Friday, July 1st, 2016
৪৯ জেএমবি’র নেতৃত্বে ছিল খালেদ
July 1st, 2016 at 4:07 pm
৪৯ জেএমবি’র নেতৃত্বে ছিল খালেদ

ঢাকা: মাদারীপুর নাজিমুদ্দীন কলেজের গণিতের প্রভাষক রিপন চক্রবর্তী হত্যাচেষ্টার মূল পরিকল্পনাকারী খালেদ সাইফুল্লাহ (২৬) ৪৯ জন জেএমবি সদস্যের একটি গ্রুপের নেতৃত্বে ছিল বলে জানিয়েছেন মহানগর পুলিশের অতিরিক্ত কমিশনার ও কাউন্টার টেররিজম অ্যান্ড ট্রান্সন্যাশনাল ইউনিটের প্রধান মনিরুল ইসলাম।

শুক্রবার দুপুরে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) মিডিয়া সেন্টারে সাংবাদিকদের তিনি এসব তথ্য জানান। এর আগে বৃহস্পতিবার রাতে রাজধানীর ডেমরায় মাতুয়াইলের বাদশামিয়া রোড থেকে খালেদ সাইফুল্লাহ ওরফে জামিল ওরফে আফিফ কাইফি ওরফে পথভোলা পথিককে গ্রেফতার করে ডিএমপির কাউন্টার টেরোরিজম ইউনিট।

মনিরুল ইসলাম বলেন, ‘সাইফুল্লাহ ৪৯ জন জেএমবি সদস্যের একটি গ্রুপের নেতৃত্বে ছিল। আমরা এই গ্রুপের বিষয় তথ্য পেয়েছি। তাদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে। প্রভাষক রিপনের ওপর হামলার সঙ্গে আর কে কে জড়িত ছিলো সে বিষয়েও তথ্য পেয়েছি। খুব শিগগিরেই তাদের গ্রেফতার করা হবে।’

তিনি বলেন, ‘জামায়াতুল মুজাহিদিন বাংলাদেশ (জেএমবি) সংখ্যালঘুদের ওপর হামলা চালিয়ে দেশকে অস্থিতিশীল করতে চায়। আপনারা জানেন যুদ্ধাপরাধীদের বিচারের কারণে একটি রাজনৈতিক দলের পিঠ দেয়ালে ঠেকে গেছে। তাদের সঙ্গে জেএমবির উদ্দেশ্যের মিল রয়েছে।’

জেএমবির টার্গেটের বিষয়ে তিনি বলেন, ‘পুলিশ, শিয়া, আহমাদিয়া, সংখ্যালঘুসহ অন্যান্য সম্প্রদায়ের মানুষকে হত্যার টার্গেট করছে তারা। সাইফুল্লাহের কাছ থেকে উদ্ধারকৃত মোবাইল থেকে এসব টার্গেটের কথা জানা গেছে। আমরা তার মোবাইল থেকে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য পেয়েছি। সেগুলো যাচাই বাছাই করা হচ্ছে।’

কাউন্টার টেররিজমের প্রধান বলেন, ‘পুলিশের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে নিহত ফাইজুল্লাহ ফাহিম প্রথমে হিযবুত তাহরীরের সদস্য ছিল। এরপর সাইফুল্লাহ তাকে জেএমবিতে যোগদান করায়।’

বন্দুকযুদ্ধের সময় সন্ত্রাসীদের গুলিতে যে ফাহিম নিহত হয়েছে, তা কিভাবে নিশ্চিত হয়েছেন? এমন প্রশ্নের জবাবে মনিরুল ইসলাম বলেন, ‘পুলিশ ওই সময় শর্টগানের গুলি চালিয়েছিল। কিন্তু ফাহিমের শরীরে শর্টগানের কোনো গুলি পাওয়া যায়নি। তাই তার মৃত্যু সন্ত্রাসীদের গুলিতেই হয়েছে।’

১৫ জুন বিকেলে ফাহিমসহ তিনজন রিপন চক্রবর্তীকে কুপিয়ে মারাত্মক আহত করে। তার চিৎকারে আশপাশের লোকজন এগিয়ে আসলে সন্ত্রাসীরা পালিয়ে যায়। এ সময় স্থানীয়রা ফাহিমকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করে। এই ঘটনার তিনদিনের মাথায় ১৮ জুন পুলিশ রিমান্ডে থাকা অবস্থায় বন্দুকযু্দ্ধ মারা যায় ফাহিম।

নিউজনেক্সটবিডি ডটকম/পিএসএস/এসজি


সর্বশেষ

আরও খবর

করোনায় মৃত্যু ও শনাক্তের সংখ্যা বেড়েছে

করোনায় মৃত্যু ও শনাক্তের সংখ্যা বেড়েছে


গণপরিবহন আরও কিছু দিন বন্ধ রাখার পক্ষে স্বাস্থ্যমন্ত্রী

গণপরিবহন আরও কিছু দিন বন্ধ রাখার পক্ষে স্বাস্থ্যমন্ত্রী


২৪ ঘণ্টায় নতুন শনাক্ত ৩৬৩, মৃত্যু ২৫

২৪ ঘণ্টায় নতুন শনাক্ত ৩৬৩, মৃত্যু ২৫


২৩ মে পর্যন্ত লকডাউন বাড়িয়ে প্রজ্ঞাপন জারি

২৩ মে পর্যন্ত লকডাউন বাড়িয়ে প্রজ্ঞাপন জারি


ঈদের ছুটি শেষে করোনা ঝুঁকি নিয়ে ঢাকায় ফিরছে মানুষ

ঈদের ছুটি শেষে করোনা ঝুঁকি নিয়ে ঢাকায় ফিরছে মানুষ


সারাদেশে পবিত্র ঈদুল ফিতর উদযাপন, করোনামুক্তিতে বিশেষ দোয়া

সারাদেশে পবিত্র ঈদুল ফিতর উদযাপন, করোনামুক্তিতে বিশেষ দোয়া


আতঙ্কিত না হয়ে স্বাস্থ্যবিধি মানার আহ্বান রাষ্ট্রপতির

আতঙ্কিত না হয়ে স্বাস্থ্যবিধি মানার আহ্বান রাষ্ট্রপতির


স্বাস্থ্যবিধি মেনে ঈদ উদযাপনের আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর

স্বাস্থ্যবিধি মেনে ঈদ উদযাপনের আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর


পাটুরিয়া ও আরিচা ঘাটে শেষ মুহূর্তেও ভিড়

পাটুরিয়া ও আরিচা ঘাটে শেষ মুহূর্তেও ভিড়


ঈদের দিন হতে পারে হালকা বৃষ্টি

ঈদের দিন হতে পারে হালকা বৃষ্টি