হাসপাতালে ভর্তি হলেন খালেদা জিয়া

হাসপাতালে ভর্তি হলেন খালেদা জিয়া


খালেদা জিয়ার মুক্তির আবেদনে মতামত দিয়েছে আইন মন্ত্রণালয়

খালেদা জিয়ার মুক্তির আবেদনে মতামত দিয়েছে আইন মন্ত্রণালয়


ভারতে নেয়া হলো অসুস্থ তোফায়েল আহমেদকে

ভারতে নেয়া হলো অসুস্থ তোফায়েল আহমেদকে


বরিশালে সংকটের নেপথ্যে ক্ষমতার সংঘাত

বরিশালে সংকটের নেপথ্যে ক্ষমতার সংঘাত


বিএনপি-পুলিশ সংঘর্ষ; আহত অর্ধশতাধিক

বিএনপি-পুলিশ সংঘর্ষ; আহত অর্ধশতাধিক


জ্বরে আক্রান্ত খালেদা জিয়া

জ্বরে আক্রান্ত খালেদা জিয়া


খালেদা জিয়ার বিদেশে যাওয়া নিয়ে আইনি দিক খতিয়ে দেখছে বিএনপি

খালেদা জিয়ার বিদেশে যাওয়া নিয়ে আইনি দিক খতিয়ে দেখছে বিএনপি


চিকিৎসার জন্য বিদেশ যেতে পারছেন না খালেদা জিয়া: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

চিকিৎসার জন্য বিদেশ যেতে পারছেন না খালেদা জিয়া: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী


খালেদা জিয়ার বিদেশ যাওয়া প্রসঙ্গে সিদ্ধান্ত শিগগিরই: আইনমন্ত্রী

খালেদা জিয়ার বিদেশ যাওয়া প্রসঙ্গে সিদ্ধান্ত শিগগিরই: আইনমন্ত্রী


প্রধানমন্ত্রীপরিচয়ে তাজউদ্দীন ইন্দিরার সমর্থন আদায় করেন যেভাবে!

প্রধানমন্ত্রীপরিচয়ে তাজউদ্দীন ইন্দিরার সমর্থন আদায় করেন যেভাবে!